Advertisement
২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৪
Cyclone Mocha

আছড়ে পড়তে পারে মোকা, ঝড়ের প্রস্তুতিতে বৈঠক লালবাজারে

পুলিশ, কলকাতা পুরসভা, কেএমডিএ এবং বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনীর প্রতিনিধিরা থাকবেন ওই কেন্দ্রে। ঝড়-পরবর্তী অবস্থা সামাল দিতে বিভিন্ন দফতরের সঙ্গে সমন্বয় রেখে কাজ করবে ওই কেন্দ্র।

An image of Lalbazaar

ঝড়কে কেন্দ্র করে বিপর্যয় মোকাবিলার জন্য লালবাজারে ‘ইউনিফায়েড কমান্ড সেন্টার’ খুলছে কলকাতা পুলিশ। ফাইল ছবি।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ০৬ মে ২০২৩ ০৭:০০
Share: Save:

আজ, শনিবার দক্ষিণ-পূর্ব বঙ্গোপসাগরে ঘূর্ণাবর্ত তৈরি হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে। যেটি আগামী সপ্তাহের শুরুতে পরিণত হতে পারে ঘূর্ণিঝড়ে। তবে, সেই ঘূর্ণিঝড় কোথায় আঘাত হানবে কিংবা তার গতিপথ কী হবে, তা এখনও অজানা। ঝড়কে কেন্দ্র করে বিপর্যয় মোকাবিলার জন্য লালবাজারে ‘ইউনিফায়েড কমান্ড সেন্টার’ খুলছে কলকাতা পুলিশ। শনিবার থেকেই চালু হয়ে যাওয়ার কথা ওই কেন্দ্রের।

পুলিশ, কলকাতা পুরসভা, এনডিআরএফ, দমকল, সিইএসসি, কেএমডিএ এবং বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনীর প্রতিনিধিরা থাকবেন ওই কেন্দ্রে। ঝড়-পরবর্তী অবস্থা সামাল দিতে বিভিন্ন দফতরের সঙ্গে সমন্বয় রেখে কাজ করবে ওই কেন্দ্র। উল্লেখ্য, ২০২০ সালে আমপানের থেকে শিক্ষা নিয়ে গত কয়েক বছর ধরেই প্রাকৃতিক বিপর্যয় মোকাবিলায় লালবাজার ওই বিশেষ কেন্দ্র খুলছে। যার দায়িত্বে থাকছেন কলকাতা পুলিশের এক কর্তা।

লালবাজার সূত্রের খবর, বিভিন্ন থানা এবং ট্র্যাফিক গার্ডকে ঝড়-পরবর্তী পরিস্থিতির মোকাবিলার জন্য তৈরি থাকতে বলা হয়েছে। গাছ কাটার যন্ত্র এবং বিকল্প আলোর ব্যবস্থাও রাখতে বলা হয়েছে তাদের। শহরের জীর্ণ বাড়ির তালিকা থানাগুলিকে তৈরি রাখতে বলা হয়েছে। যাতে প্রয়োজনে সেখানকার বাসিন্দাদের অন্যত্র সরানো যায়। প্রতিটি থানাকে বলা হয়েছে, নিজেদের এলাকার সিইএসসি এবং পুরপ্রতিনিধিদের সঙ্গে যোগাযোগ রাখতে।

লালবাজারের কর্তারা জানিয়েছেন, কলকাতা পুলিশের বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনীকে এ বার শহরের সর্বত্র ছড়িয়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে। কলকাতা পুলিশের ন’টি ডিভিশনে ওই বাহিনীর সদস্যদের থাকার কথা।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement

Share this article

CLOSE