×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

১৭ মে ২০২১ ই-পেপার

চাপ কমাতে জেলে যোগে ভরসা রিয়ার 

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা ০৯ অক্টোবর ২০২০ ০৬:০০
হাজিরা: সান্তাক্রুজ় থানায় রিয়া চক্রবর্তী। বৃহস্পতিবার। পিটিআই

হাজিরা: সান্তাক্রুজ় থানায় রিয়া চক্রবর্তী। বৃহস্পতিবার। পিটিআই

অভিনেতা সুশান্ত সিংহ রাজপুতের মৃত্য নিয়ে সিবিআই, ইডি, এনসিবি-র মতো তিনটি তদন্তকারী সংস্থা তাঁকে লাগাতার জিজ্ঞাসাবাদ করেছে। তার পর জেল। প্রবল মানসিক চাপ থেকে বাঁচতে যোগ ব্যায়ামকেই বেছে নিয়েছিলেন অভিনেত্রী রিয়া চক্রবর্তী। বাইকুল্লা জেল থেকে মুক্তির পরে এ কথা জানিয়েছেন তাঁর আইনজীবী সতীশ মানেশিন্ডে।

মাদক যোগের অভিযোগে ২৮ দিন জেলে থাকতে হয়েছে সুশান্তের বান্ধবী রিয়াকে। গত কাল বম্বে হাইকোর্ট তাঁর জামিন মঞ্জুর করার পরে একটি টেলিভিশন চ্যানেলকে মানেশিন্ডে জানান, বাইকুল্লা জেলে গিয়ে তিনি দেখেছিলেন, মানসিক চাপ জয় করে অভিনেত্রী নিজেকে ভাল রেখেছেন। জেলে নিজে তো যোগব্যায়াম করতেনই, অন্য বন্দিদেরও যোগ শেখাতেন রিয়া।

এরই মধ্যে এনসিবি জানিয়েছে, বলিউডে মাদক যোগ নিয়ে তারা যে দ্বিতীয় এফআইআর করেছে, সেই তদন্তে রিয়াকে গ্রেফতার করা হবে না। রিয়াকে জামিন দেওয়া নিয়ে বম্বে হাইকোর্টের রায়ের বিরুদ্ধে তারা সুপ্রিম কোর্টে আর্জি জানাবে কিনা, তা-ও স্পষ্ট করেনি এনসিবি। তদন্তকারী সংস্থার এক আধিকারিক জানিয়েছেন, রায়ের কপি খতিয়ে দেখেই সুপ্রিম কোর্টে যাওয়ার ব্যাপারে ফয়সালা হবে।

Advertisement

আরও পড়ুন: ছেলেমেয়ের অবস্থা দেখে আমিও আত্মহত্যা করতে গিয়েছিলাম, বললেন রিয়ার মা​

সুশান্তের প্রাক্তন ম্যানেজার দিশা সেলিয়ানের অস্বাভাবিক মৃত্যু নিয়ে আদালতের নজরদারিতে সিবিআই তদন্তের আর্জি নিয়ে আজ মামলার শুনানি ছিল শীর্ষ আদালতে। প্রধান বিচারপতি শরদ অরবিন্দ বোবডের বেঞ্চ মামলাকারীদের বম্বে হাইকোর্টে যেতে বলেছে।

আরও পড়ুন: ‘এখনকার স্পোর্টস ফিল্ম মানেই একদল ছেলে, আর একটা মেয়ে’

আগামী ১২ অক্টোবর পর্যন্ত এই মামলার শুনানি স্থগিত রাখা হয়েছে। এই বিষয় নিয়ে জনস্বার্থ মামলার শুনানিতে আইনজীবী বিনীত ধান্ডা বলেন, সুশান্ত ও দিশার মৃত্যুর মধ্যে যোগসূত্র রয়েছে। দিশার অস্বাভাবিক মৃত্য নিয়ে মুম্বই পুলিশ কী তদন্ত করেছে, সেই রিপোর্ট শীর্ষ আদালতে পেশের নির্দেশ দিতে আর্জি জানানো হয়।

আরও পড়ুন: করোনার এত সাহস মিমিকে ধরবে: অঙ্কুশ​

আবেদনে বলা হয়েছে, পুলিশের তদন্ত রিপোর্টে আদালত যদি সন্তুষ্ট না হয়, সে ক্ষেত্রে তদন্তের দায়িত্ব সিবিআইকে দেওয়া হোক। ৮ জুন একটি অ্যাপার্টমেন্টের চোদ্দতলা থেকে পড়ে গিয়ে ২৮ বছর বয়সি দিশার মৃত্যু হয়।

Advertisement