Advertisement
২০ মে ২০২৪
Ajay River

জল বাড়ছে বীরভূমের একাধিক নদীর, বানভাসি হওয়ার আতঙ্কে অজয় এবং ময়ূরাক্ষীর পারের বাসিন্দারা

বৃদ্ধি পেয়েছে ময়ূরাক্ষী এবং অজয়ের জলস্তর। তার জেরে জলমগ্ন হয়ে পড়ে ময়ূরাক্ষী নদীর উপর সাঁইথিয়া ফেরিঘাট। পাশাপাশি, জলমগ্ন হয়ে যায় বীরভূমের নলহাটিতে ব্রাহ্মণী নদীর উপর দেবগ্রাম ঘাটও।

জলস্তর বেড়েছে অজয় নদের।

জলস্তর বেড়েছে অজয় নদের। — নিজস্ব চিত্র।

নিজস্ব সংবাদদাতা
বোলপুর শেষ আপডেট: ১৪ সেপ্টেম্বর ২০২২ ১২:৫২
Share: Save:

ভয় বাড়াচ্ছে লাগাতার বৃষ্টি এবং বাঁধের ছাড়া জল। জলস্তর বাড়ছে বীরভূমের একাধিক নদীর। ময়ূরাক্ষী এবং অজয়, জেলার দু’টি প্রধান নদীরই জলস্তর এখন বিপদসীমা ছুঁই ছুঁই। বানভাসি হওয়ার আশঙ্কায় নদীর দুই পারের বাসিন্দারা।

বীরভূম জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গিয়েছে, ময়ূরাক্ষী নদীর তিলপাড়া ব্যারেজ থেকে ছাড়া হয়েছে ৭,৫০০ কিউসেক জল। হিংলো ব্যারেজ থেকে ছাড়া হয়েছে ৮,৩১৭ কিউসেক। ১৪,০০০ কিউসেক জল ছাড়া হয়েছে ঝাড়খণ্ডের শিকাটিয়া ব্যারেজ থেকে। তার জেরেই ফুলেফেঁপে উঠছে ময়ূরাক্ষী এবং অজয়। ইতিমধ্যেই জলমগ্ন হয়ে পড়েছে ময়ূরাক্ষী নদীর উপর সাঁইথিয়া ফেরিঘাট। জলমগ্ন নলহাটিতে ব্রাহ্মণী নদীর উপর দেবগ্রাম ঘাট। জলের তলায় বীরভূমের জয়দেব ফেরিঘাটও। পাশাপাশি, বিভিন্ন গ্রামের মধ্যে দিয়ে বয়ে চলা ছোট ছোট নদীর সেতুর উপর দিয়ে জল বইছে।

বুধবার বৃষ্টির জেরে ভেঙে পড়ে দুবরাজপুর শহরের চার নম্বর ওয়ার্ডের একটি পুরোনো বাড়ির অংশ। প্রায় ৮০ বছরের বাড়িটি দীর্ঘ দিন ধরেই বিপজ্জনক অবস্থায় ছিল। মঙ্গলবার দুপুর থেকে নিম্নচাপের বৃষ্টি শুরু হয় দুবরাজপুরে। তার জেরে বুধবার ভোরে হুড়মুড়িয়ে ভেঙে পড়ে বাড়িটির একাংশ। যদিও এই ঘটনায় হতাহতের কোনও খবর নেই। এ নিয়ে দুবরাজপুর পুরসভার চেয়ারম্যান পীযূষ পাণ্ডে বলেন, “বাড়ির যে অংশটি ভেঙে পড়ছে তা সাফ করা হবে। বাকি বিপজ্জনক অংশটিও ভেঙে ফেলা হবে।’’

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

Ajay River Mayurakshi River
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE