মদ্যপানের প্রতিবাদ করায় হস্টেল আবাসিকদের মারধর এবং হস্টেলের কয়েকটি ঘরে ভাঙচুরের অভিযোগ উঠল যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ে। এর প্রতিবাদে মঙ্গলবার সকাল থেকে দোষীদের শাস্তির দাবিতে যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্তৃপক্ষের কাছে বিক্ষোভ দেখান হস্টেল আবাসিকরা। ডিন অফ স্টুডেন্টসের কাছে লিখিত অভিযোগ জমা দিয়েছেন তাঁরা।

আবাসিকদের অভিযোগ, গত কয়েকবছর ধরেই যাদবপুরের রিসার্চ স্কলার হস্টেলে বহিরাগতদের যাতায়াত রয়েছে। হস্টেলে কয়েকজন আবাসিকের ঘরে তাঁরা নিয়মিত মদ্যপান করেন এবং মাদক সেবনের একটি চক্রও সেখানে চলে। এর আগেও একাধিকবার এই নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের কাছে অভিযোগ জানিয়েছেন তাঁরা। কিন্তু কর্তৃপক্ষ তাতে আমল দেননি। সোমবার রাতে যাদবপুরের রিসার্চ স্কলার হস্টেলের কয়েকজন আবাসিক এই ঘটনার প্রতিবাদ করাতেই গন্ডগোল বাধে।

আবাসিক ছাত্রদের অভিযোগ, সোমবার রাতে মদ্যপানের প্রতিবাদ করায় বহিরাগতরা ঘর থেকে বেরিয়ে আবাসিক ছাত্রদেরই মারধর করতে শুরু করেন। ওই হস্টেলের কয়েকটি ঘরেও তাঁরা ভাঙচুর চালান বলে অভিযোগ।

আরও পড়ুন:

ফের কাজে ডাক্তারেরা, সঙ্কট কাটিয়ে সকাল থেকেই স্বাভাবিক হল আউটডোর

মানুষের চাপেই গোঁ ছাড়লেন ‘বিপ্লবীরা’

এই ঘটনার প্রতিবাদে মঙ্গলবার সকালে বিক্ষোভ দেখান রিসার্চ স্কলার হস্টেলের আবাসিকরা। তাঁদের অভিযোগ, ২৪ ঘণ্টা নিরাপত্তারক্ষী থাকা সত্ত্বেও কী ভাবে বহিরাগতরা ভিতরে ঢুকছেন? যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের তরফে জানানো হয়েছে, অভিযোগ মিলেছে। কোন কোন আবাসিকের সঙ্গে বহিরাগতরা ভিতরে ঢুকছেন তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।