Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

০৯ ডিসেম্বর ২০২১ ই-পেপার

শুভেন্দুর জন্য বরাদ্দ হল কেন্দ্রীয় নিরাপত্তা এবং বুলেটপ্রুফ গাড়ি

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ১৪ ডিসেম্বর ২০২০ ২০:৩১
—ফাইল চিত্র।

—ফাইল চিত্র।

তৃণমূল বিধায়ক শুভেন্দু অধিকারীর জন্য বুলেটপ্রুফ গাড়ি-সহ কেন্দ্রীয় নিরাপত্তা বরাদ্দ করা হয়েছে। সোমবার কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক সূত্রে এই খবর জানা গিয়েছে। আনুষ্ঠানিক ভাবে এই খবরের সত্যতা কোনও তরফেই স্বীকার করা হয়নি। উল্টে শুভেন্দুর ঘনিষ্ঠ সূত্রে জানানো হয়েছে, এমন কিছু জানা নেই। তবে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক সূত্রের খবর, নিরাপত্তা বরাদ্দ করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। কবে থেকে তা দেওয়া হবে, সেটা অবশ্য এখনও ঠিক হয়নি। সেটি শুভেন্দুর উপরেই নির্ভর করছে বলে সংশ্লিষ্ট মন্ত্রক সূত্রের খবর। তবে ওই সূত্র জানাচ্ছে, রাজ্যের নিরাপত্তা আনুষ্ঠানিক ভাবে ছাড়ার সঙ্গে সঙ্গেই শুভেন্দুকে কেন্দ্রীয় নিরাপত্তা দেওয়া হবে। একটি সূত্রের মতে, শুভেন্দু মঙ্গলবারই রাজ্যের নিরাপত্তা ছেড়ে দিতে পারেন। সেক্ষেত্রে ওইদিন থেকেই তাঁকে কেন্দ্রীয় নিরাপত্তা এবং বুলেটপ্রুফ গাড়ি দেওয়া হবে। তাঁকে ‘ওয়াই প্লাস’ ক্যাটিগরির নিরাপত্তা দেওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে বলেই ওই সূত্র জানাচ্ছে। আবার অন্য একটি সূত্রের মতে, শুভেন্দুকে ‘জেড প্লাস’ নিরাপত্তাই দেওয়া হবে।

প্রসঙ্গত, রাজ্যের তিনটি দফতরের মন্ত্রী শুভেন্দু এর আগে ‘জেড প্লাস’ ক্যাটিগরির নিরাপত্তা পেতেন রাজ্যের তরফে। কিন্তু মন্ত্রিত্বে ইস্তফা দেওয়ার অব্যবহিত আগে তিনি রাজ্যের সেই নিরাপত্তা ছেড়ে দিয়েছিলেন। যদিও রাজ্য পুলিশ ‘গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি’ হিসেবে তাঁকে নিরাপত্তা দিত। এখনও দিচ্ছে। কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক সূত্রের খবর, এ বার কেন্দ্রের তরফে তাঁকে বুলেটপ্রুফ গাড়ি-সহ নিরাপত্তা দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। যদিও এখনও ফলিত স্তরে তাঁর সঙ্গে সেই নিরাপত্তা বা গাড়ি দেখা যাচ্ছে না। শুভেন্দুর-ঘনিষ্ঠ এক নেতা সোমবার এই সংক্রান্ত প্রশ্নের জবাবে জানিয়েছেন, ‘‘দাদা অন্য কোথাও যোগ দেওয়ার আগে নীতিগত ভাবে কারও দেওয়া কোনও নিরাপত্তা নেবেন না। এর বেশি কিছু আমি বলতে পারছি না।’’

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক সূত্রের খবর, কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা দফতরের স্পেশাল ইনটেলিজেন্স ব্যুরোর (এসআইবি। তারাই নিরাপত্তার বিষয়টি দেখভাল করে) কাছে ওই মর্মে দিল্লি থেকে নির্দেশ পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে। সোমবারেই সেই নির্দেশ এসে পৌঁছেছে। রাজনৈতিক মহলের একাংশ এর মধ্যে অবশ্য ‘রাজনীতির বার্তা’ই দেখছে। তাদের মতে, এই সিদ্ধান্তের মারফত এটা স্পষ্ট যে, শুভেন্দু কোন দলে যোগ দিতে চলেছেন। প্রসঙ্গত, তৃণমূলের নেতা মুকুল রায় যখন দলত্যাগ করেছিলেন, তখন তিনিও রাজ্যের নিরাপত্তা ছেড়ে দিয়েছিলেন। তার পর তাঁকেও কেন্দ্রীয় নিরাপত্তা দেওয়া হয়েছিল। তার পর কালক্রমে তিনি বিজেপি-তে যোগ দেন। তবে মুকুলের জন্য বুলেটপ্রুফ গাড়ি বরাদ্দ হয়নি। সেক্ষেত্রে শুভেন্দু এক কদম এগিয়ে। এখন দেখার, শুভেন্দু ওই নিরাপত্তা গ্রহণ করেন কি না। করলেও কবে করেন।

Advertisement

আরও পড়ুন

Advertisement