Advertisement
০৪ মার্চ ২০২৪
Chopra landslide

খেলতে খেলতে আচমকাই ধস! মাটির নীচে চাপা পড়ে চার শিশুর মৃত্যু চোপড়ার ভারত-বাংলাদেশ সীমান্তে

স্থানীয় সূত্রের দাবি, এলাকায় একটি ড্রেন কাটছিল বিএসএফ। সেখানেই খেলা করছিল শিশুরা। আচমকাই ধস নেমে এই দুর্ঘটনা ঘটেছে। মাটির নীচে চাপা পড়ে চার শিশুর মৃত্যু হয়েছে।

—প্রতীকী ছবি।

আনন্দবাজার অনলাইন সংবাদদাতা
চোপড়া (উত্তর দিনাজপুর) শেষ আপডেট: ১২ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ ১৫:৩৬
Share: Save:

মাটি চাপা পড়ে চার শিশুর মৃত্যু উত্তর দিনাজপুরের চোপড়ায়। সোমবার ভারত-বাংলাদেশ সীমান্তে দাসপাড়া দাসপাড়া গ্রাম পঞ্চায়েতের চেতনাগাছ এলাকায় ঘটনাটি ঘটেছে। টহলরত বিএসএফ জওয়ানেরা ওই চার শিশুকে তাঁদের গাড়িতে করে চোপড়ার দলুয়া স্বাস্থ্যকেন্দ্রে নিয়ে যান। সেখানেই চার শিশুকে মৃত ঘোষণা করেন চিকিৎসকেরা।

স্থানীয় সূত্রের দাবি, এলাকায় একটি নর্দমা কাটছিল বিএসএফ। সেখানেই খেলা করছিল শিশুরা। আচমকাই ধস নেমে এই দুর্ঘটনা ঘটেছে। মাটির নীচে চাপা পড়ে চার শিশুর মৃত্যু হয়েছে। বিএসএফ জওয়ানেরা তাঁদের উদ্ধার করে চোপড়ার স্বাস্থ্যকেন্দ্রে নিয়ে যান। কিন্তু শেষরক্ষা হয়নি। ঘটনার তদন্তে নেমেছে চোপড়া থানার পুলিশ।

চেতনাগছ গ্রামের বাসিন্দা তসলিম উদ্দিন দাবি করেন, বিএসএফের অফিসের গেটের পাশেই ড্রেন কাটার কাজ চলছিল। প্রায় দশ ফুট গর্ত করে নর্দমা কাটা হয়। কিন্তু নর্দমার জন্য কাটা মাটি আশপাশে কোথাও দেখা যাচ্ছে না। নর্দমা কে কাটছিল? কে আদেশ দিয়েছিল, তা খতিয়ে দেখা হোক। স্থানীয় পুলিশ প্রশাসন এর তদন্ত করে দেখুক। প্রায় ১০ ফুট গভীর করে কাটা এই নর্দমার পাশে খেলতে গিয়ে বাচ্চাগুলি এর নীচে পড়ে যায় এবং তখনই ধস নেমে বাচ্চাগুলি চাপা পড়ে।

এ বিষয়ে বিএসএফের এক আধিকারিকের বক্তব্য, ‘‘বিএসএফ এখানে শুধুমাত্র উদ্ধারকারীর ভূমিকা পালন করেছে। জেসিবি লাগিয়ে চাপা পড়ে যাওয়া শিশুদের উদ্ধার করে দ্রুত হাসপাতালে নিয়ে আসার ব্যবস্থা করেছে। মাটি কাটা বা নর্দমা কাটা নিয়ে আমাদের কিছু জানা নেই। এ বিষয়ে কিছু বলার থাকলে বিএসএফের উচ্চ আধিকারিকেরা মন্তব্য করবেন।’’

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement

Share this article

CLOSE