Advertisement
০৭ অক্টোবর ২০২২
football

Football News: নেমারের দাপটে জিতল পিএসজি, টটেনহ্যামের হার বাঁচালেন হ্যারি কেন

পোল্যান্ড তারকা রবার্ট লেয়নডস্কি খেললেও রায়ো ভায়েকানোর সঙ্গে জ়াভি হার্নান্দেসের দলের ম্যাচ শেষ হয় গোলশূন্য অবস্থায়।

পিএসজি-র পাঁচ নম্বর গোলের পরে নেমারের উল্লাস।

পিএসজি-র পাঁচ নম্বর গোলের পরে নেমারের উল্লাস। ছবি রয়টার্স।

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা শেষ আপডেট: ১৫ অগস্ট ২০২২ ০৬:৪৮
Share: Save:

বালঁ দ্যর-এর তিরিশ জনের তালিকায় নেই তাঁর নামও। শনিবার ফরাসি লিগ ওয়ানে যেন সেই অপমানের জবাব দিলেন নেমার দা সিলভা স্যান্টোস জুনিয়র। জোড়া গোল করেন তিনি। তাঁর দল প্যারিস সঁ জরমঁ ৫-২ গোলে হারিয়েছে মঁপেলিয়ে-কে।

ম্যাচে পিএসজি ৩৯ মিনিটে ফালায়ের আত্মঘাতী গোলে এগিয়ে যায়। নেমার গোল করেন ৪৩ ও ৫১ মিনিটে। যার একটি পেনাল্টি থেকে। অন্যটি হেডে। তিনি হ্যাটট্রিকও করতে পারতেন। তবে তাঁর একটি গোল অফসাইডের কারণে বাতিল হয়ে যায়। ৫৮ মিনিটে ব্যবধান কমান ওয়াববি খাজ়রি। সংযুক্ত সময়ে মঁপেলিয়ের তাশো মিয়ায়ি গোল করেন। ম্যাচের পরে পিএসজি ম্যানেজার ক্রিস্তফ গালচিয়ে জানিয়েছেন, দলের বড় গোলে জয় তাঁকে স্বস্তি দিচ্ছে।

এ দিকে, শনিবার লা লিগার প্রথম ম্যাচেই আটকে গিয়েছে বার্সেলোনা। পোল্যান্ড তারকা রবার্ট লেয়নডস্কি খেললেও রায়ো ভায়েকানোর সঙ্গে জ়াভি হার্নান্দেসের দলের ম্যাচ শেষ হয় গোলশূন্য অবস্থায়। ম্যাচের শেষ দিকে লাল কার্ড (দুটি হলুদ কার্ড) দেখে মাঠ ছাড়েন সের্খিয়ো বুস্কেৎস।

ইপিএলে আবার লন্ডন ডার্বিতে সংযুক্ত সময়ে গোল করে টটেনহ্যামের হার বাঁচালেন হ্যারি কেন। সেই ম্যাচের শেষেই টটেনহ্যাম ম্যানেজার আন্তোনিয়ো কন্তে ও চেলসি ম্যানেজার টমাস টুহলের মধ্যে হাতাহাতি লেগে যায়। দু’দলের ফুটবলারেরা এসে পরিস্থিতি সামাল দেন। দুই ম্যানেজারকেই লাল কার্ড দেখাতে বাধ্য হন রেফারি। ম্যাচ শেষ হয় ২-২ ফলে। চেলসিকে প্রথমে এগিয়ে দিয়েছিলেন সেন্টার ব্যাক ক্যালিডু কুলিবালি। ৬৮ মিনিটে টটেনহ্যামকে সমতায় ফেরান পিয়ের এমিল হজবার্গ। তার কিছুক্ষণের মধ্যেই চেলসিকে আবার এগিয়ে দেন রিস জেমস। তাতেও শেষ রক্ষা হয়নি। টুহলের এই ম্যাচ থেকে তিন পয়েন্টের আশা চুরমার করে দেন হ্যারি কেন।

জয়ী দুই মিলান: সেরি আ-তে গতবারের চ্যাম্পিয়ন এসি মিলান ৪-২ গোলে হারিয়েছে উডিনেজ়কে। ম্যাচের দু’মিনিটে উডিনেজ়ের হয়ে গোল করেন রদ্রিগো বেকায়ো। ১১ মিনিটে পেনাল্টি থেকে ম্যাচে সমতা ফেরান এসি মিলানের থিয়ো হার্নান্দেস। চার চার মিনিট পরেই দুরন্ত শটে ২-১ করে দেন আন্তে রেবিচ। সমতা ফেরান উডিনেজ়ের অ্যাডাম ম্যাসিনা জোরালো হেডে। এসি মিলান ৩-২ করে ব্রাহিম দিয়াজ়ের সৌজন্যে। আর চতুর্থ গোল আসে সুযোগসন্ধানী রেবিচের সৌজন্যে ৬৮ মিনিটে। অন্য ম্যাচে ইন্টার মিলান ২-১ গোলে হারিয়েছে লিসকে। গোল পেলেন রোমেলু লুকাকু।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.