Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৭ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

ভারত টি-২০ সিরিজ হারলেও গাওস্কর কেন হতাশ হবেন না জানেন?

কিংবদন্তি ওপেনার সুনীল গাওস্কর এই সিরিজকে দেখেছেন পরীক্ষা-নিরীক্ষার মঞ্চ হিসেবে। অলরাউন্ডার বিজয় শঙ্কর, উইকেটকিপার ঋষভ পন্থ, বাঁ-হাতি স্পিনা

নিজস্ব প্রতিবেদন
ওয়েলিংটন ০৭ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ ১৪:৪৭
বিশ্বকাপের চাপ সামলাতে পারেন কোন কোন ক্রিকেটার, তা দেখে নেওয়া বেশি জরুরি বলে মনে করছেন গাওস্কর। ছবি: এএফপি।

বিশ্বকাপের চাপ সামলাতে পারেন কোন কোন ক্রিকেটার, তা দেখে নেওয়া বেশি জরুরি বলে মনে করছেন গাওস্কর। ছবি: এএফপি।

বুধবার ওয়েলিংটনের ওয়েস্টপ্যাক স্টেডিয়ামে ৮০ রানে হেরে টি-টোয়েন্টি সিরিজে পিছিয়ে পড়েছে ভারত। শুক্রবার অকল্যান্ডে সিরিজের দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টিতে জিততেই হবে পরিস্থিতিতে নামবে রোহিত শর্মার দল। প্রাক্তন অধিনায়ক সুনীল গাওস্কর অবশ্য নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে টি-টোয়েন্টি সিরিজ হারলেও হতাশ হবেন না।

কিংবদন্তি ওপেনার এই সিরিজকে দেখেছেন পরীক্ষা-নিরীক্ষার মঞ্চ হিসেবে। অলরাউন্ডার বিজয় শঙ্কর, উইকেটকিপার ঋষভ পন্থ, বাঁ-হাতি স্পিনার ক্রুনাল পান্ড্যকে দেখে নিতে চাইছেন তিনি। বিশ্বকাপের চাপ সামলাতে কোন ক্রিকেটার পারবেন, কে পারবেন না, তার একটা আন্দাজও এই সিরিজে মিলবে বলে মনে করছেন তিনি।

গাওস্কর বলেছেন, “নিউজিল্যান্ডে সিরিজ জেতার দিকে যেমন ফোকাস রাখতে হচ্ছে, তেমনই বিশ্বকাপের কথা ভেবে পরীক্ষা করাও দরকার। বিশ্বকাপ আর মাত্র কয়েক মাসের দূরত্বে। চূড়ান্ত স্কোয়াড গড়ার আগে তাই কিছু পরীক্ষা করতেই হবে। বিশ্বকাপে কাদের উপর ভরসা রাখা যায়, তার আভাস এই টি২০ সিরিজেই মিলবে। বিজয় শঙ্করকে যেমন দেখে নেওয়া যাচ্ছে। টি-টোয়েন্টিতে দেখেও কিন্তু বোঝা যায় একদিনের ফরম্যাটে কেউ সাফল্য পাবে কিনা।”

Advertisement

আরও পড়ুন: নায়ক আদিত্য সারওয়াটে, টানা দু’বার রঞ্জি চ্যাম্পিয়ন হল বিদর্ভ

আরও পড়ুন: চোট, অস্ট্রেলিয়ার ভারত সফর থেকে ছিটকে গেলেন মিচেল স্টার্ক​

পরের বছর অস্ট্রেলিয়ায় বসছে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আসর। গাওস্কর সেটাও তুলে ধরেছেন। তাঁর মতে, “নিউজিল্যান্ডে জেতাও জরুরি। কিন্তু কুড়ি ওভার ফরম্যাটের বিশ্বকাপও বেশি দূরে নেই। যা হবে ২০২০ সালের অক্টোবরে। আমি সেই কথা ভেবেই ভারত এই টি-টোয়েন্টি সিরিজ হারলে বেশি হতাশ হব না। এই মুহূর্তে বিশ্বকাপের দিকেই ফোকাস রয়েছে দলের। তার জন্যই বিজয় শঙ্কর, ঋষভ পন্থ, ক্রুনাল পান্ড্যদের সুযোগ দেওয়া গুরুত্বপূর্ণ। ওরা কেমন ভাবে চাপ সামলাচ্ছে তা দেখে বোঝা যাবে বিশ্বকাপের জন্য ওরা তৈরি রয়েছে কিনা।”

ভারতের মিডল অর্ডারে নমনীয়তা চাইছেন গাওস্কর। চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির ফাইনালে অস্ট্রেলিয়ার কাছে পরাজয়ের উদাহরণ তুলে ধরেছেন তিনি। গাওস্কর বলেছেন, “ফ্লেক্সিবিলিটি থাকা প্রয়োজন। ব্যাটিং লাইন আপ যত নমনীয় হবে, তত দলের উপকার। চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির ফাইনালই দেখুন না। শুরুতে মহম্মদ আমেরের বলে ফিরেছিল রোহিত শর্মা। বিরাট কোহালি যখন ব্যাট করতে গেল, তখন বল অনেকটা সুইং হচ্ছে। তাছাড়া পাকিস্তান তিনশোর বেশি রান তুলে মানসিক ভাবেও উদ্বুদ্ধ ছিল।”

(আইসিসি বিশ্বকাপ হোক বা আইপিএল, টেস্ট ক্রিকেট, ওয়ান ডে কিংবা টি-টোয়েন্টি। ক্রিকেট খেলার সব আপডেট আমাদের খেলা বিভাগে।)

আরও পড়ুন

Advertisement