Advertisement
২১ এপ্রিল ২০২৪
Mamata banerjee

মুখ্যমন্ত্রীর সভা, ভরসা ছোট গাড়ি

গত বছর অগস্টের গোড়ায় বিশ্ব আদিবাসী দিবসের রাজ্যস্তরীয় সরকারি অনুষ্ঠান উপলক্ষে ঝাড়গ্রামে এসেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী। এ বার লোকসভা ভোটের আগে ঝাড়গ্রামে সরকারি পরিষেবা প্রদান ও প্রশাসনিক জনসভা করতে আসছেন মমতা।

মুখ্যমন্ত্রীর সফরের আগে রবিবার ঝাড়গ্রাম আরএমএস মাঠে হেলিকপ্টারের মহড়া।

মুখ্যমন্ত্রীর সফরের আগে রবিবার ঝাড়গ্রাম আরএমএস মাঠে হেলিকপ্টারের মহড়া। —নিজস্ব চিত্র।

নিজস্ব সংবাদদাতা
ঝাড়গ্রাম শেষ আপডেট: ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ ০৯:০০
Share: Save:

লোকসভা ভোটের আগে ঝাড়গ্রাম জেলায় মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের প্রথম প্রশাসনিক সভা। সভাস্থলে উপভোক্তাদের নিয়ে আসার জন্য জেলা প্রশাসনের তরফে ১৫৫টি বেসরকারি বাসের ব্যবস্থা করা হয়েছে। এর মধ্যে জেলার বাস মালিক সংগঠনভুক্ত ৭০টি বাস এবং পশ্চিম মেদিনীপুর জেলা বাস মালিক সংগঠনের ৮৫টি বাস। এ বাদে সভায় লোক ভরাতে শাসকদল তৃণমূলও উদ্যোগী হয়েছে। তবে বাদ সাধছে উচ্চ মাধ্যমিকের পরীক্ষা। তাই লোক আনতে তৃণমূলের ভরসা ছোট গাড়ি ও পড়শি রাজ্যের বাস। কিন্তু সেটাও যথেষ্ট নয়। তাই ঝাড়গ্রাম শহরের ১৮টি ওয়ার্ড থেকে সভায় বেশি লোকজন নিয়ে যাওয়ার পরিকল্পনা করেছে শাসকদল।

গত বছর অগস্টের গোড়ায় বিশ্ব আদিবাসী দিবসের রাজ্যস্তরীয় সরকারি অনুষ্ঠান উপলক্ষে ঝাড়গ্রামে এসেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী। এ বার লোকসভা ভোটের আগে ঝাড়গ্রামে সরকারি পরিষেবা প্রদান ও প্রশাসনিক জনসভা করতে আসছেন মমতা। প্রশাসন সূত্রে খবর, আগামী বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারি বাঁকুড়ার খাতড়ায় প্রশাসনিক জনসভা সেরে বিকেলে কপ্টারে ঝাড়গ্রামে পৌঁছবেন মুখ্যমন্ত্রী। পর্যটন উন্নয়ন নিগমের ঝাড়গ্রাম টুরিস্ট কমপ্লেক্সে রাত্রিযাপন করবেন। পরদিন বৃহস্পতিবার (২৯ ফেব্রুয়ারি) ঝাড়গ্রাম স্টেডিয়ামে সরকারি পরিষেবা প্রদান ও প্রশাসনিক জনসভা করবেন মুখ্যমন্ত্রী। প্রশাসন সূত্রে জানা গিয়েছে, ঝাড়গ্রামের সভা থেকে মুখ্যমন্ত্রী প্রায় পাঁচশো কোটি টাকার বিভিন্ন উন্নয়ন প্রকল্পের শিলান্যাস ও উদ্বোধন করবেন।

সূত্রের খবর, মুখ্যমন্ত্রীর সভাস্থলে লোক ভরানোর জন্য উদ্যোগী হয়েছে শাসকদলও। ইতিমধ্যেই তৃণমূলের জেলা কমিটির বৈঠকে জেলা সভাপতি দুলাল মুর্মু জেলার সর্বস্তরের নেতা-নেত্রীদের লোক ভরাতে উদ্যোগী হতে বলেছেন। তবে বৃহস্পতিবার মুখ্যমন্ত্রীর সভার দিন উচ্চ মাধ্যমিকের রাশিবিজ্ঞান, ভূগোল, পরিব্যয় হিসাববিদ্যা ও আয়করের রূপরেখা, গৃহ ব্যবস্থাপনা, পারিবারিক সম্পদ ব্যবস্থাপনা বিষয়গুলির পরীক্ষা শুরু হবে সকাল ১০ টা থেকে। গ্রামাঞ্চলের পরীক্ষার্থীদের যাতায়াতের ভরসা মূলত সরকারি ও বেসরকারি বাস। তবে জেলায় সরকারি বাসের সংখ্যা হাতে গোনা। দৈনিক প্রায় দু’শো বেসরকারি বাস জেলার বিভিন্ন রুটে যাতায়াত করে। ফলে, মুখ্যমন্ত্রীর সভাস্থল কানায় কানায় ভরাতে লোকজন আনার জন্য প্রয়োজন কমপক্ষে তিনশো বাস। এর মধ্যে প্রশাসনের উদ্যোগে ১৫৫টি বাসের সংস্থান করা গিয়েছে। জেলাশাসক সুনীল আগরওয়াল বলছেন, ‘‘যে বাস গুলিতে পরীক্ষার্থীরা যাতায়াত করছেন, সেগুলি বাদ দিয়ে অল্প সংখ্যক বাস নেওয়া হচ্ছে।’’

ঝাড়গ্রাম ডিস্ট্রিক্ট বাস ওনার্স ওয়েলফেয়ার অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক দিলীপ পাল বলছেন, ‘‘প্রতিদিন জেলায় বিভিন্ন রুটে গড়ে দু’শো বেসরকারি বাস চলে। পরীক্ষার্থীদের যাতায়াতের যাতে সমস্যা না হয় সেজন্য বৃহস্পতিবার মুখ্যমন্ত্রীর সভার জন্য ৭০টি বাস জেলা প্রশাসনকে দেওয়া হচ্ছে। যেগুলি অফ টাইমের বাস সেগুলিই দেওয়া হচ্ছে। রাজনৈতিক দলকে বাস দেওয়া সম্ভব হচ্ছে না।’’ জেলা তৃণমূলের সভাপতি দুলাল মুর্মু বলছেন, ‘‘পরীক্ষার্থীদের যাতে সমস্যা না হয়, সে জন্য দলের তরফে অন্য জেলার এবং ওড়িশারও কিছু বাস ভাড়া করা হবে। এ ছাড়া ছোট গাড়ি, পিক আপ ভ্যানও ভাড়া করা হচ্ছে।’’ তা হলে সভাস্থল ভরবে কী ভাবে? জেলা তৃণমূলের সাধারণ সম্পাদক অজিত মাহাতো বলছেন, ‘‘ঝাড়গ্রাম শহরে বহু মানুষ বাস করেন। সভায় যাতে শহরবাসী সুষ্ঠুভাবে পৌঁছতে পারেন, সেজন্য শহরের প্রতিটি ওয়ার্ড কমিটিকে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। সভাস্থল কানায় কানায় ভরে যাবে।’’

উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষার দিনে মুখ্যমন্ত্রীর সভা নিয়ে অবশ্য কটাক্ষ শুরু করেছে বিরোধীরা। সিপিএমের রাজ্য কমিটির সদস্য পুলিনবিহারী বাস্কে বলছেন, ‘‘পরীক্ষার দিনে সভা হচ্ছে। এ জন্য বাসও তোলা হচ্ছে। এতে পরীক্ষার্থীরা সমস্যায় পড়বেন। রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী যদি এটা বুঝতে না পারেন, সেটা আমাদের দুর্ভাগ্য।’’ বিজেপির রাজ্য কমিটির সদস্য সুখময় শতপথী বলছেন, ‘‘মুখ্যমন্ত্রীর ভোট সর্বস্ব উন্নয়নের জন্য মাসুল দিতে হচ্ছে পরীক্ষার্থীদের। সাধারণ মানুষের সমস্যা নিয়ে রাজ্য সরকারের মাথা ব্যথা নেই।’’

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

midnapore
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE