Advertisement
০৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৩
Kate Hudson

তিন স্বামীর সঙ্গে তিন সন্তানকে বড় করছেন! সুখী পরিবারের চাবি অভিনেত্রীর হাতেই

সম্পর্কের মধ্যে ভালবাসাই খুঁজেছেন। কিন্তু তাঁর কাছে ভালবাসার সংজ্ঞা আলাদা। তিন ছেলেমেয়েকে নিয়ে তিন স্বামীর সঙ্গে মজবুত বন্ধনে অভিনেত্রী।

কেট জানালেন, প্রেমই আসল বন্ধন। সব সময় ভালবাসা খুঁজেছেন যেমন, ভালবাসায় ভরিয়েও দিতে চেয়েছেন।

কেট জানালেন, প্রেমই আসল বন্ধন। সব সময় ভালবাসা খুঁজেছেন যেমন, ভালবাসায় ভরিয়েও দিতে চেয়েছেন। ফাইল চিত্র।

সংবাদ সংস্থা
ক্যালিফোর্নিয়া শেষ আপডেট: ০৫ ডিসেম্বর ২০২২ ১০:৩০
Share: Save:

তিন স্বামীর সঙ্গে তিন সন্তান। সুখে আছেন হলিউডের অভিনেত্রী কেট হাডসন। অনেক সদস্য হলেও তিনি একটি বড় যৌথ পরিবারের মতোই দেখেন বিষয়টিকে। যেন একই কর্মযজ্ঞে সবাই অংশ নিয়েছেন। যে ভরাট ছবিটি তাঁকে নিশ্চিন্ত করছে ইদানীং। ছেলেমেয়েরা বড় হচ্ছে স্বামীদের সাহচর্যে, আর চিন্তা কী!

Advertisement

সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে কেট জানালেন, প্রেমই আসল বন্ধন। সব সময় ভালবাসা খুঁজেছেন যেমন, ভালবাসায় ভরিয়েও দিতে চেয়েছেন। আর প্রতিটি সম্পর্কের ক্ষেত্রেই কাজ করেছে সেই রসায়ন। ‘হাউ টু লুজ় আ গাই ইন টেন ডেজ়’-এর অভিনেত্রী বললেন, “বাইরে থেকে দেখলে অস্বাভাবিক ঠেকতে পারে, কিন্তু আমরা দারুণ আছি। তিন সন্তান এবং তাদের তিন জন আলাদা বাবাকে নিয়ে যে পরিবার (ইউনিট) আমি গড়ে তুলেছি, তার ভিত খুব মজবুত। এতে আমাদের কোনও অসুবিধা হচ্ছে না।”

কেটের বড় ছেলে রাইডার ১৮ বছরে পা দিলেন। প্রাক্তন স্বামী ক্রিস রবিনসনের সঙ্গে প্রথম সন্তানের জন্ম দিয়েছিলেন অভিনেত্রী। দ্বিতীয় সন্তান বিংহমের বয়স ১১ বছর। তার বাবা কেটের দ্বিতীয় প্রাক্তন স্বামী ম্যাট বেলামি। আর সর্বকনিষ্ঠ সন্তান কন্যা। ৪ বছরের রানি রোজ়ের জন্ম কেটের বর্তমান স্বামী ড্যানি ফুজিকাওয়ার সঙ্গেই।

তিন সন্তানের মধ্যে বয়সের পার্থক্য নিয়ে কথা বলার সময় কেট জানালেন, তিনি এখন বেশি করে নিজের মাতৃত্ব উপভোগ করছেন। প্রথম সন্তান রাইডারের জন্মের সময় তাঁরও বয়স কম ছিল। কেটের দাবি, রাইডারের সঙ্গে বেড়ে উঠেছিলেন তিনিও। তার পর নারী হিসাবে নিজেকে আবিষ্কার করেন। অনেক পথ পেরিয়ে এখন তিনি জীবনের অন্য পর্যায়ে। তাই মাতৃত্ব উপভোগ করতে পারছেন ভরপুর।

Advertisement

কেটের দাবি, ভালবাসাকে নানা দিক দিয়ে ঘুরিয়ে-ফিরিয়ে উসুল করেছেন তিনি। গতানুগতিক প্রেম কিংবা ভালবাসার ধারণায় তিনি আগ্রহী নন। জীবনকে নিজের মতো করে সাজিয়েছেন। বললেন, “আমার লক্ষ্য ভালবাসা পাওয়া এবং দেওয়া।”

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.