Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৮ সেপ্টেম্বর ২০২১ ই-পেপার

অটোকেও দৌড়ে হারালেন বোল্ট

নিজস্ব প্রতিবেদন
০৫ এপ্রিল ২০১৯ ০৪:৪০
অপ্রতিরোধ্য: যন্ত্রকেও হার মানালেন ইউসেইন বোল্ট। লিমায় অটোর সঙ্গে অভিনব প্রতিযোগিতায় নামার আগে জামাইকার কিংবদন্তি স্প্রিন্টার।  এএফপি।

অপ্রতিরোধ্য: যন্ত্রকেও হার মানালেন ইউসেইন বোল্ট। লিমায় অটোর সঙ্গে অভিনব প্রতিযোগিতায় নামার আগে জামাইকার কিংবদন্তি স্প্রিন্টার। এএফপি।

শেষবার আন্তর্জাতিক মঞ্চে তাঁকে দেখা গিয়েছিল ২০১৭ সালের লন্ডনে। বিশ্ব অ্যাথলেটিক্স প্রতিযোগিতার ১০০ মিটারে ৯.৯৮ সেকেন্ড সময় নিয়ে ব্রোঞ্জ জিতে বিদায় নিয়েছিলেন ইউসেইন বোল্ট।

কিন্তু ট্র্যাক অ্যান্ড ফিল্ড গ্রহে বিশ্বের দ্রুততম মানব তিনি যে এখনও আগের মতোই অবিসংবাদী, তা ফের প্রমাণ করে দিয়েছেন তিনি।

মাত্র ৪৮ ঘণ্টা দক্ষিণ আমেরিকার ওই ছোট্ট দেশে অতিথি হিসেবে ছিলেন তিনি। পেরুর রাজধানী লিমায় অ্যাথলেটিক স্টেডিয়ামে গিয়েছিলেন মাত্র ৩০ মিনিটের জন্য। যে স্টেডিয়ামেই হবে প্যান আমেরিকান এবং পারাপান আমেরিকান গেমস। স্বকীয় মেজাজে সকলের মন জিতে নিলেন বিশ্বের দ্রততম মানব। সেখানেই একটি অনুষ্ঠানে অটোর (পেরুর লোকেরা যাকে মোটো ট্যাক্সি বলেন) বিরুদ্ধে দৌড়লেন বোল্ট। যে যানকে ভারতে সাধারণত বলা হয় অটো। ৫০ মিটারের সেই দৌড়ে যন্ত্রকেও হারিয়ে জিতলেন অনায়াসে। পরে বোল্ট বলেছেন, ‘‘দৌড়ের সঙ্গে আমার সম্পর্কটা আত্মিক। তাকে ছেড়ে আমি থাকতে পারব না।’’ রসিকতার সুরেই বলেছেন, ‘‘ট্র্যাক থেকে সরে গিয়েছি অনেক আগেই। আমাকে তাই অনেকে বয়স্ক ভাবতে শুরু করেছেন। তাই এই গাড়িকে বেছে নিলাম। মনে হচ্ছে, গতিতে মন্থরতা আসেনি।’’

Advertisement

দিল্লি দখলের লড়াই, লোকসভা নির্বাচন ২০১৯

লিমার অ্যাথলেটিক স্টেডিয়ামের ট্র্যাক দেখে খুশি বোল্ট। বলেছেন, ‘‘এ ধরনের ট্র্যাক দেখে আমি যেমন আনন্দিত, তেমনই দুঃখিত। আনন্দ লাগছে এটা দেখে যে, এমন ট্র্যাকে দুর্দান্ত অ্যাথলিটদের দেখার সুযোগ পাবেন দর্শকেরা। দুঃখ লাগছে এটা দেখে যে, আমার দেশ জামাইকাতে এমন একটা ট্র্যাক নেই যেখানে নতুন প্রজন্মের অ্যাথলিটরা অনুশীলন করতে পারে। তাদেরকে ভাল ট্র্যাকে অনুশীলন করার জন্য বিভিন্ন জায়গায় ঘুরে বেড়াতে হয়। নিজের অভিজ্ঞতা থেকে বলতে পারি, সুন্দর একটা ট্র্যাক তৈরি না হলে সেরা তারকাও উঠে আসে না। আমি আশা করব, পেরু থেকে অনেক ভাল মানের অ্যাথলিট উঠে আসবে।’’ তরুণ প্রজন্মের অ্যাথলিটদের প্রতি বোল্টের পরামর্শ, ‘‘কোনও কিছুর প্রত্যাশা না করে অনুশীলনে নিজেকে ডুবিয়ে দাও। তা হলেই সাফল্য তোমার কাছে এসে দাঁড়াবে। আমি এই মন্ত্রেই নিজেকে তৈরি করেছি।’’

আরও পড়ুন

More from My Kolkata
Advertisement