Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১ ই-পেপার

মেদিনীপুরে বামেদের দেওয়াল লিখনে ‘টুম্পা সোনা’র পাশাপাশি ‘বেলা বোস’ও

নিজস্ব সংবাদদাতা
মেদিনীপুর ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ১৮:১৪
চন্দ্রকোনায় সিপিএমের দেওয়াল লিখন।

চন্দ্রকোনায় সিপিএমের দেওয়াল লিখন।
নিজস্ব চিত্র।

নির্বাচনের দিন ঘোষণার আগেই শহরের দেওয়াল জুড়ে ছড়া, গানের লাইন সহযোগে ব্যঙ্গচিত্র। পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার বিভিন্ন এলাকা জুড়েই দেখা যাচ্ছে এই ছবি। সৌজন্য, যুযুধান রাজনৈতিক দলগুলি। পরস্পরকে কটাক্ষ করে তাদের ছড়া-ছবি চোখ টানছে আমজনতার।

দেওয়াল লিখনে ঠাঁই পেয়েছে ‘টুম্পা সোনা’ রাজনৈতিক প্যারোডির লাইন আর তার সঙ্গে সামঞ্জস্যপূর্ণ ব্যঙ্গচিত্র। এমনকি, ব্রিগেড সভার আগে অঞ্জন দত্তের নব্বই দশকের গানের অনুকরণে বামেদের নতুন ছড়া— ‘হ্যালো বেলা, বিয়ে করে নাও দিদি-মোদির যুগে চাকরি নেই’ লেখা হয়েছে কেন্দ্র-রাজ্যকে খোঁচা দিয়ে। তৃণমূলের ‘খেলা হবে’র সঙ্গে পাল্লা দিয়ে দেওয়ালে দেওয়ালে ‘টুম্পা সোনা’র ছবি ফুটিয়ে তুলছেন বাম কর্মী-সমর্থকেরা।

চন্দ্রকোনা পুরসভার পৌরসভার ১ নং ওয়ার্ড ইলামবাজার এলাকায় সিপিআইএমের দেওয়াল লিখনে কেন্দ্র ও রাজ্য সরকারকে কটাক্ষ করে লেখা হয়েছে, ‘হ্যালো বেলা, বিয়ে করে নাও দিদি-মোদির যুগে চাকরি নেই’। অন্যদিকে, পুরসভার ৪ নম্বর ওয়ার্ড খিড়কিবাজার এলাকায় দেখা গিয়েছে বামেদের ‘টুম্পা সোনা’ প্যারোডি আর ব্যঙ্গচিত্র। তৃণমূলের ‘খেলা হবে’ স্লোগানকে কটাক্ষ করেও দেওয়াল লিখেছেন বাম কর্মী-সমর্থকেরা।

Advertisement

দলবদলকে কটাক্ষ করে দেওয়ালে লেখা হয়েছে ‘ফুল বদলে লাভ কী, মুখ তো সব একই’। ২৮ ফেব্রুয়ারির ব্রিগেড সমাবেশের আগে নেটমাধ্যমে বামপন্থী ছাত্র-যুবদের প্রচারে দেখা গিয়েছে সাম্প্রতিককালে জনপ্রিয় বাংলা আধুনিক গান ‘টুম্পা সোনা’র রাজনৈতিক প্যারডি এবং ব্যঙ্গচিত্র নির্ভর ভিডিয়ো-ক্লিপ । পশ্চিম মেদিনীপুর জেলা সিপিএমের নেতাদের দাবি, সময়ের সঙ্গে তাল মিলিয়ে মানুষের মন বুঝে সে রকম পন্থা অবলম্বন করা হচ্ছে ভোট প্রচারে। শিয়রে বিধানসভা ভোট। তার আগে গান, ছড়া, ব্যাঙ্গচিত্র তুলে ধরে নির্বাচনী প্রচার গুরুত্ব পাবে বলে ইঙ্গিত দিয়েছেন তাঁরা।

বামেদের ‘টুম্পা সোনা’ বা ‘বেলা বোস’ প্যারোডির দেওয়াল লিখনকে গুরুত্ব দিতে নারাজ তৃণমূল। চন্দ্রকোনা শহর তৃণমূলের এক নেতার কথায়, খেলা হবে উন্নয়ন নিয়ে। তা নিয়েই বাড়ি বাড়ি রিপোর্ট কার্ড তুলে ধরে প্রচার চলছে। কিন্তু বামেরা অনেকদিন মুখ লুকিয়ে ছিল। মানুষের থেকে বিচ্ছিন্ন ছিল এখন তারা চটকদারি গানে দেওয়াল লিখে টিকে থাকার চেষ্টা চালাচ্ছে।’’

বামেদের এমন ব্যঙ্গচিত্র-প্রচারকে খোঁচা দিয়েছে বিজেপি-ও। জেলা বিজেপি-র এক নেতার মন্তব্য, ‘‘বামেদের এই সংস্কৃতি ছিল না। কিন্তু শাসকদলের সঙ্গে মিশে এখন তারা (তৃণমূল এবং বাম) একে অপরকে অনুসরণ করে চলেছে। বিজেপি ‘সবকা সাথ সবকা বিকাশ’ স্লোগান সামনে রেখেই পশ্চিমবঙ্গের উন্নয়নের কথা বলে বিদানসভা ভোটের লড়বে। সেই সঙ্গে থাকবে রাজ্যে আইনের শাসন ফেরানোর প্রতিশ্রুতি দিয়ে ‘আর নয় অন্যায়’ স্লোগান সামনে রেখে প্রচার।

আরও পড়ুন

More from My Kolkata
Advertisement