নেতাজির জন্মদিন পালনে সকাল সকাল স্কুলে পৌঁছে গিয়েছিলেন ছাত্র এবং শিক্ষিকারা। কিন্তু স্কুলে পৌঁছে মেন গেটের তালা ভাঙা দেখে আঁতকে ওঠেন শিক্ষিকারা। ভিতরে ঢুকে দেখেন গোটা স্কুল লণ্ডভণ্ড। ঘটনাটি ঘটেছে আনন্দপুর থানা এলাকার উত্তর পঞ্চান্ন গ্রামের বি আর আম্বেদকর অবৈতনিক প্রাথমিক বিদ্যালয়ে।

বিদ্যালয়ের মোট ছাত্রছাত্রী সংখ্যা প্রায় ১৫০। ২৩ জানুয়ারি সকাল সকাল নেতাজি জন্মদিবস পালন করতে স্কুলে ঢুকে এমন পরিস্থিতির সম্মুখীন হতে হয় শিক্ষিকাদের। বিদ্যালয়ের মেন গেটের তালা ভাঙা দেখেই সন্দেহ হয়েছিল তাঁদের। ভিতরে যেতেই তাঁদের নজরে আসে টিচার্স রুমের হ্যাচবোর্ড ভাঙা। শিক্ষিকাদের অভিযোগ, ওই টিচার্স রুমের লকার আর আলমারিতে প্রায় ৫৫ হাজার টাকার মতো ছিল। ওই টাকার মধ্যে ছিল ছাত্রছাত্রীদের ভর্তির টাকা বাবদ ৪৫ হাজার টাকা এবং সরকারের অনুদান ১০ হাজার টাকা। সমস্ত টাকা উধাও বলে পুলিশকে জানিয়েছেন শিক্ষিকারা। শুধু তাই নয়, সমস্ত দরকারি নথিপত্রও লণ্ডভণ্ড অবস্থায় ছিল বলে অভিযোগ।

বিদ্যালয়ের টিচার ইনচার্জ সোনালী পালের কথায়, ‘‘গত কাল সাড়ে চারটের সময় আমরা স্কুল থেকে বেরিয়েছি। তখনও অবধি সব কিছু ঠিকঠাক ছিল। সকালে এসে এমন অবস্থা দেখা মাত্রই আনন্দপুর থানায় খবর দিই। পুলিশ এসে ভিডিয়ো করে নিয়ে গিয়েছে। আমরা দুপুরে লিখিত অভিযোগ দায়ের করব।’’

আরও পড়ুন: ‘মারের’ প্রতিবাদে সার দিয়ে বন্ধ চাকা

কিছু ক্ষণের মধ্যেই আনন্দপুর থানার আধিকারিকরা ঘটনাস্থলে যান। তদন্তকারীদের প্রাথমিক অনুমান স্থানীয় দুষ্কৃতীরাই এই ঘটনার সঙ্গে যুক্ত। এক তদন্তকারীর কথায়, ‘‘দুষ্কৃতীদের কাছে খবর ছিল যে, ভর্তির ওই মোটা অঙ্কের টাকা লকারে আছে। আর সেই কারণেই আমাদের অনুমান এলাকার কেউ ঘটনার সঙ্গে জড়িত।’’

আরও পড়ুন: দমদমে দমকলের কেন্দ্রই আস্ত জতুগৃহ

(কলকাতার ঘটনা এবং দুর্ঘটনা, কলকাতার ক্রাইম, কলকাতার প্রেম - শহরের সব ধরনের সেরা খবর পেতে চোখ রাখুন আমাদেরকলকাতাবিভাগে।)