Advertisement
০২ ফেব্রুয়ারি ২০২৩
রবিবার বিজেপি-র ইস্তাহার প্রকাশ করলেন অমিত শাহ। নাম দেওয়া হয়েছে ‘সোনার বাংলা সঙ্কল্প পত্র’। মোট ১৩টি পর্বে ভাগ করা হয়েছে পদ্মের ইস্তাহার।
BJP

Bengal Polls: ১৮ বছর হলেই ২ লাখ টাকা মেয়েদের, পদ্মের ইস্তাহারে ‘কন্যাশ্রী’-কে টেক্কা দেওয়ার প্রতিশ্রুতি

বিজেপি-র ইস্তাহারে এটা স্পষ্ট যে মমতার পরীক্ষিত পথেই নীলবাড়ির লড়াইয়ে হাঁটতে চাইছে বিজেপি।

ছবি: শাটারস্টক।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ২১ মার্চ ২০২১ ২২:৪২
Share: Save:

ক্ষমতায় এলে বিজেপি মেয়েদের লেখাপড়া-সহ সব বিষয়ে গুরুত্ব দেবে। বিজেপি রাজ্যে ক্ষমতায় এলে কোনও মেয়ের ১৮ বছর বয়স হলেই তাঁকে এককালীন ২ লাখ টাকা দেওয়া হবে। দলের বিধানসভা নির্বাচনের ইস্তাহারে এমনই প্রতিশ্রুতি দিল বিজেপি। রবিবার সন্ধ্যায় যে ইস্তাহার অমিত শাহ প্রকাশ করলেন, তার নাম দেওয়া হয়েছে ‘সোনার বাংলা সঙ্কল্প পত্র’।

Advertisement

মোট ১৩টি পর্বে ভাগ করা হয়েছে ইস্তাহার। মহিলা, কৃষক, স্বাস্থ্য, যুব, প্রশাসন, আর্থিক উন্নয়ন, পরিকাঠামো, সংস্কৃতি, পর্যটন, সবার বিকাশ, আঞ্চলিক উন্নয়ন, কলকাতা ও পরিবেশ রক্ষার বিষয়ে আলাদা আলাদা প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয়েছে ওই ইস্তাহারে।

এর মধ্যে মহিলাদের উন্নয়নের বিষয়ে বিশেষ নজর থাকছে। এখন রাজ্য সরকার ‘কন্যাশ্রী’ প্রকল্পের মাধ্যমে মেয়েদের লেখাপড়ার জন্য বছর বছর টাকা দেওয়ার পাশাপাশি ১৮ বছর বয়স হলে এককালীন ২৫ হাজার টাকা দেওয়া হয়। বিজেপি-র প্রতিশ্রুতি, ক্ষমতায় এলে পদ্ম-সরকার ১৮ বছর বয়স হলেই মেয়েদের ২ লাখ টাকা দেবে। এই প্রকল্পের নাম দেওয়া হয়েছে ‘বালিকা আলো’। বলা হয়েছে স্কুল ছাত্রীরা ষষ্ঠ শ্রেণিতে উঠলেই বছরে ৩ হাজার, নবম শ্রেণিতে উঠলে ৫ হাজার এবং একাদশ শ্রেণিতে উঠলে ৭ হাজার টাকা করে পাবে।

২০১১ সালে রাজ্যে ক্ষমতায় এসেই মহিলাদের জন্য ‘কন্যাশ্রী, ‘রূপশ্রী’-সহ নানা প্রকল্প ঘোষণা করেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তার সাফল্যও দাবি করে তৃণমূল। সেই সাফল্যের ডিভিডেন্ড তৃণমূল ২০১৬-র বিধানসভা নির্বাচনেও বিজেপি পেয়েছিল বলেই মনে করা হয়। বিজেপি-র ইস্তাহারে এটা স্পষ্ট যে মমতার পরীক্ষিত পথেই নীলবাড়ির লড়াইয়ে হাঁটতে চাইছে বিজেপি।

Advertisement

গ্রাফিক: শৌভিক দেবনাথ।

একই সঙ্গে মহিলাদের জন্য সরকারি চাকরিতে ৩৩ শতাংশ সংরক্ষণের কথা বলা হবে। এ ছাড়াও কেজি থেকে এমএ পর্যন্ত মেয়েদের লেখাপড়া সব স্তরে হবে বিনামূল্যে। রাজ্যে মেয়েদের পরিবহণও একেবারে বিনামূল্যে হবে বলে প্রতিশ্রুতি বিজেপি-র। তফসিলি ও অন্যান্য অনগ্রসর শ্রেণি ও আর্থিক দিক থেকে পিছিয়ে থাকা পরিবারে কন্যা সন্তান জন্ম নিলেই ৫০ হাজার টাকার বন্ড দেবে রাজ্য সরকার। এই শ্রেণির পরিবারের মহিলাদের জন্য ১ লাখ টাকার ফিক্সড ডিপোজিট দেওয়ার প্রতিশ্রুতি প্রকল্পের নাম দেওয়া হয়েছে— ‘ঘরে লক্ষ্মী যোজনা’। ১৮ বছর বয়সের পরে বিবাহ হলেই এই সুবিধা মিলবে।

মহিলাদের খুশি করতে আরও অনেক প্রতিশ্রুতি রয়েছে বিজেপির ইস্তাহারে। বলা হয়েছে রাজ্য পুলিশে ৯টি মহিলা ব্যাটেলিয়ন তৈরি হবে। একই সঙ্গে রাজ্য রিজার্ভ পুলিশ বাহিনীতে ৩টি মহিলা ব্যাটিলিয়ন তৈরি হবে। প্রতিটি থানায় মহিলাদের জন্য আলাদা হেল্প ডেস্ক হবে। দায়িত্বে থাকবেন মহিলারাই। একই সঙ্গে বিজেপি-র প্রতিশ্রুতি ‘আত্মনির্ভর মহিলা’ প্রকল্পের আওতায় মহিলা স্বনির্ভর গোষ্ঠীর জন্য ২ হাজার কোটি টাকা বরাদ্দ হবে। মহিলাদের এককালীন ২০ হাজার টাকা করে ঋণও দেবে সরকার। রাজ্যে বিধবা ভাতা মাসিক ১ হাজার থেকে বাড়িতে ৩ হাজার টাকা করা হবে। প্রসূতিদের এখন রাজ্য সরকার ৫ হাজার টাকা দেয়। সেটা বাড়িয়ে ৯ হাজার টাকা করা হবে। রাজ্যের সর্বত্র স্কুল, কলেজে, বাজারে ৫০ হাজার সেনেটারি ন্যাপকিনের ভেন্ডিং মেশিন বসানো হবে। ১ টাকাতেই পাওয়া যাবে সেনেটারি ন্যাপকিন।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.