×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ই-পেপার

আজ শুরু প্রতিষেধক প্রয়োগ, প্রস্তুতি সারা

নিজস্ব প্রতিবেদন
১৬ জানুয়ারি ২০২১ ০২:৪৭
মেদিনীপুর মেডিক্যাল কলেজে প্রতিষেধক দেওয়ার প্রস্তুতি দেখছেন অধ্যক্ষ পঞ্চানন কুণ্ডু। ছবি: সৌমেশ্বর মণ্ডল।

মেদিনীপুর মেডিক্যাল কলেজে প্রতিষেধক দেওয়ার প্রস্তুতি দেখছেন অধ্যক্ষ পঞ্চানন কুণ্ডু। ছবি: সৌমেশ্বর মণ্ডল।

আজ, শনিবার থেকে করোনার টিকাকরণ শুরু হচ্ছে পশ্চিম মেদিনীপুরেও। জেলাশাসক রশ্মি কমল জানিয়েছেন, শনিবার জেলায় টিকাকরণের সূচনা হবে। প্রস্তুতি সারা হয়েছে। যাবতীয় আয়োজন সারা হয়েছে পাশের জেলা ঝাড়গ্রামেও।

টিকাকরণের সূচনার জন্য পশ্চিম মেদিনীপুরের ১৩টি ‘সেশন সাইট’ নির্দিষ্ট হয়েছে। অর্থাৎ, শনিবার এই ১৩টি কেন্দ্রে টিকাকরণের সূচনা হবে। এর মধ্যে রয়েছে মেদিনীপুর মেডিক্যাল কলেজও। শনিবার সকালে মেডিক্যাল কলেজে যেতে পারেন জেলাশাসক। জেলাশাসক বলেন, ‘‘টিকাকরণের সূচনার প্রস্তুতির সমস্ত দিক খতিয়েও দেখা হয়েছে।’’ তিনি জানিয়েছেন, প্রতিটি কেন্দ্র থেকে দিনে ১০০ জনকে প্রতিষেধক দেওয়া হবে। সেই হিসেবে টিকাকরণের সূচনার দিনে জেলায় ১,৩০০ জনকে করোনার প্রতিষেধক দেওয়ার লক্ষ্যমাত্রা আছে।

বুধবারই পশ্চিম মেদিনীপুরে পৌঁছয় ‘কোভিশিল্ড’। এই প্রতিষেধকের প্রায় ২৬ হাজার ডোজ জেলায় পৌঁছেছে। প্রতিষেধক রাখা হয়েছে জেলা স্বাস্থ্য দফতরের স্টোরে। নির্দিষ্ট তাপমাত্রায় সংরক্ষিত রয়েছে প্রতিষেধক। জানা গিয়েছে, ঘাটাল সুপার স্পেশালিটি হাসপাতাল-সহ মহকুমার ক্ষীরপাই ও দাসপুর গ্রামীণ হাসপাতালে করোনার টিকা দেওয়া শুরু হবে।

Advertisement

শুক্রবারই জেলা থেকে ঘাটাল হাসপাতাল-সহ সংশ্লিষ্ট হাসপাতালগুলিতে পৌঁছে গিয়েছে করোনার টিকা। পুলিশের পাহারায় করোনার ভ্যাকসিন এসে পৌঁছেছে গড়বেতাতেও। শুক্রবার বেলা সাড়ে ১২ টা নাগাদ মেদিনীপুর থেকে বিশেষ গাড়িতে করে গড়বেতা গ্রামীণ হাসপাতালে করোনার প্রতিষেধক আসে। বিশেষ ওই গাড়ি আসার পথে ছিল পুলিশের গাড়িও।

Advertisement