×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

১৫ জুন ২০২১ ই-পেপার

মানুষ পারাপারে নিষেধাজ্ঞা থাকলেও চালু ভারত-বাংলাদেশ বাণিজ্য, শঙ্কা সংক্রমণেরও

নিজস্ব সংবাদদাতা
পেট্রাপোল ২৭ এপ্রিল ২০২১ ১৭:৪৫
পেট্রাপোল সীমান্তে জারি ভারত-বাংলাদেশ বাণিজ্য।

পেট্রাপোল সীমান্তে জারি ভারত-বাংলাদেশ বাণিজ্য।
—নিজস্ব চিত্র

মানুষ পারাপারে সীমান্তে নিষেধাজ্ঞা জারি হলেও, ভারত এবং বাংলাদেশের মধ্যে বাণিজ্য ব্যবস্থা চালু রয়েছে পেট্রাপোলে। মঙ্গলবারও দেখা গেল সেই ছবি। তবে তাতেও সংক্রমণের আশঙ্কা থাকছেই। যদিও, কোভিড বিধি মেনেই সীমান্তের দু’পারে মালপত্র খালাস করা হচ্ছে বলে দাবি করেছে নির্দিষ্ট সংস্থা।

রবিবার বিকেলে আচমকাই সীমান্ত বন্ধ করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয় বাংলাদেশ সরকার। তার জেরে বৈধ ভিসা-পাসপোর্ট থাকলেও হয়রানির শিকার হন অনেকেই। ভারতে করোনা সংক্রমণ বাড়তে থাকায়, আচমকাই পেট্রাপোল সীমান্ত বন্ধ করে দেয় বাংলাদেশের বিদেশ মন্ত্রক। তবে দু’তরফেই সীমান্ত বাণিজ্য চালু রয়েছে। তার ফলে সংক্রমণের আশঙ্কাও রয়েছে। যদিও, তা খারিজ করে আশ্বাস দিচ্ছেন কর্তৃপক্ষ। পেট্রাপোলের সেন্ট্রাল ওয়্যারহাউসিং কর্পোরেশনের ম্যানেজার প্রমোদকুমার যাদব বলেন, ‘‘কোভিড বিধি মেনেই আমদানি এবং রফতানি চলছে। খালাসিও কোভিড বিধি মেনে মাস্ক পরে এবং স্যানিটাইজার ব্যবহার করে মালপত্র খালাস করছেন।’’

পেট্রাপোল ক্লিয়ারিং এজেন্টস স্টাফ ওয়েলফেয়ার অ্যাসোসিয়েশনের সেক্রেটারি কার্তিক চক্রবর্তী বলেন, ‘‘সীমান্তে আমদানি-রফতানি স্বাভাবিক আছে। কোভিড বিধি মেনেই তা চলছে। তবে যাত্রী পারাপার বন্ধ রয়েছে।’’

Advertisement

প্রসঙ্গত রবিবার বিকেলে সাময়িক ভাবে সীমান্ত বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত ঘোষণা করেন বাংলাদেশের বিদেশমন্ত্রী একে আবদুল মোমেন। তবে মানুষের প্রবেশ বন্ধ থাকলেও, আগের মতো ব্যবসা-বাণিজ্য বজায় থাকবে বলে জানিয়ে দেন তিনি।

Advertisement