বিএসএনএল, এমটিএনএলে দ্রুত স্বেচ্ছাবসর প্রকল্প (ভিআরএস) কার্যকর করার নির্দেশ দিয়েছেন টেলিকমমন্ত্রী রবিশঙ্কর প্রসাদ। বলেছেন সময় বেঁধে সংস্থার সম্পদ বিক্রি করার কথাও। সংশ্লিষ্ট সূত্রের খবর, প্রতিযোগিতায় এগোতে রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থা দু’টিকে আরও বেশি করে ঝাঁপানোর নির্দেশও দেন মন্ত্রী।

এক সরকারি কর্তার দাবি, সম্প্রতি দুই সংস্থার পর্ষদের সঙ্গে বৈঠকে প্রসাদ বলেছেন যে, সংস্থা ‘মোটা অঙ্কের ত্রাণ’ পেয়েছে। ফলে প্রতিযোগিতার বাজারে দখল বাড়ানোর লক্ষ্যে আরও বেশি করে এগিয়ে আসতে হবে তাদের। গত মাসে সংস্থা দু’টির পুনরুজ্জীবনে ৬৯,০০০ কোটি টাকার ত্রাণ প্রকল্পে সায় দিয়েছে মন্ত্রিসভা।

সূত্রের খবর, সব কিছু ঠিকঠাক চললে এই সপ্তাহেই বিএসএনএলের স্বেচ্ছাবসর প্রকল্প আসার কথা। সেই প্রক্রিয়া যাতে সুষ্ঠু ভাবে চলে, সে জন্য তিনি নিজে বিষয়টি তদারকি করবেন বলে জানিয়েছেন প্রসাদ। সংস্থাকে বলা হয়েছে, কর্মী-অফিসারদের সঙ্গে সরাসরি আলোচনা করার কথা।

বিএসএনএল, এমটিএনএলের উদ্বৃত্ত জমি বিক্রির বিষয়টিও দ্রুত সারার নির্দেশ দিয়েছেন প্রসাদ। প্রসঙ্গত, ইতিমধ্যেই পশ্চিমবঙ্গে দু’টি-সহ দেশ জুড়ে প্রথম পর্যায়ে ১৪টি উদ্বৃত্ত জমি বিক্রির জন্য চিহ্নিত করেছে বিএসএনএল। কাজ শুরু করেছে স্বেচ্ছাবসর প্রকল্প দ্রুত কার্যকরেরও।