Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

০৪ ডিসেম্বর ২০২১ ই-পেপার

Turtle: অমেঠী থেকে আনা বিরল প্রজাতির কচ্ছপ উদ্ধার ব্যান্ডেলে, ধৃত তিন মহিলা পাচারকারী

নিজস্ব সংবাদদাতা
হুগলি ০১ অক্টোবর ২০২১ ১৯:৪৩
জিআরপি অভিযানে উদ্ধার হওয়া কচ্ছপ।

জিআরপি অভিযানে উদ্ধার হওয়া কচ্ছপ।
নিজস্ব চিত্র।

ব্যান্ডেল স্টেশনে অভিযান চালিয়ে সাতটি বিরল প্রজাতির কচ্ছপ উদ্ধার করল রেল পুলিশ (জিআরপি)। শুক্রবার সকালে এই ঘটনায় জড়িত তিন মহিলাকেও গ্রেফতার করেছে ব্যান্ডেল জিআরপি থানার পুলিশ।

প্রাথমিক তদন্তে জানা গিয়েছে, উত্তরপ্রদেশ থেকে পাচার করা হচ্ছিল কচ্ছপগুলি। ওই তিন মহিলা দেহরাদূন এক্সপ্রেসে ব্যান্ডেল স্টেশনে নেমে নৈহাটিগামী লোকালে ওঠার সময় তাদের আটক করে জিআরপি। তাদের ব্যাগ থেকে সাতটি কচ্ছপ উদ্ধার হয়। এক একটি কচ্ছপের ওজন ১০-১৫ কিলোগ্রাম।

Advertisement


সরীসৃপ বিশেষজ্ঞ অনির্বাণ চৌধুরী জানিয়েছেন, উদ্ধার হওয়া কচ্ছপগুলির মধ্যে রয়েছে একটি অতি বিপন্ন প্রজাতির চিত্রা কাছিম (ইন্ডিয়ান ন্যারো হেডেড সফ্‌টশেল টার্টল)। বাকিগুলি গাঙ্গেয় কাছিম (গ্যাঞ্জেস টার্টল)। তাঁর কথায়, ‘‘এগুলি আইইউসিএন-এর ‘লাল তালিকায়’ (রেড ডেটা লিস্ট) ‘অতি বিপন্ন’ (ক্রিটিকালি এনডেঞ্জার্‌ড) প্রজাতি হিসেবে চিহ্নিত।’’

জিআরপি সূত্রের খবর, নির্দিষ্ট তথ্যের ভিত্তিতেই অভিযান চালানো হয়। ধৃত তিন মহিলাকে শুক্রবার চুঁচুড়া আদালতে তোলা হলে বিচারক তিন দিনের পুলিশ হেফাজতের নির্দেশ দেন। জেরায় ধৃতেরা জানিয়েছে অমেঠী জেলার জগদীশপুর থেকে ওই কচ্ছপগুলি তারা এনেছিল বিক্রির উদ্দেশ্যে। ঘটনার পিছনে কোনও সংগঠিত পাচারচক্র রয়েছে বলে প্রাথমিক অনুমান তদন্তকারীদের। ধৃত তিন মহিলার এক জনের বয়স ৩৫। অন্য দু’জনের ১৮-১৯।

জিআরপি-র তরফে থেকে উদ্ধার করা কচ্ছপগুলিকে বন দফতরের হাতে তুলে দেওয়া হয়। হাওড়া-হুগলির বিভাগীয় বনাধিকারিক (ডিএফও) রাজু সরকার বলেন, ‘‘আপাতত কচ্ছপগুলিকে গড়চুমুক মৃগদাবের জলাশয়ে রাখা হয়েছে।’’

আরও পড়ুন

Advertisement