×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

১৬ মে ২০২১ ই-পেপার

‘জয় সিয়ারাম’ প্রশ্নে নাম না করে ‘ভাইপোকে’ আক্রমণ করলেন বাবুল

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ১৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ১৪:৪৭
'বাপের ব্যাটা' হওয়ার প্রমাণে নেই বাবুল ।

'বাপের ব্যাটা' হওয়ার প্রমাণে নেই বাবুল ।

অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে তাঁর আইনি লড়াই এখনও চলছে। তার মধ্যেই নাম না করে অভিষেককে বিঁধলেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়। নিজের ফেসবুক পেজে লিখলেন, ভাইপোর ‘বাপের ব্যাটা’ হওয়ার প্রমাণ দেওয়ার দরকার নেই।

ঘটনার সূত্রপাত অভিষেকের ‘জয় সিয়ারাম’ বক্তব্য নিয়ে। গত সপ্তাহে বাংলায় ভোটপ্রচারে এসে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ বলেছিলেন, ‘‘ভোট শেষ হতে হতে মমতাদিদিও ‘জয় শ্রীরাম’ বলতে শুরু করবেন।’’ অমিতের ওই বক্তব্যের পরে শনিবার কুলপির জনসভা থেকে বিজেপি নেতাদের উদ্দেশে অভিষেক বলেন, ‘‘যদি বাপের ব্যাটা হই, ভোট শেষ হওয়ার আগে ওদের জয় সিয়ারাম বলিয়ে ছাড়ব।’’ অভিষেকের সেই মন্তব্যের জবাবেই বাবুল নিজের ফেসবুক পেজে লিখেছেন, ‘এই দেখো! এবার কী হবে ভাইপো? বিজেপি তো সিয়াপতি রামচন্দ্র কি জয়, জয় সিয়ারাম সবই বলে। ভালোবেসে বলে! এর জন্য ভাইপোর বাপের ব্যাটা হওয়ার প্রমাণ দেওয়ার দরকার কী? আমরা তো প্রমাণ চাইনি! সত্যিই ভাইপো দা জবাব নেহি’!হিন্দিতে লেখা শেষ বাক্যটির অর্থ, ভাইপোর জবাব নেই।

Advertisement

অভিষেকের অভিযোগ ছিল, বিজেপি মহিলাদের সম্মান করতে জানে না। এককথায় তারা নারীবিদ্বেষী। সীতা মহিলা বলে কখনওই রামের আগে সীতার নাম ‘সিয়া’ উচ্চারণ করে না তারা। যে কারণে সারাক্ষণ ‘জয় শ্রীরাম’ বললেও কখনও ‘জয় সিয়ারাম’ বেরোয় না তাদের মুখ থেকে। বিজেপি অবশ্য তা মানতে নারাজ। বিজেপি-র এক নেতার কথায়, ‘‘দলীয় নেতারা একাধিকবার ‘জয় শ্রীরাম’-এর পাশাপাশি ‘জয় সিয়ারাম’ও বলেছেন। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী অযোধ্যায় রাম মন্দিরের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপনের অনুষ্ঠানে গিয়ে ‘জয় সিয়ারাম’ বলেছিলেন। গোটা দেশের মানুষ তা দেখেছেন। এমনকি, অনেক জনসভাতেও বিজেপি নেতাদের ‘জয় সিয়ারাম’ বলতে শোনা গিয়েছে। অতএব, বিজেপি শুধু ‘জয় শ্রীরাম’ বলে এটা ঠিক নয়। ভোটের জন্য তৃণমূল এর নিয়ে ভুল ব্যাখ্যা করছে।’’

তবে এখন দেখার, বাবুল তাঁর ফেসবুক পেজে যা লিখেছেন, তার প্রেক্ষিতে অভিষেক পাল্টা কোনও কটাক্ষ করেন কি না। করলও কী করেন।

Advertisement