Advertisement
১৮ জুন ২০২৪
Accident

Darjeeling: রাওয়তের রক্ষী সতপালের দেহ পায়নি পরিবার, বাড়ি গিয়ে খোঁজ নিলেন দার্জিলিঙের সাংসদ রাজু

শনিবার সতপালের পরিবারের সঙ্গে দেখা করেন দার্জিলিঙের বিজেপি সাংসদ রাজু বিস্তা। কথা বলেন সতপালের ছেলে বিকাল রাইয়ের সঙ্গেও।

ফাইল চিত্র।

ফাইল চিত্র।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ১১ ডিসেম্বর ২০২১ ২৩:১০
Share: Save:

হেলিকপ্টার দুর্ঘটনায় প্রাণ হারিয়েছেন দার্জিলিঙের বাসিন্দা দেশের সেনা সর্বাধিনায়ক বিপিন রাওয়তের ব্যক্তিগত নিরাপত্তরক্ষী হাবিলদার সতপাল রাই। তার পর দু’ দিন কেটে গেলেও এখনও বাড়ি এল না সতপালের দেহ।

শনিবার সতপালের পরিবারের সঙ্গে দেখা করেন দার্জিলিঙের বিজেপি সাংসদ রাজু বিস্তা। কথা বলেন সতপালের ছেলে বিকাল রাইয়ের সঙ্গেও। বিকালও সেনাবাহিনীতে কর্মরত। বুধবার বাবার মৃত্যুর খবর পেয়ে দিল্লি থেকে নিজেদের তাকদার বাড়িতে এসেছেন। ঘটনার পর দু’ দিন কেটে গেলেও সতপালের দেহ এখনও বাড়িতে না পৌঁছনোয় স্বাভাবিক ভাবেই উদ্বেগে রয়েছে রাই পরিবার।

শনিবার সে ব্যাপারেই বিকালকে রাজু জানান, ফরেন্সিক পরীক্ষার জন্য হায়দরাবাদে পাঠানো হয়েছে সতপালের ডিএনএ নমুনা। এর জন্য আরও এক-দু’দিন সময় লেগে যেতে পারে। গোটা প্রক্রিয়া সম্পূর্ণ হলেই বিশেষ বিমানে পাঠানো হবে সতপালের দেহ। ছেলেকে সাংসদ এ-ও জানান, এই প্রক্রিয়া যাতে দ্রুত সম্পূর্ণ করা হয়, তার জন্য নিয়মিত প্রতিরক্ষা মন্ত্রকের প্রতিমন্ত্রী অজয় ভট্ট এবং ওই মন্ত্রকের আধিকারিকদের সঙ্গে যোগাযোগ করছেন তিনি।

বুধবার সতপালের মৃত্যুর খবর পাওয়া মাত্রই টুইটারে রাজু লিখেছিলেন, ‘‘দেশের সেবায় হাবিলদার সতপালের আত্মত্যাগ গোর্খাদের কাছে স্মরণীয় হয়ে থাকবে।’’ এ দিন তিনি বলেন, ‘‘শেষ নিঃশ্বাস পর্যন্ত দেশের সেবা করেছেন সতপালজি। শুধু মাত্র ভাগ্যবানেরাই দেশের সেবা করার সুযোগ পান। আজ সতপালজির মতো যাঁরা দেশের জন্য প্রাণ দিলেন, তাঁদের জন্য শোকপ্রকাশ করছে গোটা দেশ। আমি বিকালকে জানিয়েছি, ওঁরা একা নন। ভারতীয় সেনাবাহিনী, গোর্খা রেজিমেন্ট, সারা ভারতের গোর্খারা ওঁদের পাশে রয়েছেন।’’

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

Accident Helicopter Crash Bipin rawat Raju Bista
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE