ব্যস্ত দুনিয়ায় মানুষ ছুটে চলেছে অহরহ। রেঁধে খাওয়ার সময় কোথায়! তাই বাজার দখল করেছে জোম্যাটো, সুইগি,উবর-ইটস্‌-এর মত অনলাইন ফুড ডেলিভারি অ্যাপ ।

কিন্তু রাস্তাঘাটে যানজট বা হঠাৎ ডাকা ধর্মঘট যখন এই সমস্ত ফুড-ডেলিভারি অ্যাপগুলির দ্রুত পরিষেবায় চ্যালেঞ্জ হয়ে ওঠে, তখন আপনারও খাবার পেতে অনেকটাই দেরি হয়ে যায়।

ক্রেতাদের এই সমস্ত অসুবিধার কথা মাথায় রেখেই অনলাইন ফুড সার্ভিস অ্যাপ জোম্যাটো ভারতে প্রথমবার নিয়ে আসছে ড্রোননির্ভর খাবার সরবরাহ পরিষেবা। রিমোট চালিত এই হাইব্রিড ড্রোনটিতে থাকছে উন্নতমানের ক্যামেরা এবং জিপিএস যুক্ত অত্যাধুনিক প্রযুক্তি যা ১০ মিনিটে পৌঁছতে পারবে ৫ কিমি পথ। শুধু তাই নয়, একবারে পাঁচ কেজি খাবার বয়ে নেওয়ার ক্ষমতা সম্পন্ন এই যন্ত্রটির গতিবেগ ঘণ্টায় ৮০কিমি।

ওজনে হালকা এই ড্রোনটিতে এ ছাড়াও রয়েছে ইনবিল্ড সেন্সর, অনবোর্ড কম্পিউটার এবং হেলিকপ্টারের মতো উল্লম্ব ভাবে অবতরণ(ভার্টিকালি ল্যান্ড)করার সুবিধা। নির্ধারিত রেস্তরাঁ থেকে খাবার নিয়ে ক্রেতার কাছে কম সময়ে পৌঁছে দেওয়াই একমাত্র লক্ষ্য এই যন্ত্রটির।

গত বছর ডিসেম্বরে লখনউ-এর ড্রোন প্রস্তুতকারক সংস্থা 'টেক-ঈগল' কিনে নেয় জোম্যাটো।তার পর থেকেই তাঁদের এই নতুন ভাবনার যাত্রা শুরু।

'গত সপ্তাহে এর পরীক্ষামূলক পরিষেবা চালু হয়েছে এবং প্রতিকূল পরিস্থিতিতেও যাতে এই পরিষেবা আমরা চালাতে পারি সে দিকেও নজর রাখা হচ্ছে', জানিয়েছেন জোম্যাটো কর্তৃপক্ষ। যদিও ঠিক কোন জায়গায় এই 'ট্রায়াল' চালানো হয়েছে সে বিষয়ে খোলসা করে কিছু জানাননি তাঁরা।

এই পরিষেবা চালু হলে তা নেটিজেনদের কাছে কতটা গ্রহণযোগ্য হবে সেটাই এখন দেখার বিষয়।

আরও পড়ুন:নস্টালজিয়া ফিরিয়ে দিতে আসছে 'ফুজি'-র 'ফটোগ্রাফিক ফিল্ম'