Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৮ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

কঠোর কোয়রান্টিন, ব্রিসবেনে টেস্ট খেলতে যেতে চাইছে না ভারত

ভারত জানিয়েছে, অস্ট্রেলিয়া বোর্ড এবং সে দেশের প্রাদেশিক সরকারগুলির নিয়মকানুন মানতে অসুবিধা নেই তাদের।

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা ০৩ জানুয়ারি ২০২১ ১১:১৮
ব্রিসবেন নিয়ে এখন মহান অনিশ্চয়তা। ফাইল ছবি

ব্রিসবেন নিয়ে এখন মহান অনিশ্চয়তা। ফাইল ছবি

যদি তাদের ওপর বিধিনিষেধ আরও বাড়ানো হয়, তাহলে ব্রিসবেনে চতুর্থ টেস্ট খেলতে না-ও যেতে পারে ভারত। এমনটাই জানা গিয়েছে দলীয় সূত্রের তরফে। জানা গিয়েছে, ব্রিসবেনে গেলে কঠোর কোয়রান্টিনে থাকতে হবে গোটা দলকে। সেক্ষেত্রে যাতায়াতের ক্ষেত্রে জারি হতে পারে কড়া নিষেধাজ্ঞা।

অস্ট্রেলিয়া সফরের শুরুতেই একটা বিষয় পরিষ্কার করে জানিয়ে দিয়েছিল ভারত। ১৪ দিনের কোয়রান্টিন পালন করা হয়ে গেলে যাতায়াতের ক্ষেত্রে তাঁদের বাকিদের মতোই ছাড় দিতে হবে। সে কারণেই রেস্তোরাঁয় খেতে গিয়েছিলেন রোহিত শর্মা, ঋষভ পন্থরা। ভারতীয় বোর্ড ইতিমধ্যেই জানিয়েছে, রোহিতরা নির্দিষ্ট দূরত্ব মেনে, নিজেদের স্যানিটাইজ করে তারপরেই টেবিলে বসেছিলেন। ব্রিসবেনে এই সুবিধা পাওয়া যাবে না বলেই গররাজি দলের সদস্যরা। সেখানে হোটেল থেকে স্টেডিয়াম ছাড়া অন্য কোথাও যাওয়ার সুযোগ থাকবে না।

দলের এক সূত্র বলেছেন, “দুবাইয়ে ১৪ দিনের কোয়রান্টিনে ছিলাম। সিডনিতে নেমে আবার ১৪ দিন কোয়রান্টিনে থেকেছি। তাই বাইরে বেরনোর আগে আমরা কঠোর জৈব নিরাপত্তার মধ্যে দিয়ে গিয়েছি। সফরের শেষে তাই কোনওভাবেই কোয়রান্টিন চাই না আমরা।”

Advertisement

আরও খবর: চনমনে ভারতীয় ক্রিকেটারেরা, রিলে পদ্ধতিতে ফিল্ডিং প্র্যাক্টিস

আরও খবর: মুম্বই দলে সুযোগ সচিন-পুত্র অর্জুনের

ভারত জানিয়েছে, অস্ট্রেলিয়া বোর্ড এবং সে দেশের প্রাদেশিক সরকারগুলির নিয়মকানুন মানতে অসুবিধা নেই তাদের। কিন্তু পুরোপুরি আটকে রাখা যাবে না। তার থেকে এক জায়গায় দুটি টেস্ট খেলতে আপত্তি নেই তাদের। দলীর সূত্র বলেছেন, “ব্রিসবেনে গেলে সেই হোটেলেই সারাক্ষণ থাকতে হবে। তার থেকে একটা শহরে থেকে দুটো ম্যাচ খেলে দেশে ফিরতে আপত্তি নেই আমাদের।”

আগামীকাল, সোমবার সিডনিতে যাওয়ার কথা রয়েছে গোটা দলের। দু’দিন অনুশীলনের পর ৭ জানুয়ারি থেকে শুরু হবে তৃতীয় টেস্ট।

আরও পড়ুন

Advertisement