ঝিমিয়ে থাকা অর্থনীতিকে চাঙ্গা করার লক্ষ্যে সম্প্রতি কর্পোরেট কর কমিয়েছে কেন্দ্র। সেই সিদ্ধান্তকে সমর্থন জানাল আন্তর্জাতিক অর্থ ভাণ্ডার (আইএমএফ)। তাদের দাবি, এর ইতিবাচক প্রভাব পড়বে লগ্নিতে। তবে একই সঙ্গে সরকারের খরচ করার পথে এগোনোর সুযোগ সীমিত বলে সতর্কও করেছে তারা। বলেছে, অর্থনীতি আঁটোসাঁটো করা ও দীর্ঘ মেয়াদে আর্থিক স্থিতিশীলতা বজায় রাখার প্রয়োজনীয়তার কথা।

কেন্দ্রের কর আদায় প্রত্যাশার তুলনায় কম হচ্ছে। কিন্তু বাজারে চাহিদা বাড়াতে কর্পোরেট কর ছাড়ের মতো একের পর এক পদক্ষেপে খরচ বাড়ার উপক্রম হয়েছে। ফলে তৈরি হয়েছে রাজকোষ ঘাটতি বেলাগাম হওয়ার আশঙ্কা। সংশ্লিষ্ট মহলের মতে, ভারত সরকারের সামনে খরচ-খরচার সুযোগ সীমিত বলে আসলে সেই ঘাটতি নিয়েই সতর্ক করেছে আইএমএফ। 

সম্প্রতি চলতি অর্থবর্ষে এ দেশে বৃদ্ধির পূর্বাভাস ছেঁটে ৬.১ শতাংশ করেছে আইএমএফ। তাদের পরামর্শ, ভারতের ব্যাঙ্ক নয় এমন আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলির (এনবিএফসি) সমস্যাও গুরুত্ব দিয়ে বিচার করা উচিত। কারণ, এ ক্ষেত্রে কিছু সঙ্কট এখনও রয়ে গিয়েছে।