Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

০২ অক্টোবর ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

প্রয়াত পঙ্কজ বন্দ্যোপাধ্যায়

বর্ষীয়ান রাজনীতিক পঙ্কজ বন্দ্যোপাধ্যায় জাতীয়তাবাদী রাজনীতিতে পশ্চিমবঙ্গে একটি অত্যন্ত পরিচিত নাম।

নিজস্ব সংবাদদাতা
২৬ অক্টোবর ২০১৮ ১৪:১৬
Save
Something isn't right! Please refresh.
Popup Close

জীবনে ফিরতে পারলেন না রাজ্যের প্রাক্তন বিরোধী দলনেতা পঙ্কজ বন্দ্যোপাধ্যায়। শুক্রবার সকালে দক্ষিণ কলকাতার একটি বেসরকারি হাসপাতাল তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করেছিল। শোকবার্তা প্রকাশ করতে শুরু করে রাজনৈতিক শিবির। কিন্তু বাড়িতে নিয়ে আসার পর পঙ্কজবাবুর পারিবারিক চিকিৎসক তাঁকে পরীক্ষা করে জানান, দেহে স্পন্দন চলছে, তিনি কোমায় রয়েছেন।তড়িঘড়ি ফের আর একটি বেসরকারি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয় পঙ্কজ বন্দ্যোপাধ্যায়কে। কিন্তু, ততক্ষণে আর কোনও স্পন্দন ছিল না শরীরে। ইমার্জেন্সি বিভাগেই চিকিৎসকরা জানিয়ে দেন, পঙ্কজ বন্দ্যোপাধ্যায় প্রয়াত।

বর্ষীয়ান রাজনীতিক পঙ্কজ বন্দ্যোপাধ্যায় জাতীয়তাবাদী রাজনীতিতে পশ্চিমবঙ্গে একটি অত্যন্ত পরিচিত নাম। রাজনৈতিক জীবনের অধিকাংশটাই কাটিয়েছেন কংগ্রেসে। বিধায়ক হিসাবে পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভায় ছিলেন অত্যন্ত উজ্জ্বল মুখ। পরে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ডাকে সাড়া দিয়ে তৃণমূলে যোগদান করেছিলেন পঙ্কজবাবু।

তৃণমূল তৈরি হওয়ার পরে প্রথম কয়েক বছর মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সবচেয়ে ঘনিষ্ঠ বৃত্তে যে তিন-চার জন ছিলেন, তাঁদের অন্যতম ছিলেন এই প্রবীণ রাজনীতিক। ২০০১ সালের বিধানসভা নির্বাচনে তৃণমূলের টিকিটে জয়ী হন টালিগঞ্জ আসন থেকে। তৃণমূলের টিকিটে ওই এক বারই নির্বাচন লড়েছিলেন পঙ্কজ। সে বার রাজ্যের প্রধান বিরোধী দলনেতাও হয়েছিলেন তিনি।

Advertisement

জীবনের শেষ দিকে অবশ্য তৃণমূল নেতৃত্বের সঙ্গে সম্পর্ক আর খুব একটা ভাল ছিল না পঙ্কজবাবুর। ২০০৬ সালের বিধানসভা নির্বাচনে তিনি আর দাঁড়াননি। অরূপ বিশ্বাস সে বার তৃণমূলের টিকিটে জয়ী হয়েছিলেন টালিগঞ্জ থেকে। পঙ্কজ সেই থেকে আর কখনও ভোটে দাঁড়াননি। টালিগঞ্জ এলাকায় পঙ্কজ অনুগামীদের সঙ্গে অরূপ অনুগামীদের বিরোধও বেশ সুবিদিত ছিল।



সেই সময়: নিজের দফতরে পঙ্কজ বন্দ্যোপাধ্যায়।

সক্রিয় রাজনীতি থেকে অবসর নেওয়ার পরে পঙ্কজ বন্দ্যোপাধ্যায় কিছুটা অসুস্থ হয়ে পড়েছিলেন। দীর্ঘ দিন ধরেই নানা রকম উপসর্গের চিকিৎসা চলছিল। তৃণমূল সূত্রে জানা গিয়েছে, দক্ষিণ কলকাতার বেসরকারি হাসপাতালটিতে সম্প্রতি গুরুতর অসুস্থতা নিয়ে ভর্তি হয়েছিলেন পঙ্কজবাবু। তাঁর অবস্থার ক্রমশ অবনতি হতে থাকে। বিভিন্ন অঙ্গ-প্রত্যঙ্গ বিকল হয়ে পড়ায় শুক্রবার সকালে তাঁর মৃত্যু হয় বলে ওই হাসপাতালের তরফে জানানো হয়েছিল।

আরও পড়ুন: সিবিআই কাণ্ডের প্রতিবাদে দিল্লিতে রাহুলের নেতৃত্বে মিছিল, বিক্ষোভ দেশের অন্য শহরেও

ওই খবর প্রকাশ্যে আসার পর থেকে বাংলার রাজনৈতিক শিবিরে শোকের ছায়া নামে। অরূপ বিশ্বাস, শোভনদেব চট্টোপাধ্যায়, পার্থ চট্টোপাধ্যায়, সৌগত রায়-সহ একের পর এক তৃণমূল নেতা পঙ্কজবাবুর বাড়িতে পৌঁছন। টুইটারে শোক প্রকাশ করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী তথা তৃণমূল চেয়ারপার্সন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।শোকবার্তা প্রকাশ করেছিলেন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি সোমেন মিত্র, কংগ্রেস সাংসদ অধীররঞ্জন চৌধুরীও। কিন্তু, পারিবারিক চিকিৎসক পঙ্কজবাবুকে পরীক্ষা করার পরেই ছবিটা বদলে যায়। মুখ্যমন্ত্রী তাঁর টুইট ডিলিট করে দেন। পরে এ দিন সন্ধ্যা বেলা মুখ্যমন্ত্রী ফের টুইট করে তাঁর শোকবার্তা জানিয়েছেন।

ছবি: আনন্দবাজার আর্কাইভ থেকে।

(মালদহ, দুই দিনাজপুর, কোচবিহার, আলিপুরদুয়ার, দার্জিলিং, জলপাইগুড়ি, কালিম্পং সহ উত্তরবঙ্গের খবর, পশ্চিমবঙ্গের বিভিন্ন জেলা খবর পড়ুন আমাদের রাজ্য বিভাগে।)

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)


Tags:
Pankaj Bandyopadhyay TMC Trinamool Congressপঙ্কজ বন্দ্যোপাধ্যায়
Something isn't right! Please refresh.

Advertisement