Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৬ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

১৫ মাস পর নদী থেকে উদ্ধার আইফোন, কী অবস্থায় ছিল শুনলে চমকে যাবেন!

মাইকেল বেনেট, একটি ইউটিউব চ্যানেল চালান, তিনি আবার সখের গুপ্তধন সন্ধানীও বটে।গত সপ্তহে মাইকেল ও তাঁর কয়েকজন সঙ্গী এডিসটো নদীতে ‘গুপ্তধন’ খুঁ

সংবাদ সংস্থা
কলম্বিয়া, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ০১ অক্টোবর ২০১৯ ১১:৪৪
জলের তলা থেকে উদ্ধার ফোন। ছবি: ইউটিউব থেকে নেওয়া।

জলের তলা থেকে উদ্ধার ফোন। ছবি: ইউটিউব থেকে নেওয়া।

হারিয়ে যাওয়া কোনও প্রিয়, দামি জিনিস খুঁজে পেলে কার না ভাল লাগে। আর যদি সেটি প্রিয় আইফোন হয় তবে তো কথাই নেই। নদীর তলা থেকে একটি আইফোন খুঁজে পেয়ে তার আসল মালিককে ফিরিয়ে দিলেন এক ইউটিউবার। এমনকি ফোনটি নাকি সচলও ছিল।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সাউথ ক্যারোলিনার এডিসটো নদীর কাছে সপরিবারে ঘুরতে গিয়েছিলেন এরিকা বেনেট। দিনটা ছিল ২০১৮ সালের ১৯ জুন। সেখানে নদীতে পড়ে যায় এরিকার ফোনটি। যাথাসাধ্য চেষ্টা করেও সেদিন আর ফোনটি খুঁজে পাননি তাঁরা।

মাইকেল বেনেট, একটি ইউটিউব চ্যানেল চালান, তিনি আবার সখের গুপ্তধন সন্ধানীও বটে।গত সপ্তহে মাইকেল ও তাঁর কয়েকজন সঙ্গী এডিসটো নদীতে ‘গুপ্তধন’ খুঁজতে যান।সেখানে সত্যিই তাঁরা গুপ্তধন পেয়ে যান। নদীর কাদার মধ্যে একটি দ়ড়ির মতো কিছু দেখে টান মারতেই উঠে আসে একটি ফোন।

Advertisement

আরও পড়ুন : ২৩ কোটি টাকার একটি মাছ, হাতে পেয়েও ছেড়ে দিলেন এক ব্যক্তি!

ফোনটি একটি শক্ত এয়ারটাইট প্যাকেটে মধ্যে ছিল। বাড়িতে এসে মাইকেল প্যাকেট থেকে বের করে, ফোনটিকেচার্জে বসিয়ে দেন। কিছুক্ষণ পর পাওয়ার বাটন চাপ দিতেই ফোনটি চালুও হয়ে যায়। কিন্তু পাসওয়ার্ড প্রোটেকটেড হওয়ায় ফোনটি অন হলেও অ্যাকসেস করা সম্ভব ছিল না। ফলে তার আসল মালিককে খুঁজে বের করা সম্ভব হচ্ছিল না।

আরও পড়ুন : দুই সরীসৃপের লড়াই! গেকোর মুখ থেকে সবুজ সাপকে বাঁচিয়ে দিলেন এক ব্যক্তি!

মাইকেল এবার বুদ্ধি করে ফোনটির সিমটি খুলে অন্য একটি ফোনে লাগান। সেখান থেকে তথ্য পেয়ে খুঁজে বের করেন আসল মালিককে। সেটাও সহজ কাজ ছিল না। যাই হোক, ফোনটির আসল মালিক এরিকা হারিয়ে যাওয়া ফোনের কথা শুনেই আপ্লুত হয়ে পড়েন।

এরিকা ও মাইকেল কথা বলে একটি জায়গায় দেখা করেন। এরিকার হাতে ফোনটি তুলে দেন মাইকেল। ফোন হাতে পেয়ে আবেগাপ্লুত হয়ে পড়েন এরিকা। বার বার ধন্যবাদ জানান মাইকেলকে। আর মাইকেলও তাঁর ইউটিউব চ্যানলের জন্য একটি ভাল স্টোরি পেয়ে যান। এই স্টোরি এখন সোশ্যাল মিডিয়ার পেজে পেজে ঘুরে বেড়াচ্ছে।

আরও পড়ুন

Advertisement