×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

১৫ মে ২০২১ ই-পেপার

এগারো বছর পরে চ্যাম্পিয়ন ইন্টার, তবু জল্পনায় কন্তে

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা ০৪ মে ২০২১ ০৬:৫৩
উৎসব: দীর্ঘ অপেক্ষার পরে ফের ইটালীয় লিগ ইন্টার মিলানের। করোনা ভুলে বিজয়োৎসবে ভক্তরা।

উৎসব: দীর্ঘ অপেক্ষার পরে ফের ইটালীয় লিগ ইন্টার মিলানের। করোনা ভুলে বিজয়োৎসবে ভক্তরা।
ছবি রয়টার্স।

স্বপ্নপূরণ! চার ম্যাচ বাকি থাকতেই এগারো বছর পরে সেরি আ চ্যাম্পিয়ন ইন্টার মিলান।

এই মরসুমে আন্তোনিয়ো কন্তের দলের খেতাব জয় ছিল শুধু সময়ের অপেক্ষা। শনিবার ক্রোটনের বিরুদ্ধে প্রথমার্ধ গোলশূন্য ভাবে শেষ হওয়ায় রক্তচাপ বেড়ে গিয়েছিল ইন্টার সমর্থকদের। ৬৯ মিনিটে ক্রিস্টিয়ান এরিকসেন গোল করে দলকে ১-০ এগিয়ে দেওয়ার পরে স্বস্তি ফেরে। ম্যাচের সংযুক্ত সময়ে ২-০ করেন আশরফ হাকিমি। এই মুহূর্তে ৩৪ ম্যাচে ৮২ পয়েন্ট ইন্টারের।

ক্রোটনের বিরুদ্ধে দুরন্ত জয়ের পরেও চ্যাম্পিয়ন হওয়ার জন্য ইন্টারের ম্যানেজার, ফুটবলার ও সমর্থকদের তাকিয়ে থাকতে হয়েছিল সাসউয়োলো বনাম আটলান্টা দ্বৈরথের দিকে। এই ম্যাচ ১-১ শেষ হতেই উৎসব শুরু হয়ে যায় ইন্টারে। কারণ, রবিবার আটলান্টা জিতলে রোমেলু লুকাকুদের অপেক্ষা আরও বাড়ত। আটলান্টা ড্র করতেই অপেক্ষার অবসান। ২০১০ সালের পরে ইটালি লিগ জিতল ইন্টার। আনন্দে মিলানের রাস্তায় নেমে উৎসব শুরু করে দেন ইন্টার সমর্থকেরা।

Advertisement

চেলসি ছেড়ে ২০১৯ সালে ইন্টারের দায়িত্ব দেন কন্তে। এই মুহূর্তে তিনি সেরি আ-তে সব চেয়ে দামি ম্যানেজার। বার্ষিক ১২ মিলিয়ন ইউরো (ভারতীয় মুদ্রায় প্রায় ১০৭ কোটি) বেতন কন্তের। যা প্রায় পাঁচ গুণ বেশি দ্বিতীয় সর্বোচ্চ বেতনপ্রাপ্ত ম্যানেজারের চেয়ে! ইন্টারের চিফ এগজিকিউটিভ অফিসার (সিইও)জুসেপ্পে মারোত্তা মনে করেন, যোগ্য ব্যক্তি হিসেবেই বিপুল অর্থ পাচ্ছেন কন্তে। ১৯তম সেরি আ জয়ের পরে তিনি বলেছেন, “ফুটবলার এবং ম্যানেজার হিসেবে চ্যাম্পিয়ন কন্তে। ফুটবলারদের মধ্যেও নিজের দর্শন ছড়িয়ে দিয়েছেন সফল ভাবে। আর্তুরো ভিদাল ছাড়া এই দলে আর কোনও ফুটবলারের এর আগে সেরি আ জয়ের অভিজ্ঞতা ছিল না।” এখানেই শেষ নয়। ইন্টারের সিইও আরও বলেছেন, “এক জন ফুটবলার কম সই করানোর চেয়ে ভাল ম্যানেজার নেওয়া বেশি জরুরি। যে সম্মান কন্তে অর্জন করেছেন, তা প্রমাণ করছে উনি এই বেতন পাওয়ার যোগ্য।”

এগারো বছর পরে ইন্টারে সেরি আ জয়ের পরেই কন্তের ভবিষ্যৎ নিয়ে জল্পনা তুঙ্গে। কারণ, এই মরসুমেই ইন্টারের সঙ্গে চুক্তি শেষ হয়ে যাচ্ছে তাঁর। কন্তে তাঁর ভবিষ্যৎ নিয়ে কোনও মন্তব্য করেননি। তিনি বলেছেন, “এই মুহূর্তে আমি শুধু বর্তমান নিয়েই ভাবছি। আমাদের এখনও চারটি ম্যাচ বাকি রয়েছে।” যোগ করেছেন, “এই মুহূর্তটা আমি উপভোগ করতে চাই। এখন অন্য বিষয় নিয়ে ভাবার কোনও ইচ্ছে নেই। অনেক ত্যাগের পরে আমরা এই সাফল্য পেয়েছি।” ফুটবলারদের উচ্ছ্বসিত প্রশংসা করে কন্তে বলেছেন, “এই দু’বছরে আমার সেরা প্রাপ্তি একঝাঁক এমন ফুটবলার পাওয়া, যাদের উপরে আমি চোখ বন্ধ করে ভরসা করতে পারি। সাফল্যের আসল কারিগর ওরাই।”

এগারো বছর পরে সেরি আ-তে ইন্টারের চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পরেই লুকাকে ফেরানোর জন্য মরিয়া হয়ে ঝাঁপাল চেলসি। ২০১১ সালে আন্ডারলেখট থেকে ইংল্যান্ডের ক্লাবে সই করেছিলেন বেলজিয়ান স্ট্রাইকার। কিন্তু এক বছরের মধ্যেই লুকাকু-কে লোনে ওয়েস্ট ব্রমউইচকে দিয়ে দেয় চেলসি। এর পরে তিনি খেলেন এভার্টন ও ম্যাঞ্চেস্টার ইউনাইটেডের হয়ে। ২০১৯ সালে সই করেন ইন্টারে।

এই মরসুমে দুরন্ত ফর্মে লুকাকু। ৪১ ম্যাচে ২৭ গোল করেছেন। ইন্টারের সেরি আ চ্যাম্পিয়ন হওয়ার নেপথ্যে অন্যতম কারিগর লুকাকু। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যমের দাবি, তাঁকে নেওয়ার জন্য ম্যাঞ্চেস্টার সিটিও আগ্রহী। লুকাকু যদিও তাঁর ভবিষ্যৎ নিয়ে কোনও মন্তব্য করেননি। সেরি আ জিতে উচ্ছ্বসিত ইন্টার তারকা বলেছেন, “গোটা বিশ্বের ইন্টারের সমর্থকদের জন্য আমি খুব খুশি। অসাধারণ একটা মরসুম কাটাচ্ছি। ইন্টারে খেলার সুযোগ পেয়ে আমি গর্বিত।”

বেঞ্জেমাকে ফ্রান্স দলে চান ওয়েঙ্গার: ছয় বছর আগে এক বিতর্কিত ভিডিয়ো ফাঁস হয়ে যাওয়ার পরেই তাঁর জন্য জাতীয় দলে ফেরার পথ বন্ধ হয়ে যায়। এখনও সেই দরজা খোলেনি। কিন্তু আর্সেন ওয়েঙ্গার মনে করেন, ভবিষ্যতের দিকে তাকিয়ে এ বারের ইউরো কাপে ফ্রান্স দলে ফেরানো দরকার দুর্দান্ত ফর্মে থাকা করিম বেঞ্জেমাকে। চলতি মরসুমে সমস্ত প্রতিযোগিতা মিলিয়ে এখনও পর্যন্ত রিয়াল মাদ্রিদের হয়ে ২৮ গোল করেছেন তিনি। সোমবার ফ্রান্সের এক সংবাদমাধ্যমে দেওয়া সাক্ষাৎকারে প্রাক্তন আর্সেনাল ম্যানেজার বলেছেন, “ওকে নিয়ে তদন্ত এখন কোন পর্যায়ে রয়েছে, সেটাকে বড় করে দেখা ভুল হবে। আমি মনে করি, এ বারের ইউরো কাপে বেঞ্জেমাকে নেওয়া হলে ফ্রান্স উপকৃত হবে। ওকে পেলে কিলিয়ান এমবাপে আরও ভয়ঙ্কর হয়ে উঠবে।”

Advertisement