Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৮ অক্টোবর ২০২১ ই-পেপার

Local Train: লোকাল ট্রেনে বসছে এলসিডি স্ক্রিন

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২১ ০৫:৪৪
প্রতীকী ছবি।

প্রতীকী ছবি।

লোকাল ট্রেনে বসানো হচ্ছে এলসিডি স্ক্রিন। মুম্বইয়ের পরে এ রাজ্যে। পূর্ব রেলের হাওড়া ডিভিশনের সব ক’টি লোকাল ট্রেনে চালু হচ্ছে এই ব্যবস্থা। ট্রেনের কামরায় বসানো মনিটরের মাধ্যমে যাত্রীদের কাছে রেল ও সফর সংক্রান্ত নানা তথ্যের পাশাপাশি সংবাদ এবং বিনোদনও পৌঁছে দেওয়া হবে। সেই সঙ্গে পর্দায় দেখানো বিজ্ঞাপন থেকে যাত্রী-ভাড়া বহির্ভূত খাতে আয়ও করবে রেল।

গত কয়েক বছরে পূর্ব রেলে লোকাল ট্রেনের অনেকগুলি আধুনিক রেক যুক্ত হয়েছে। ঘণ্টায় সর্বোচ্চ ১০০ কিলোমিটার গতিতে ছুটতে পারা, স্টেনলেস স্টিলের ওই সব রেকে যাত্রীদের সফরের অভিজ্ঞতা আগের তুলনায় অনেকটাই ভাল বলে জানা গিয়েছে। জিপিএস প্রযুক্তির মাধ্যমে ওই সমস্ত রেকে পরবর্তী স্টেশন সম্পর্কে ঘোষণাও শুনতে পান যাত্রীরা। এ বার খানিকটা বিনোদন যুক্ত করে যাত্রী-স্বাচ্ছন্দ্য আরও কিছুটা উন্নত করতে চায় রেল। এর পাশাপাশি, আয়ের নতুন পথও খুলতে চায় তারা।

রেল জানিয়েছে, কয়েক মাস আগে মুম্বইয়ে এই ব্যবস্থা চালু করার পরে সাফল্য মেলায় এ বার এ রাজ্যেও তা শুরু হচ্ছে। এই প্রকল্পের জন্য প্রয়োজনীয় দরপত্র ডাকার কাজ ইতিমধ্যেই সম্পূর্ণ। দরপত্র প্রক্রিয়া শেষ হওয়ার মাস দুয়েকের মধ্যেই ওই ব্যবস্থা চালু করার লক্ষ্যমাত্রা স্থির হয়েছে। প্রথম দফায় শুধুমাত্র হাওড়া ডিভিশনেই ওই ব্যবস্থা চালু হচ্ছে।

Advertisement

শিয়ালদহ ডিভিশনের লোকাল ট্রেনগুলিতে যাত্রীদের ভিড় অস্বাভাবিক রকমের বেশি থাকে। বিভিন্ন রুটে ট্রেনের সংখ্যাও হাওড়া ডিভিশনের তুলনায় অনেকটা বেশি। নতুন রেক অনেকগুলি চালু হলেও শিয়ালদহ শাখায় এখনও পুরনো রেকও বেশ কিছু রয়েছে। তাই সব দিক খতিয়ে দেখে প্রাথমিক ভাবে হাওড়া ডিভিশনেই এই প্রকল্প চালু করা হচ্ছে। পরে উদ্যোগের সাফল্য দেখে অন্যান্য ডিভিশনেও তা কার্যকর করা হতে পারে বলে রেল সূত্রের খবর।

হাওড়া ডিভিশনের ৫০টি রেকে এই নয়া ব্যবস্থা চালু হবে। কর্ড ও মেন লাইনের সব ক’টি লোকাল ট্রেনেই ওই মনিটর বসছে। নির্বাচিত সংস্থাটিকে পাঁচ বছরের জন্য বরাত দেওয়া হবে। ওই সংস্থাই রেলের শর্ত মেনে এলসিডি স্ক্রিন বসানোর দায়িত্ব পাবে। প্রাথমিক ভাবে এলসিডি মনিটরের পর্দায় যত ক্ষণ ধরে ছবি ও তথ্য পরিবেশন করা হবে, তার অন্তত ৩০ শতাংশ রেলের জন্য বরাদ্দ থাকবে। ওই সময়ে ট্রেনে সফর সংক্রান্ত নানা তথ্য ছাড়াও যাত্রী-সচেতনতামূলক নানা বার্তা দেওয়া হবে। ‘প্রি-লোডেড’ ভিডিয়ো দেখানোর ক্ষেত্রে রেলের খুঁটিনাটি সমস্ত নিয়ম মানতে হবে দায়িত্বপ্রাপ্ত সংস্থাকে।

এই প্রসঙ্গে জানতে চাইলে পূর্ব রেলের মুখ্য জনসংযোগ আধিকারিক একলব্য চক্রবর্তী বলেন, ‘‘যাত্রীদের কাছে বিনোদন ছাড়াও তথ্যসমৃদ্ধ নানা ভিডিয়ো-বার্তা পৌঁছে দেওয়া হবে। এই উদ্যোগ থেকে রেলের আয়ও হবে।’’

আরও পড়ুন

Advertisement