×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

২৮ জুলাই ২০২১ ই-পেপার

আগুন নেভাতে এসে বিকল দমকলের ইঞ্জিন, পুরুলিয়ায় পুড়ে ছাই ৫ দোকান

নিজস্ব সংবাদদাতা
পুরুলিয়া ২৯ জানুয়ারি ২০২১ ২৩:০৪
বরাবাজারে ভস্মীভূত দোকান।

বরাবাজারে ভস্মীভূত দোকান।
নিজস্ব চিত্র।

আগুন নেভাতে এসে বিকল হয়ে পড়ল দমকলের ইঞ্জিন। সকলের চোখের সামনেই তাই বিধ্বংসী আগুনে পুড়ে ছাই হয়ে গেল ৫টি দোকান। শুক্রবার ভোরে ঘটনাটি ঘটেছে পুরুলিয়ার বরাবাজার বাইপাস মোড়ের কাছে।

এই ঘটনায় ক্ষতিপুরণ ও নিরাপত্তার দাবি তুলে বেশ কিছুক্ষণ পথ অবরোধ করেন ক্ষতিগ্রস্ত দোকানদার-সহ স্থানীয় বাসিন্দারা। পরে পরিস্থিতি সামাল দেয় বরাবাজার থানার পুলিশ।

স্থানীয় ও পুলিশ সুত্রে জানা গিয়েছে, পুরুলিয়া থেকে বরাবাজার ব্লক সদরে ঢোকার মুখে যাত্রী প্রতীক্ষালয়ের কাছে বেশ কয়েকটি দোকান ছিল। বৃহস্পতিবার রাতে দোকান বন্ধ করে বাড়ি ফিরেছিলেন দোকানদারেরা। মধ্যরাতে হঠাৎ আগুনের শিখা দেখতে পান স্থানীয় বাসিন্দারা। মুহূর্তের মধ্যে আগুন ছড়িয়ে পড়ে। একের পর এক দোকান দাউ দাউ করে জ্বলতে শুরু করে। ঘটনার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌছায় বরাবাজার থানার বিশাল পুলিশ বাহিনী। খবর দেওয়া হয় দমকলকেও।

Advertisement

খবর পেয়েই ছুটে আসে দোকানের মালিকেরা। ততক্ষণে আগুন নেভানোর চেষ্টা করেছেন স্থানীয় বাসিন্দারা ও পুলিশ কর্মীরা। ঘটনাস্থে পৌছায় দমকলের একটি ইঞ্জিন। কিন্তু আগুন নেভানোর মাঝপথে বন্ধ হয়ে যায় ইঞ্জিনটি। ফলে সকলের চোখের সামনেই আগুনে পুড়ে ছাই হয়ে যায় ৫টি দোকান। এরপর ক্ষুব্ধ হয়ে বরাবাজার-পুরুলিয়া রাস্তা অবরোধ শুরু করেন স্থানীয় বাসিন্দাদের একাংশ। পরে পুলিশের আশ্বাসের অবরোধ তুলে নেন তাঁরা।

স্থানীয় সূত্রে খবর, ভষ্মীভূত খাবার ও মিষ্টির দোকানগুলিতে গ্যাস সিলিন্ডার ব্যবহার করা হত। সেই থেকে আগুন ছড়িয়ে পড়তে থাকতে পারে। পুরুলিয়া জেলা পুলিশ সুপার বিশ্বজিৎ মাহাত বলেন, “ একটি অভিযোগের ভিত্তিতে ঘটনার তদন্ত শুরু হয়েছে। আমরা তদন্ত করে দেখছি, কী করে এই অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটল।”

Advertisement