Advertisement
৩১ জানুয়ারি ২০২৩
India vs Australia 2020

সিডনিতে ভারত অস্ট্রেলিয়া ম্যাচে মাঠে ঢুকে আদানির কয়লা খনি নিয়ে প্রতিবাদ

খেলার শুরু হওযার পর বড় প্ল্যাকার্ড নিয়ে দু’জন ঢুকে পড়েন মাঠের মধ্যে। সেই সময় নভদীপ সাইনি তাঁর ম্যাচের ষষ্ঠ ওভার বল করার জন্য তৈরি হচ্ছিলেন।

খেলার শুরু হওযার পর বড় প্ল্যাকার্ড নিয়ে দু’জন ঢুকে পড়েন মাঠের মধ্যে। সেই সময় নভদীপ সাইনি তাঁর ম্যাচের ষষ্ঠ ওভার বল করার জন্য তৈরি হচ্ছিলেন।

খেলার শুরু হওযার পর বড় প্ল্যাকার্ড নিয়ে দু’জন ঢুকে পড়েন মাঠের মধ্যে। সেই সময় নভদীপ সাইনি তাঁর ম্যাচের ষষ্ঠ ওভার বল করার জন্য তৈরি হচ্ছিলেন।

সংবাদ সংস্থা
সিডনি শেষ আপডেট: ২৭ নভেম্বর ২০২০ ১৫:০২
Share: Save:

আদানি গ্রুপের কয়লাখনি নিয়ে প্রতিবাদ সিডনির মাঠে। শুক্রবার, ভারত অস্ট্রেলিয়ার মধ্যে প্রথম এক দিনের ম্যাচের সময় স্টেডিয়ামের বাইরে একদল লোক অস্ট্রেলিয়ায় আদানি গ্রুপের কয়লা খনি নিয়ে প্রতিবাদ শুরু করেন। এঁদের প্রায় সকলেরই গায়ে যে টি শার্ট ছিল, তাতে লেখা ছিল ‘স্টপ আদানি’।

Advertisement

ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া মাঠে ৫০ শতাংশ দর্শক ঢোকার অনুমতি দিয়েছে। প্রতিবাদীরা সেই ভিড়েই মিশে ছিলেন। খেলার শুরু হওযার পর বড় প্ল্যাকার্ড নিয়ে দু’জন ঢুকে পড়েন মাঠের মধ্যে। সেই সময় নভদীপ সাইনি তাঁর ম্যাচের ষষ্ঠ ওভার বল করার জন্য তৈরি হচ্ছিলেন। এই প্রতিবাদীদের হাতেও ছিল পোস্টার। সেখানে লেখা ছিল, ‘কেন ভারতীয় স্টেট ব্যাঙ্ক সাধারণ মানুষের টাকা থেকে আদানিকে ১০০ কোটি টাকা ঋণ দিচ্ছে?’

প্রতিবাদী দু’জনের মধ্যে একজন পিচের খুব কাছে পৌঁছে গিয়েছিলেন। সেই সময় মাঠের নিরাপত্তাকর্মীরা তাঁকে সরিয়ে নিয়ে যান। তবে বড় কোনও অপ্রীতিকর পরিস্থিতি তৈরি হয়নি। শুক্রবার মাঠের বাইরেও আদানির প্রকল্পের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করেন অনেকে। প্রতিবাদীদের একজন জানিয়য়েছে, ‘‘যে কয়েক লক্ষ মানুষ আজ খেলা দেখছেন, তাঁদের জানার অধিকার আছে যে কর দাতাদের টাকা কীভাবে আদানির হাতে তুলে দিচ্ছে স্টেট ব্যাঙ্ক। এই প্রকল্পটি করলে পরিবেশের যা ক্ষতি হবে, তার বিরুদ্ধে লড়াই করা মুশকিল’’।

আরও পড়ুন: আউট হলেন ময়াঙ্ক, সিডনিতে ভারত ৫৭/১

Advertisement

কিন্তু মাঠে লোক ঢুকে যাওয়ার এত পরে নিরাপত্তাকর্মীরা তৎপরতা কেন দেখালেন, সেই নিয়ে একটা প্রশ্ন তৈরি হচ্ছে। প্রাক্তন অজি ক্রিকেটার অ্যাডাম গিলক্রিস্ট বলেন, ‘‘পরিস্থিতি এখন নিয়ন্ত্রণে আছে। নতুন করে নিরাপত্তা বাড়ানোর কোনও প্রয়োজন নেই।’’

আরও পড়ুন: কঙ্গনার বাংলো ভাঙার নির্দেশ খারিজ বম্বে হাইকোর্টে​

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.