Advertisement
২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২
Jhulan Purnima

Jhulanjatra Music Festival in Kolkata: ঝুলনযাত্রা উপলক্ষে শাস্ত্রীয় রাগসঙ্গীতের সমাহার কলকাতায়

৮ থেকে ১২ অগস্ট সন্ধ্যা সাতটায় বৌবাজার এলাকায় ঝুলনবাড়িতে আয়োজিত হতে চলেছে শাস্ত্রীয় সংগীতের অনুষ্ঠান ‘ঝুলনযাত্রা সঙ্গীত উৎসব’।

শাস্ত্রীয় সঙ্গীতের রাগে ভরে উঠবে কলকাতার ঝুলনবাড়ি।

শাস্ত্রীয় সঙ্গীতের রাগে ভরে উঠবে কলকাতার ঝুলনবাড়ি। ছবি: সংগৃহীত

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ০৮ অগস্ট ২০২২ ১৬:১৭
Share: Save:

ঝুলন পূর্ণিমা মানেই রাধা-কৃষ্ণের প্রেমলীলার উদ্‌যাপন, ঝুলন পূর্ণিমা মানেই কৃষ্ণসখীদের নাচ-গানে মেতে ওঠার দিন। এই ঝুলনযাত্রা উপলক্ষে কলকাতা শহরের বুকে পাঁচ দিন ধরে আয়োজিত হতে চলেছে শাস্ত্রীয় সঙ্গীতের অনুষ্ঠান ‘ঝুলনযাত্রা সঙ্গীত উৎসব’। বৌবাজার এলাকায় রামকিঙ্কর অধিকারীর ঝুলনবাড়িতে এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। ৮ থেকে ১২ অগস্ট পর্যন্ত সন্ধ্যা সাতটা নাগাদ শাস্ত্রীয় সঙ্গীতের রাগে ভরে উঠবে কলকাতার ঝুলনবাড়ি। এই অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকবেন বিশিষ্ট গুণিজনেরা।৮ অগস্ট অর্থাৎ সোমবার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকবেন সঙ্গীতশিল্পী সিদ্ধার্থ পাল। সঙ্গে ধ্রুপদে থাকবেন সুদীপ পাল, পাখাওয়াজে স্বরূপ ঘোষাল ও হারমোনিয়ামে শ্রী প্রদীপ পালিত। অনুষ্ঠানের দ্বিতীয় দিন সঙ্গীতশিল্পী সুপ্রিয় দত্তের সঙ্গে উপস্থিত থাকবেন তবলাবাদক বিপ্লব ভট্টাচার্য ও হারমোনিয়ামে প্রদীপ পালিত। অনুষ্ঠানের দ্বিতীয় পর্বে একক হারমোনিয়াম পরিবেশন করবেন রূপশ্রী ভট্টাচার্য। তাঁর সঙ্গে তবলায় থাকবেন অশোক মুখোপাধ্যায়।

বুধবার অর্থাৎ ১০ অগস্ট মঞ্চে উপস্থিত থাকবেন কণ্ঠশিল্পী তেজস্বিনী ভরনেকর। তাঁর সঙ্গে তবলায় থাকবেন সুজিত সাহা ও হারমোনিয়ামে প্রদীপ পালিত। পরের শিল্পী সরোদবাদক দীপ্তনীল ভট্টাচার্যের সঙ্গে মঞ্চ ভাগ করে নেবেন তবলাবাদক সুজিত সাহা। অনুষ্ঠানের চতুর্থ দিন অর্থাৎ বৃহস্পতিবার সেতারবাদক কল্যাণজিৎ দাসের সঙ্গে তবলায় থাকছেন প্রয়াত পণ্ডিত শুভঙ্কর বন্দ্যোপাধ্যায়ের পুত্র আর্চিক বন্দ্যোপাধ্যায়। অনুষ্ঠানের শেষ দিন ১২ অগস্ট মঞ্চে সঙ্গীত পরিবেশন করবেন সন্দীপ ভট্টাচার্য। তাঁর সঙ্গে হারমোনিয়ামে থাকবেন জ্যোতি গোহো ও তবলাবাদক শ্রী অশোক মুখোপাধ্যায়।অনুষ্ঠান নিয়ে সুপ্রিয় দত্ত বলেন, ‘‘ঝুলনযাত্রা উপলক্ষে এই অনুষ্ঠানের আয়োজনের রীতি বহু পুরনো। ১৫০-২০০ বছর ধরে ব‌ংশপরম্পরায় ঝুলনবাড়িতে এই অনুষ্ঠান হয়ে আসছে। এই অনুষ্ঠানের একটি কালমাহাত্ম্য রয়েছে। কলকাতায় শাস্ত্রীয় সঙ্গীতের এমন আসর খুব কম দেখা যায়।’’ তিনি আরও জানান, এটি সম্পূর্ণ রূপে রাগসঙ্গীতের আসর। তিনি নিজে কৃষ্ণ বা ভগবানের উদ্দেশে গান সমর্পণ করার চেষ্টা করবেন বলেও জানিয়েছেন।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.