Advertisement
২৮ মে ২০২৪
West Bengal Assembly Election 2021

Bengal Polls 2021: ‘টাকা নিয়ে বসে আছি, টিকা দিচ্ছে না কেন্দ্র’, মোদী সরকারকে দুষলেন মমতা

নির্বাচনী সভা থেকে কোভিড টিকা সরবরাহ নিয়ে কেন্দ্রের গাফিলতির কথা তুলে ধরলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। নিজস্ব চিত্র।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ১৪ এপ্রিল ২০২১ ০০:৩৮
Share: Save:

সারা দেশের মতো রাজ্যেও লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। সারা দেশের একাধিক রাজ্যে দেখা দিচ্ছে টিকার সংকট। রাজ্যে কোভিডের টিকাকরণ নিয়ে এ বার কেন্দ্রীয় সরকারকে দুষলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বারাসত ও বিধাননগরে মঙ্গলবারের নির্বাচনী সভা থেকে কোভিড টিকা সরবরাহ নিয়ে কেন্দ্রের গাফিলতির কথা তুলে ধরলেন তিনি। বললেন, ‘‘টাকা নিয়ে বসে আছি, কিন্তু কেন্দ্রীয় সরকার টিকা দিচ্ছে না।’’ তার মতে, রাজ্য সরকার বিনামূল্যে টিকা দিতে চাইলেও কেন্দ্রীয় সরকার টিকা পৌঁছে দিতে চাইছে না।

মমতা বলেন, ‘‘আপনারা জানেন, আমি ফেব্রুয়ারি মাসে মোদীকে চিঠি লিখেছিলাম। বলেছিলাম, সাধারণ মানুষকে বিনামূল্যে টিকা দেব, আপনারা রাজ্যে টিকা পৌঁছে দিন। কিন্তু দিল না।’’ করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে রাজ্যে আক্রান্তের সংখ্যা সব রেকর্ড ভেঙে দিয়েছে। মমতার যুক্তি, ‘‘যখন করোনার প্রকোপ কমে এসেছিল, তখন সবাইকে টিকা পৌঁছে দিতে পারলে সংক্রমণ অনেকটাই কমত। কিন্তু তা দেওয়া হয়নি। তাই দেশে নতুন করে করোনার প্রকোপ শুরু হওয়ার পিছনে দায়ী নরেন্দ্র মোদীর সরকার ও তার স্বাস্থ্য মন্ত্রক।’’ গুজরাতের টিকাকরণ প্রসঙ্গও এ দিন টেনে আনেন মমতা। বলেন, ‘‘আমি সংবাদমাধ্যমে দেখেছি, গুজরাতে বিজেপি-র দলীয় কার্যালয় থেকে টিকা দেওয়া হচ্ছে। বিজেপি টিকার কী বোঝে? আমাদের এখানে এ সব হয় না। সরকারি নিয়ম মেনে চলতে হয়।’’

এর পরেই কেন্দ্রের বিরুদ্ধে বঞ্চনার অভিযোগ করেন মমতা। বলেন, ‘‘আমি টাকা নিয়ে বসে আছি, দিল্লি টিকা দিচ্ছে না। তাই আমি যতটুকু জোগাড় করতে পেরেছি, বুধবার থেকে কলকাতা ও পুর শহরগুলিতে বিনা পয়সায় টিকা সাধারণ মানুষের কাছে পৌঁছে দেওয়ার চেষ্টা করব। যার যার প্রয়োজন, যেখানে যেখানে ওয়ার্ড অফিস আছে, সেখান থেকে টিকা পাবেন। শুধু নির্বাচনের দিন ৪৮ ঘণ্টা বন্ধ থাকবে, ইলেকশন শেষ হলে তার পর আবারও চালু হবে।’’

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE