Advertisement
০৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৩
Nawaz Sharif

Nawaz Sharif: লন্ডনে আক্রান্ত নওয়াজ শরিফ! কন্যা মরিয়মের দাবি ইমরানের গ্রেফতারি, পাকিস্তানে নয়া নাটক

রবিবার ইমরান খানের ভাগ্যপরীক্ষা। আস্থাভোটে তিনি জিতবেন, নাকি তাঁর জমানা শেষ হবে, তা নিয়েই জোর চর্চা চলছে। যদিও ইমরান খানের দাবি, আস্থাভোটে তিনি জিতছেন।

নওয়াজ শরিফ এবং ইমরান খান। ফাইল চিত্র।

নওয়াজ শরিফ এবং ইমরান খান। ফাইল চিত্র।

সংবাদ সংস্থা
ইসলামাবাদ শেষ আপডেট: ০২ এপ্রিল ২০২২ ২৩:২৮
Share: Save:

পাকিস্তানে আস্থাভোটের আগেই নয়া মোড়। শনিবার লন্ডনে আক্রান্ত হলেন প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফ। সূত্রের খবর, লন্ডনে নওয়াজের দফতরের বাইরে এক দল যুবক তাঁর উপর হামলা চালায়। হামলাকারীদের বাধা দিতে গেলে নওয়াজের দেহরক্ষী আহত হন। এই ঘটনায় ইমরান খানের দল পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ (পিটিআই)-এর দিকে অভিযোগের আঙুল তুলেছেন নওয়াজ-কন্যা মরিয়ম শরিফ। শুধু তাই নয়, রাষ্ট্রের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র এবং তাতে উস্কানি দেওয়ার অভিযোগ তুলে ইমরানের গ্রেফতারির দাবিও জানিয়েছেন মরিয়ম।

Advertisement

টুইট করে তিনি জানান, ‘পিটিআই-এর যাঁরা এই হিংসায় উস্কানি দিয়েছেন এবং যাঁদের জন্য আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতি হচ্ছে, তাঁদের দ্রুত গ্রেফতার করা উচিত। গ্রেফতার করা উচিত ইমরান খানকেও।’ তাঁর দাবি, ইমরানের বিরুদ্ধে এই ঘটনায় মদত দেওয়ার অভিযোগে মামলা করা উচিত। কাউকে ছাড়া হবে না বলেও হুঁশিয়ারি দিয়েছেন মরিয়ম।

দু’দিন আগেই পাকিস্তানের তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী ফাওয়াদ চৌধরী অভিযোগ তুলেছিলেন দেশকে বেচে দেওয়ার জন্য আস্থাভোটের আয়োজন করা হচ্ছে। আর এর পিছনে হাত রয়েছে প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফের। ঘটনাচক্রে সেই অভিযোগের পর পরই শনিবার নওয়াজের উপর এই হামলা হল।

রবিবার ইমরান খানের ভাগ্যপরীক্ষা। আস্থাভোটে তিনি জিতবেন, নাকি তাঁর জমানা শেষ হবে, তা নিয়েই জোর চর্চা চলছে। যদিও ইমরান খানের দাবি, আস্থাভোটে তিনি জিতছেন। পাশাপাশি, ইমরানের অভিযোগ, তাঁকে সরাতে এবং দেশকে বিক্রি করে দিতে বিরোধীরা বিদেশি শক্তির সঙ্গে হাত মিলিয়েছে। এমনকি আস্থাভোটের আগে তাঁর প্রাণনাশেরও চেষ্টা হতে পারে বলে শুক্রবার এক সভায় আশঙ্কা প্রকাশ করেছিলেন পাক প্রধানমন্ত্রী। ইমরান আরও বলেছিলেন, “যদি বিরোধী দলনেতা শাহবাজ শরিফের হাতে ক্ষমতা চলে যায়, তা হলে আমেরিকার দাসত্ব করবে পাকিস্তান।”

Advertisement

শনিবার নাগরিকদের উদ্দেশে ইমরান বলেন, ‘‘পাকিস্তান এখন সঙ্কটময় পরিস্থিতিতে দাঁড়িয়ে। এই যুদ্ধ দেশের ভবিষ্যতের যুদ্ধ। এখন আমাদের সামনে দু’টো রাস্তা রয়েছে। আমাদের স্থির করতে হবে, আমরা কি ধ্বংসের পথে যেতে চাই না কি গর্বের পথে? ভগবান আমাদের গর্বের পথ বাতলে দিয়েছেন। ওই পথই আমাদের জন্য ভাল। ওই পথেই দেশে বিপ্লব এসেছিল।’’

তবে রবিবারের আস্থাভোট তাঁর যে পূর্ণ আস্থা রয়েছে প্রশ্ন-উত্তরের এক অনুষ্ঠানে এ কথা জানিয়েছেন ইমরান। দেশের নাগরিকদের উদ্দেশে ফের তিনি বলেন, “উদ্বিগ্ন হবেন না। ক্যাপ্টেনের সব সময় একটা পরিকল্পনা থাকে। কিন্তু এখন আমার কাছে একাধিক পরিকল্পনা রয়েছে। ঈশ্ব যদি চান, তা হলে রবিবার আমরা জিতব। অ্যাসেম্বলিতে আমি ওদের হারাবই।”

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.