Advertisement
৩০ জানুয়ারি ২০২৩
Sport News

মানবিক সুনীলেরা কাটলেন ম্যাচ টিকিট

২৯ ডিসেম্বর কেরলের  পেরিনদেলমাল্লায় ম্যাচ খেলতে খেলতেই হৃদ‌্‌রোগে আক্রান্ত হন ৩৯ বছর বয়সি ধনরাজন।

উদ্যোগ: ধনরাজনের পরিবারের পাশে সুনীল, বিজয়ন। ফাইল চিত্র

উদ্যোগ: ধনরাজনের পরিবারের পাশে সুনীল, বিজয়ন। ফাইল চিত্র

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ২৬ জানুয়ারি ২০২০ ০৫:৫৪
Share: Save:

প্রয়াত ফুটবলার রাধাকৃষ্ণন ধনরাজনের পরিবারের সাহায্যে এগিয়ে এলেন সুনীল ছেত্রীও। আজ, রবিবার কোঝিকোড়ে গোকুলম এফসি বনাম চার্চিল ব্রাদার্স ম্যাচের ২২০টি টিকিট নিজেই কাটলেন ভারতীয় ফুটবল দলের অধিনায়ক।

Advertisement

২৯ ডিসেম্বর কেরলের পেরিনদেলমাল্লায় ম্যাচ খেলতে খেলতেই হৃদ‌্‌রোগে আক্রান্ত হন ৩৯ বছর বয়সি ধনরাজন। হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পথেই মারা যান কলকাতার তিন প্রধানে খেলে যাওয়া ডিফেন্ডার। মর্মান্তিক এই ঘটনার পরেই ধনরাজনের পরিবারকে সাহায্য করতে এগিয়ে আসেন কিংবদন্তি ফুটবলার আই এম বিজয়ন। কেরলের ক্রীড়ামন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলে বাংলার সন্তোষ ট্রফি জয়ী দলের অন্যতম সদস্য প্রয়াত ডিফেন্ডারের স্ত্রীর চাকরির ব্যবস্থা করেন। এখানেই শেষ নয়। ধনরাজনের জন্মস্থান পালাক্কড়ে একটি প্রদর্শনী ম্যাচেরও আয়োজন করেছিলেন তিনি। তাঁর আমন্ত্রণেই খেলতে গিয়েছিলেন ভাইচুং ভুটিয়া। রবিবারের ম্যাচেরও ২৫০টি টিকিট কিনেছেন বিজয়ন।

বিজয়ন-সুনীলকে দেখে এগিয়ে এসেছেন আইএসএলের চেন্নাইয়িন এফসি কর্তারাও। জানা গিয়েছে, ১০০টি টিকিট কিনেছেন তাঁরা। কোঝিকোড় থেকে ফোনে গোকুলমের এক কর্তা আনন্দবাজারকে বললেন, ‘‘ধনরাজনের পরিবারের পাশে সুনীল-বিজয়ন ও চেন্নাইয়িনের কর্তারা দাঁড়ানোয় আমরা কৃতজ্ঞ।’’ তিনি যোগ করেন, ‘‘কোঝিকোড়ের ইএমএস কর্পোরেশন স্টেডিয়ামে পঞ্চাশ হাজার দর্শক খেলা দেখতে পারেন। আশা করছি, রবিবার অন্তত হাজার তিরিশেক দর্শক মাঠে আসবেন। খেলা শুরু হওয়ার আগে মাঠেই আমরা ধনরাজনের স্ত্রীর হাতে অর্থ তুলে দেব।’’ রবিবার আই লিগে: ইন্ডিয়ান অ্যারোজ বনাম রিয়ার কাশ্মীর (দুপুর ২.০০)। গোকুলম এফসি বনাম চার্চিল ব্রাদার্স (সন্ধে ৭.০০)। দু’টো ম্যাচেরই সম্প্রচার ডি স্পোর্টস চ্যানেলে।

Advertisement
(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.