Advertisement
২১ জুলাই ২০২৪
Shalimar chaos

রণক্ষেত্র হাওড়ার শালিমার, দু’পক্ষের সংঘর্ষ, ইটবৃষ্টি, নিষ্ক্রিয়তার অভিযোগে পুলিশকে ঘিরে বিক্ষোভ

হাওড়ার শালিমারে তৃণমূলের কতিপয় নেতা সিন্ডিকেট চালাচ্ছেন বলে অভিযোগ স্থানীয়দের একাংশের। এ জন্য স্থানীয় ছেলেরা কাজ পায় না। সেই বিবাদই চরমে পৌঁছয় রবিবার সকালে।

শালিমারে সিন্ডিকেট বিবাদ চরমে।

শালিমারে সিন্ডিকেট বিবাদ চরমে। — নিজস্ব চিত্র।

আনন্দবাজার অনলাইন সংবাদদাতা
হাওড়া শেষ আপডেট: ১৬ জুন ২০২৪ ১৬:৫৩
Share: Save:

পার্কিং এবং‌ প্রোমোটিং নিয়ে বিবাদে ধুন্ধুমার হাওড়ার শালিমারে। রবিবার সকাল থেকেই দু’পক্ষের মধ্যে দফায় দফায় সংঘর্ষ বাধে। ঘরে ঢুকে মহিলাদের মারধর করার অভিযোগ। পুলিশের সামনেই গোলমাল চলে বলে অভিযোগ স্থানীয়দের। গ্রেফতার চার। ইটের ঘায়ে বেশ কয়েক জন আহত হয়েছেন বলে জানা গিয়েছে।

স্থানীয়দের অভিযোগ, শালিমার স্টেশন সংলগ্ন এলাকায় পার্কিং ও প্রোমোটিংয়ে মালপত্র সরবরাহ করবে নিজেদের ছেলে। এ ছাড়া কাউকে কাজ করতে দেন না এলাকার কয়েক জন তৃণমূল কর্মী। শনিবার একটি টোটো পার্কিং করা নিয়ে গন্ডগোল শুরু হয়। রবিবার সেই ঘটনাকে কেন্দ্র করে ব্যাপক মারামারি ঘটনা ঘটে। তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীরা হামলা চালায় বলে অভিযোগ স্থানীয়দের একাংশের। পুলিশের সামনেই ইটবৃষ্টি চলতে থাকে। অভিযোগ ঘরে ঢুকে মারধর করা হয় মহিলাদের। রণক্ষেত্রের চেহারা নেয় এলাকা। এর পর পরিস্থিতি সামাল দিতে অকুস্থলে পৌঁছন পুলিশের উচ্চপদস্থ আধিকারিকেরা। স্থানীয় বাসিন্দারা তাঁদের ঘিরে ধরে বিক্ষোভ দেখান। ঘটনাস্থলে র‌্যাফ এবং বিশাল পুলিশবাহিনী মোতায়েন করা হয়েছে।

স্থানীয় বাসিন্দাদের দাবি মেনে এই ঘটনায় জড়িত সন্দেহে নওশাদ, ভিকি, গুল্লা ও অপান্না নামে চার দুষ্কৃতীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। বিজেপি নেতা ললিত মেহেতা বলেন, ‘‘শালিমারে সিন্ডিকেট রাজ চলছে দীর্ঘ দিন ধরে। তৃণমূলের নেতারা এর সঙ্গে যুক্ত রয়েছেন। পুলিশেরও মদত রয়েছে। আজ পুলিশের সামনেই হামলা চালালো তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীরা।’’ তৃণমূল নেতা সৈকত চৌধুরী বলেন, ‘‘এই ঘটনার সঙ্গে দলের কোনও যোগ নেই। সামান্য একটা ঝামেলা নিয়ে বিজেপির লোকেরা হামলা করে।’’ পুলিশ সূত্রে জানানো হয়েছে, এলাকায় পুলিশ পিকেট বসানো হয়েছে। ইতিমধ্যে চার জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। বাকিদের সন্ধানে তল্লাশি জারি রয়েছে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

police arrest TMC
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE