• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

সূচনা ‘পথশ্রী’ অভিযানের, সারাই হবে ১২ হাজার কিলোমিটার রাস্তা

Mamata Banerjee
শুধু নতুন সড়ক তৈরি করা নয়, তৈরি হয়ে থাকা সড়কগুলি মসৃণ রাখার বিষয়েও যে সরকার সমান যত্নশীল, পথশ্রী অভিযানের সূচনা করে মুখ্যমন্ত্রী সেই বার্তাই দিতে চেয়েছেন।

রাস্তাঘাটের হাল ফেরাতে নতুন প্রকল্প ঘোষণা করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বৃহস্পতিবার উত্তরবঙ্গ থেকেই ‘পথশ্রী অভিযান’ নামে এই প্রকল্পের সূচনার কথা তিনি ঘোষণা করেছেন। গোটা রাজ্যে মোট ১২ হাজার কিলোমিটার রাস্তা এই প্রকল্পের আওতায় মেরামত করা হবে বলে মুখ্যমন্ত্রী টুইটারেও জানিয়েছেন। রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে বেহাল হয়ে থাকা রাস্তাগুলিকে একটি অভিন্ন প্রকল্পের ছাতার তলায় এনে সারিয়ে ফেলার উদ্যোগ এই প্রথম।

পথশ্রী প্রকল্পের সূচনার কথা মুখ্যমন্ত্রী যেমন টুইটারে জানিয়েছেন, তেমনই নবান্নের তরফ থেকে প্রেস বিজ্ঞপ্তি জারি করে এই প্রকল্পের বিষয়ে বিশদে জানানো হয়েছে। পথশ্রীর আওতায় মেরামতির জন্য ৭ হাজার রাস্তাকে চিহ্নিত করা হয়েছে বলে মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছেন। মেরামতির মোট দৈর্ঘ হবে ১২ হাজার কিলোমিটার। রাজ্যের নানা প্রান্ত থেকে রাস্তা সংক্রান্ত যে সব অভিযোগ মুখ্যমন্ত্রীর কাছে পৌঁছেছিল, তার ভিত্তিতেই মেরামতির তালিকা তৈরি করা হয়েছে।

‘দিদিকে বলো’ প্রকল্পের মাধ্যমে নাগরিকদের অভাব-অভিযোগ জেনে নেওয়ার চেষ্টা গত বছর থেকেই শুরু হয়েছিল। সিএমও-র (মুখ্যমন্ত্রীর দফতর) তরফেও একটি ‘গ্রিভান্স রিড্রেসাল সেল’ (অভিযোগ প্রতিবিধান বিভাগ) খুলে রাজ্যবাসীর অভাব-অভিযোগ জেনে নেওয়ার ব্যবস্থা হয়েছিল। দিদিকে বলো এবং সিএমও গ্রিভান্স সেলে রাস্তা সংক্রান্ত যে সব অভিযোগ জমা পড়েছিল, তার ভিত্তিতেই ১২ হাজার কিলোমিটার রাস্তাকে মেরামতির জন্য চিহ্নিত করা হয়েছে।

আরও পড়ুন: গুজরাতের থেকে ভাল বাংলার অবস্থা: মুখ্যমন্ত্রী

সড়ক যোগাযোগ মসৃণ করে তোলা এবং নতুন নতুন রাস্তা তৈরি করা বরাবরই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সরকারের অগ্রাধিকারের তালিকায় থেকেছে। মমতার ৯ বছরের শাসনকালে অনেক নতুন রাস্তা রাজ্যে তৈরিও হয়েছে। নবান্নের তরফে বৃহস্পতিবার যে প্রেস বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছে, তার হিসেব অনুযায়ী পূর্ববর্তী সরকার ৯২ হাজার ২৩ কিলোমিটার রাস্তা তৈরি করেছিল। আর পশ্চিমবঙ্গে এখন রাস্তার মোট দৈর্ঘ ৩ লক্ষ ১৬ হাজার ৭৩০ কিলোমিটার। বর্তমান সরকারের অধীনে সড়ক পরিকাঠামো ২৪৪ শতাংশ বৃদ্ধি পেয়েছে বলেও ওই বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে। তবে শুধু নতুন সড়ক তৈরি করা নয়, তৈরি হয়ে থাকা সড়কগুলি মসৃণ রাখার বিষয়েও যে সরকার সমান যত্নশীল, পথশ্রী অভিযানের সূচনা করে মুখ্যমন্ত্রী সেই বার্তাই দিতে চেয়েছেন।

আরও পড়ুন: ডিএ মামলার সংশোধিত আবেদন চাইল ট্রাইবুনাল

‘পথশ্রী অভিযান’ প্রকল্পের সূচনায় মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। 

মমতা মনে করেন, উন্নয়নের ভিত হল ভাল সড়ক পরিকাঠামো। তাই ২০২০-২১ সালের বাজেটেও সড়ক খাতে প্রায় ৫ হাজার ৭৪৭ কোটি টাকা বরাদ্দ করা হয়েছে। তবে পথশ্রী অভিযানে সরকারি উদ্যোগের পাশাপাশি সাধারণ নাগরিকদের অংশগ্রহণেও জোর দেওয়া হয়েছে। সাধারণ নাগরিকরা কী ভাবে এই প্রকল্পে শামিল হবেন, তা দেখার দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে সংশ্লিষ্ট এলাকার বিধায়কদের উপরে। রাস্তা সারাই হল কি না, তা সরাসরি মুখ্যমন্ত্রীকেই জানানো যাবে। মেরামত হওয়া বা না হওয়া, দু’ক্ষেত্রেই রাস্তার ছবি মুখ্যমন্ত্রীর কাছে পাঠানোর ব্যবস্থা রাখা হচ্ছে।

ছবি: মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ফেসবুক অ্যাকাউন্ট থেকে সংগৃহীত।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন