×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

৩০ জুলাই ২০২১ ই-পেপার

আমাদের হারাতে টাকা খরচ না করে, সেই টাকায় সবাইকে ভ্যাকসিন দেওয়া যেত: অভিযোগ মমতার

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ০৮ মে ২০২১ ২১:২৭
মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

‘‘আমাদের হারাতে যে টাকা খরচ করেছে বিজেপি, সেই টাকায় ভ্যাকসিন দিলে ভাল হত’’, এমনটাই বললেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। শনিবার স্পিকার নির্বাচনের পর সংক্ষিপ্ত অধিবেশনে মুখ্যমন্ত্রী আক্রমণ করেন কেন্দ্রের শাসকদলকে। মোদী-শাহদের দলকে কাঠগড়ায় তুলে তিনি বলেন, ‘‘আমাদের হারাতে অনেক টাকা খরচ করেছে। সেই টাকা ভ্যাকসিনে খরচ করলে ভাল হত। সকলকে টিকা দেওয়া যেত। সার্বিক টিকাকরণ হত।’’ মমতা আরও বলেন, ‘‘নির্বাচনী সংস্কার হওয়া উচিত। চিরকুটে বদলি করে দিচ্ছে। বাংলার মেরুদণ্ড শক্তিশালী। বাংলার মেরুদণ্ড কখনও মাথা নীচু করে না। এখনও মনে করি, চক্রান্ত। কত টাকার হোটেল, বিমান ভাড়া, কত টাকা খরচ করেছে! এর চেয়ে ভাল হত, যদি ভ্যাকসিন দেওয়া হত। কেন্দ্রের কাছে ৩৫ হাজার কোটি কিছুই নয়। তবুও সকলের জন্যে ভ্যাকসিনের ব্যবস্থা করেনি। আমরা নিজের পয়সায় ভ্যাকসিন নিতে চেয়েছিলাম। আজ অবধি পাইনি। অক্সিজেন নিয়ে চলে যাচ্ছে। কী অপরাধ করেছে বাংলা? ২৪ ঘন্টা শপথ নেওয়ার মধ্যে কেন্দ্রীয় দল পাঠিয়েছে। বাংলার মানুষের জয় মেনে নিতে পারছে না। সব প্রশাসক বদল করেছে। বিজেপি অফিস থেকে যা বলেছে, তাই করেছে।’’

Advertisement

নির্বাচন কমিশনের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দিয়ে মুখ্যমন্ত্রী বলেছেন, ‘‘নির্বাচন কমিশনের প্রত্যক্ষ সহযোগিতায় কোথাও কোথাও রিগিং সম্পন্ন হয়েছে। এটা খুব দুঃখের ও লজ্জার বিষয়। নির্বাচনী ব্যবস্থার সংস্কার হওয়ার দরকার। ১৯৯৫ সাল থেকে এ নিয়ে আওয়াজ তুলছি। ৩টি নির্বাচিত মানুষ। আর কয়েক জন রিটায়ার্ড অফিসার। একটা চিরকুটে বদলি করে দিচ্ছে। এ ভাবে গণতন্ত্র রক্ষা হবে না।’’ নিজের দলের বিধায়কদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেছেন, ‘‘বিধায়কদের বলব, এলাকায় যেন কোনও অশান্তি না হয়। কেউ দাঙ্গা করতে চাইলে এফআইআর করবেন। আরও বিনম্র হতে হবে। জনগণের কাছে পৌঁছতে হবে। করোনা রোগীদের সাহায্য করুন। আমাদের এ বারে ভাল কাজ করতে হবে। মানুষের সঙ্গে যোগাযোগ রাখা। কোভিডে সাহায্য করা। যাতে অশান্তি না হয়, সেদিকে নজর রাখবেন। কোনও দাঙ্গাবাজদের রেহাই নয়। কোভিড আমাদের সবচেয়ে বড় প্রায়োরিটি।’’

Advertisement