Advertisement
২৩ জুলাই ২০২৪

চাঁদার জুলুমের প্রতিবাদ, প্রহৃত

পুলিশ জানায়, বারুইপুর আমতলা রোডের রাস্তায় গাড়ি আটকে ওই রাতে চাঁদা তুলছিলেন একটি ক্লাবের কয়েক জন সদস্য। সেই খবর পুলিশের কাছে পৌঁছে দেন স্থানীয় ব্যবসায়ী বিশ্বজিৎ সাহা।

প্রতীকী ছবি।

প্রতীকী ছবি।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ০৩:১০
Share: Save:

প্রথমে অভিযোগ উঠেছিল, রাস্তায় জোর করে গাড়ি আটকে চাঁদা তুলছেন একটি ক্লাবের কয়েক জন সদস্য। তার প্রতিবাদ করায় অভিযোগকারীর বাড়িতে চড়াও হওয়ার অভিযোগ উঠল ওই ক্লাবের কয়েক জন সদস্যের বিরুদ্ধে। ঘটনাটি ঘটেছে সোমবার রাতে বারুইপুর থানা এলাকার অর্জুনপুরে।

পুলিশ জানায়, বারুইপুর আমতলা রোডের রাস্তায় গাড়ি আটকে ওই রাতে চাঁদা তুলছিলেন একটি ক্লাবের কয়েক জন সদস্য। সেই খবর পুলিশের কাছে পৌঁছে দেন স্থানীয় ব্যবসায়ী বিশ্বজিৎ সাহা। অভিযোগ পাওয়ার পরেই পুলিশ গিয়ে চাঁদা তোলা বন্ধ করে। অভিযোগ, তিনি পুলিশকে মিথ্যে খবর দিয়েছেন এই দাবি করে ওই ক্লাবের সদস্যেরা বিশ্বজিতের বাড়িতে হামলা চালায়। তিনি জানান, বাড়িতে ভাঙচুর ও লুটপাট চালানোর পাশাপাশি পরিবারের সদস্যদেরও মারধর করা হয়।

বিশ্বজিতের দাবি, ‘‘এই ঘটনায় স্থানীয় শাসক দলের পঞ্চায়েত সদস্য সোনালি সাহা জড়িত।’’ যদিও সোনালি অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, ‘‘ব্যবসায়ীর বাড়িতে হামলার পরে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা করা হয়েছে। ঘটনার সঙ্গে আমার যোগ নেই।’’ ক্লাব সদস্যদের একাংশের অভিযোগ, বেশ কয়েক বছর ধরে ওই এলাকায় পুজো বন্ধ করার চেষ্টা করছেন বিশ্বজিৎ। বারুইপুর পুলিশ জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ইন্দ্রজিৎ বসু বলেন, ‘‘ওই ঘটনায় অভিযুক্তেরা এখন এলাকা ছাড়া রয়েছেন। তাঁদের ধরতে তল্লাশি অভিযান চলছে।’’

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

Crime Beating Fund Raising Durga Puja 2019
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE