টিকটক নিয়ে বিতর্কের যেন অন্ত নেই। একটা অ্যাপকে ঘিরেও যে দানা বাঁধতে পারে এত সমালোচনা, তা টিকটক না থাকলে বোধহয় জানাই যেত না। নিন্দুকরা বলেন, টিকটক নাকি সময়ের অপচয়। কাজকর্ম না থাকলেই তা করা যায়। তবে টিকটকাররা থুরি টিকটক সেলিব্রিটিরা কিন্তু এ সব কটাক্ষের ধার ধারেন না। সব নিন্দা-সমালোচনাকে হাওয়ায় উড়িয়ে তাঁরা কিন্তু বহাল তবিয়তে মেতে রয়েছেন টিকটক ‘সাধনা’য়। আর এই টিকটকের সুবাদেই সন্ধান মিলেছে এমন কয়েক জনের, যাঁদের দেখে প্রথম দর্শনে আপনি আপনার প্রিয় কোনও তারকা ভেবে ভুল করতেই পারেন। দেখে নিন এমনই কয়েকজন টিকটক সেলেবকে—

পিঙ্কি সাহা

এই বঙ্গ তনয়ার সঙ্গে প্রচুর মিল রয়েছে আরেক বঙ্গ তনয়ার। পিঙ্কিকে দেখে মনে হতেই পারে নব্বইয়ের দশকের কাজলকে দেখছেন নতুন করে। কখনও ছোট চুলে তিনি ‘কুছ কুছ হোতা হ্যায়’-এর প্রাণবন্ত অঞ্জলি হয়ে নস্টালজিয়া উস্কে দিচ্ছেন, তো আবার কখনও ‘দিলয়ালে দুলহানিয়া’র সিমরণ সেজে তাক লাগিয়ে দিচ্ছেন নিমেষেই।
বর্তমানে এই বঙ্গ ললনার টিকটক অনুরাগীর সংখ্যা ৮ লক্ষেরও বেশি।
 

আরও পড়ুন-টিকটকে ‘লাল ইশ্ক’-এ ভাসলেন নুসরত, নাচের তালে মাতলেন মিমি

অস্মিতা গুপ্ত
যদি হঠাৎ দেখেন স্বয়ং বেবো টিকটকে এসে তাঁর স্বভাবসিদ্ধ দুষ্টু-মিষ্টি ভঙ্গিতে ‘জব উই মেট’-এর ডায়লগ বলছেন, তা হলে চমকে যাবেন না। অস্মিতা গুপ্ত নামে এই টিকটকারের সঙ্গে সইফ-পত্নীর মুখের মিল অনেক। শুধু দেখতেই নয়, দু’জনের হাবভাবও অবিকল এক! সোশ্যাল মিডিয়া থেকে করিনা নিজেকে সরিয়ে রাখলেও তাঁর ফ্যানদের কাছে এই অস্মিতাই তাঁদের করিনা!
বর্তমানে তাঁর ফলোয়ার সংখ্যা তিন লাখেরও বেশি।

 

সিম্মি ঠাকুর
বলিউডে বলা হয়, রেখার মতো সুন্দরী ও ব্যক্তিত্বময়ী দ্বিতীয় কাউকে খুঁজে পাওয়া নাকি এক কথায় অসম্ভব। বলি পাড়ার অলিগলি খুঁজেও যখন মেলেনি দ্বিতীয় রেখার সন্ধান, তখন টিকটক অবলীলায় আমাদের সামনে এনে হাজির করেছে সে রকমই একজনকে। তিনি সিম্মি ঠাকুর। তাঁর টিকটক ওয়ালে নজর রাখলে দেখা যায় বিভিন্ন ভিডিয়ো, যেখানে তিনি স্বয়ং সম্রাজ্ঞীর মতো লাস্যময়ী ভঙ্গিতে মন জয় করছেন নেটিজেনদের।
বর্তমানে তাঁর ফলোয়ার সংখ্যা দুই লাখ অতিক্রম করেছে।
 

আরও পড়ুন-শরীরী বিভঙ্গে রাজ-শুভশ্রীর জমিয়ে ভাসান ডান্স, ভাইরাল হল ভিডিয়ো
 

এই তো গেল বলি পাড়ার নায়িকাদের গপ্পো। নায়কদের লুক অ্যালাইকরাও কিন্তু সমান তালের টক্কর দিচ্ছেন।


ইব্রাহিম কাদরি
মনে পড়ে সরষে খেতে কাঁধে গিটার নিয়ে দাঁড়িয়ে থাকা কিং খানকে? ডিডিএলজে-র এই দৃশ্য যে কোনও সিনেপ্রেমীর পক্ষেই ভোলা অসম্ভব। তবে এভারগ্রিন এই সিনেমার প্রায় ২৪ বছর পর আরও একবার সেই সব স্মৃতি তাজা হয়ে যায় ইব্রাহিম কাদরির ভিডিয়ো দেখে। হুবহু বাদশাহের মতোই রাজকীয় ভঙ্গিতে তাঁকে বেরিয়ে আসতে দেখা যায় হলুদে মোড়া দিগন্ত বিস্তৃত খেত থেকে, আবার কখনও চোখে কালো চশমা তুলে, গাল ভর্তি দাড়ি নিয়ে তিনি ‘রইস’।
বর্তমানে কিং খানের এই একনিষ্ঠ অনুরাগীর অনুরাগী সংখ্যা ৫ লক্ষের বেশি।
 

নাজিম খান
কিং খান যে দৌড়ে রয়েছেন, সেই দৌড়ে বলিউডের ভাইজান থাকবেন না, তা হয় নাকি? টিকটকের সুবাদেই সন্ধান মিলেছে নাজিম খানের, যাঁকে দেখলে আপনার নিমেষেই মনে পড়ে যেতে পারে তরুণ সলমনকে। তবে নাজিমের পরিচয় কিন্তু শুধু টিকটকেই সীমাবদ্ধ নয়। মোবাইলের ছোট্ট স্ক্রিনে দাপিয়ে বেড়ানোর আগেই কিন্তু ২০১৫ সালে তাঁকে দেখা যায় বড়পর্দায়। তাও আবার সলমন খানের চরিত্রেই। হ্যাঁ। ২০১৫ সালে কবীর খান পরিচালিত ‘বজরঙ্গি ভাইজান’ সিনেমাতে তরুণ বজরঙ্গির চরিত্রে দেখা যায় নাজিমকে।
সল্লু ভাইয়ের এই বিখ্যাত লুকঅ্যালাইকের টিকটক অনুরাগী সংখ্যা এখন আড়াই লক্ষেরও বেশি।