Advertisement
১৩ এপ্রিল ২০২৪
Afghanistan Crisis

Afghanistan Crisis: পঞ্জশিরের দখল নিতে রওনা শয়ে শয়ে তালিব যোদ্ধার, তৈরি মাসুদ বাহিনীও

আফগানিস্তানে একের পর এক প্রদেশ এক প্রকার বিনা যুদ্ধে আত্মসমর্পণ করলেও সে পথে হাঁটেনি হিন্দুকুশ পর্বতের পাদদেশে অবস্থিত পঞ্জশির উপত্যকা।

তালিব যোদ্ধা।

তালিব যোদ্ধা। ছবি— রয়টার্স।

সংবাদ সংস্থা
কাবুল শেষ আপডেট: ২৩ অগস্ট ২০২১ ০৮:৩০
Share: Save:

আফগানিস্তানের অধিকাংশ এলাকা তালিবানের কব্জায় এলেও পঞ্জশির উপত্যকা এখনও তাঁদের দখলে আসেনি। উল্টে সেখানে ঢুকতে গিয়ে গত কয়েক দিনে বাধার মুখে পড়তে হয়েছে তালিব যোদ্ধাদের। ওই এলাকা দখলের জন্য এ বার সর্বশক্তি দিয়ে ঝাঁপানোর কথা ঘোষণা করল তালিবান। জানিয়ে দিল, পঞ্জশির দখল করতে ইতিমধ্যেই রওনা হয়েছে শয়ে শয়ে তালিব যোদ্ধা।

আফগানিস্তানে একের পর এক প্রদেশ এক প্রকার বিনা যুদ্ধে আত্মসমর্পণ করলেও সে পথে হাঁটেনি হিন্দুকুশ পর্বতের পাদদেশে অবস্থিত পঞ্জশির উপত্যকা। ১৫ অগস্টের পরও তাই তালিবানের দখলের বাইরে ছিল এই এলাকার বেশ কয়েকটি প্রদেশ। আহমেদ মাসুদের নেতৃত্বে তালিবানের বিরুদ্ধে লড়াই হচ্ছে সেখানে। আশরফ গনি জমানার ভাইস প্রেসিডেন্ট আমরুল্লা সালেহও রয়েছেন তাঁর সঙ্গে। আফগান বাহিনীর একটা অংশও যোগ দিয়েছে তাঁদের সঙ্গে। এই বাহিনীর সামনে পড়ে গত কয়েক দিনে বেশ কয়েক বার পিছু হটেছে তালিবান। সেই পঞ্জশির দখলে এ বার সর্বশক্তি দিয়ে ঝাঁপাতে চাইছে তাঁরা।

সম্প্রতি তালিবানের তরফে এক টুইটার অ্যাকাউন্টে লেখা হয়েছে, ‘স্থানীয় প্রশাসন শান্তিপূর্ণ ভাবে ক্ষমতা হস্তান্তর করছে রাজি হয়নি। তাই ইসলামিক আমিরশাহির শতাধিক মুজাহিদিন পঞ্জশির দখল‌ে‌র জন্য যাচ্ছে।’ তালিবানের বিরুদ্ধে লড়াই করতে ইচ্ছুকরা দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে প়ঞ্জশিরে জড়ো হচ্ছেন বলে জানিয়েছে সংবাদ সংস্থা এএফপি। মাসুদও এক সংবাদমাধ্যমকে রবিবার বলেছেন, ‘‘আফগানিস্তানের বিভিন্ন প্রদেশ থেকে পূর্বতন আফগান সরকারের বহু সেনা পঞ্জশিরে এসেছেন।’’

তালিবান রুখতে প্রস্তুত পঞ্জশির। সেই প্রতিরোধ ভাঙতে এগোচ্ছে তালিবরাও। আগামী দিনে হিন্দুকুশ পর্বতের পাদদেশের এই এলাকার দখল তালিবান নিতে পারে কি না, সে দিকেই এখন নজর গোটা বিশ্বের।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

Afghanistan Crisis Taliban Attack taliban
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE