×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ই-পেপার

কুয়াশায় লরির মুখে বাইক, মৃত ৩

নিজস্ব সংবাদদাতা 
চাপড়া ১৯ জানুয়ারি ২০২১ ০২:৫৯
দুর্ঘটনাগ্রস্ত লরি ও বাইক।

দুর্ঘটনাগ্রস্ত লরি ও বাইক।

বালি বোঝাই লরির ধাক্কায় মৃত্যু হল তিন মোটরবাইক আরোহীর। সোমবার সকালে চাপড়ার মানিকনগর-গোয়ালডাঙা ঢালের কাছে ফাঁকা রাস্তায় লরিটির সঙ্গে চাপড়ার দিকে আসা মোটরবাইকের ধাক্কা লাগে। রাস্তায় ছিটকে পড়েন তিন আরোহী। ঘটনাস্থলেই তাঁদের মৃত্যু হয়। ছুটে আসেন আশেপাশের গ্রামের লোকজন। খবর পেয়ে পুলিশ এসে মৃতদেহ তিনটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পাছিয়েছে। পুলিশ লরিটি আটক করলেও চালক পলাতক। ঘন কুয়াশার কারণেই এই দুর্ঘটনা বলে প্রাথমিক তদন্তের পরে পুলিশের অনুমান ।

পুলিশ জানিয়েছে, মৃতেরা হলেন চাপড়ার সীমান্ত গ্রাম হাটখোলার বাসিন্দা সেকিম আলি মণ্ডল (২৬), ইমাদুল হালসানা (৩০) ও ইকবাল মণ্ডল (২০)। তাঁরা ছিলেন রাজমিস্ত্রি। সোমবার সকালে তাঁরা বাইকে চেপে চাপড়ায় কাজ করতে আসছিলেন। প্রচণ্ড কুয়াশায় একটু দূরের জিনিসও ভাল ভাবে দেখা যাচ্ছিল না। সম্ভবত কুয়াশার কারণেই বালি বোঝাই লরিটি তাঁরা দূর থেকে দেখতে পাননি।

একই সঙ্গে গ্রামের তিন জন মারা যাওয়ায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে হাটখোলায়। মৃত ইমদাদুলের কাকা আকিবুল হালসানা বলেন, “রাস্তায় কুয়াশা থাকায় ওরা লরিটিকে দেখতে পায়নি। তিন জনই অত্যন্ত দরিদ্র পরিবারে সন্তান। তিনটি পরিবারই ভেসে গেল।” এলাকার বাসিন্দাদের অভিযোগ, এই এলাকায় নিয়মিত বালি ও পাথরের লরি ঢোকে। রাস্তার পাশে ফেলে রাখা হয় বালি ও পাথর। মাঝে-মধ্যেই দুর্ঘটনা ঘটে। এ দিনের দুর্ঘটনার পর স্থানীয় বাসিন্দারা বালি ও পাথরের লরি নিয়ন্ত্রণের দাবি জানান। সেই সঙ্গে যাতে রাস্তার পাশে বালি ও পাথর পড়ে না থাকে সে দিকে নজর রাখার দাবিও জানান তারা। পুলিশ জানায়, নজর রাখা হচ্ছে।

Advertisement
Advertisement