×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

২৩ জুন ২০২১ ই-পেপার

উত্তরকন্যার কাছে আগুনে আতঙ্ক

নিজস্ব সংবাদদাতা
শিলিগুড়ি ১০ ডিসেম্বর ২০১৬ ০৩:২৯
থার্মোকলের থালা-বাটি তৈরির কারখানায় আগুন নেভানোর কাজ করছেন দমকল কর্মীরা। — বিশ্বরূপ বসাক

থার্মোকলের থালা-বাটি তৈরির কারখানায় আগুন নেভানোর কাজ করছেন দমকল কর্মীরা। — বিশ্বরূপ বসাক

আগুনে ভস্মীভূত হল থার্মোকলের থালা-বাটি তৈরির কারখানার একটা বড় অংশ। শাখা সচিবালয় উত্তরকন্যার অদূরে ডাবগ্রাম ইন্ডাস্ট্রিয়াল সেন্টারের ভিতর ওই কারখানাটি।

পুলিশ এবং দমকল সূত্রের খবর, শুক্রবার বেলা ২টো নাগাদ ওই কারখানার টিনের শেডের একটি অংশে আগুন লাগে। সেই সময় টিনের শেডের পাশে পাকা কারখানার অংশেও কাজ চলছিল। সেখানেও আগুন ছড়িয়ে পড়ে। যন্ত্রপাতি-সহ টিনের শেড পুড়ে যায়। দেওয়ালের পলেস্তারা খসে পড়তে থাকে। আগুনের তীব্রতা এতটাই ছিল যে উত্তরকন্যা, ফুলবাড়ি থেকেও আগুন দেখা যাচ্ছিল। কারখানার লোকজনই প্রথমে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনার চেষ্টা শুরু করে। কিছু পরে আসে দমকল। কারখানায় পর্যাপ্ত জল মজুত থাকায় প্রাথমিক ভাবে সুবিধা হয়েছে বলে দমকল সূত্রের খবর। দমকলের চারটি ইঞ্জিন ঘটনাস্থলে গিয়ে ঘন্টাখানেকের চেষ্টায় আগুন আয়ত্বে আনে।

দমকলের প্রাথমিক অনুমান, শটসার্কিট থেকেও ঘটনাটি ঘটতে পারে। এলাকায় একাধিক কারখানা, গ্যাস গুদাম ছাড়াও অদূরে উত্তরকন্যা থাকায় ঘটনাস্থলে পৌঁছান ডিসি সংমিত লেপচা, এসিপি অচ্যিন্ত গুপ্তও। কারখানার অন্যতম মালিক বাবলু গোয়েল ঘটনাস্থলে গেলে এলাকার বাসিন্দারা তাঁকে ঘিরে বিক্ষোভও দেখান। পুলিশ জানিয়েছে, হতাহতের কোনও খবর নেই।

Advertisement

বাসিন্দাদের দাবি, এই নিয়ে এই কারখানায় তিন বার আগুন লাগল। মালিক বাবলুবাবু’র দাবি, ‘‘শট সার্কিটই মনে হচ্ছে। আগুন নেভানোর সমস্ত ব্যবস্থা, প্রতিরোধক আমাদের কাছে রয়েছে। দমকল আসার আগেই তাই কাজও শুরু হয়েছিল।’’

Advertisement