Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২০ মে ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

Swastik Sanket: ফের হলি-টলি ভাই-ভাই! ‘স্বস্তিক সংকেত’-এ হিটলার হলিউড তারকা

Strap- কোয়েল মল্লিক যে পরিচালকের ‘লাকি চার্ম’, তিনি কেন এত বড় ক্যানভাসের ছবি থেকে বাদ?

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ২৬ ডিসেম্বর ২০২১ ০৭:৫৮
Save
Something isn't right! Please refresh.
Popup Close

একটি ছবি। অনেক ধাঁধা। এটাই পরিচালক সায়ন্তন ঘোষাল এবং এসকে মুভিজের আগামী ছবি ‘স্বস্তিক সংকেত’। রবিবাসরীয় সকালে আনন্দবাজার অনলাইন এবং প্রযোজনা সংস্থা যৌথ ভাবে প্রকাশ্যে আনল ছবির পোস্টার। প্রেক্ষাগৃহে ‘স্বস্তিক সংকেত’ মুক্তি পাবে জানুয়ারিতে। ছবির নাম থেকে লোগো, সবেতেই রহস্য ছড়িয়ে। আনন্দবাজার অনলাইনকে এমনই জানিয়েছেন স্বয়ং পরিচালক।

স্বস্তিক চিহ্ন যে কোনও শুভ কাজে আঁকা হয়। ছবিতে, পোস্টারে সেটাই উল্টো ভাবে দেখানো হচ্ছে। যেন নাৎসি বাহিনির লোগো। কেন? ভাবুন, দর্শকেরা ভাবুন!

ভাবার মতো আরও অনেক কিছুই আছে। সায়ন্তনের আগামী ছবিতে হিটলার, নেতাজি হয়ে আধুনিক ক্রিপ্টোগ্রাফি বা সংকেত তত্ত্ব এবং অতিমারির আভাসও রয়েছে। একটি ছবিতে এত কিছু উপাদান কেন? ‘ব্যোমকেশ’, ‘যকের ধন’-এর মতো সোজাসাপ্টা নয় কেন? জবাবে পরিচালকের যুক্তি, রহস্য তাঁর প্রিয়।

Advertisement

দর্শকেরাও বুঝে গিয়েছেন, সায়ন্তন মানেই রকমারি রহস্য। ‘লাল বাজার’ যেমন ফাঁস করেছে প্রশাসনের অন্দরের অন্ধকার দিকের কাহিনি। ঠিক সে ভাবেই এ বার দুই সময়ের প্রেক্ষাপটে রহস্যের জাল। পরিচালকের নিজের স্বাদবদল। দর্শকেরও। তাই বড় ক্যানভাসে রোমাঞ্চ দানা বেঁধেছে।

পাশাপাশি, ছবিতে তারকা সমাবেশও দেখার মতো। শতাফ ফিগার, শাশ্বত চট্টোপাধ্যায়, নুসরত জাহান, রুদ্রনীল ঘোষ, গৌরব চক্রবর্তী এবং বিদেশের ড্যানিয়েল টেলর, স্টিভ ড্যানিয়েল ল্যাঙ্গলে, মাইকেল উইলিয়ম লিভারসিজ প্রমুখ। ড্যানিয়েল এই ছবিতে নিখুঁত হিটলার!

লন্ডনে গিয়ে শ্যুট। তারকাদের সামলানো। ভিন্ন ভাষাভাষী মানুষের সঙ্গে কাজ। হিটলারের আমলের গ্যাস চেম্বার হত্যালীলার দৃশ্যগ্রহণ। সবটা হল কী করে? সায়ন্তন তাঁর পুরো কৃতিত্বই দিয়েছেন প্রযোজক অশোক ধানুকা, হিমাংশু ধানুকাকে। তাঁর দাবি, প্রযোজনা সংস্থার নাম এবং চরিত্র, চিত্রনাট্য জেনে কেউ না করেননি। তা ছাড়া, এই সংস্থার হাত ধরেই অভিনয় দুনিয়ায় পা রেখেছিলেন নুসরত। ফলে, খুব সহজেই সবটা হয়েছে। সায়ন্তনের দাবি, লন্ডনে পা দিয়ে তিনি বুঝেছেন, অন্য কোথাও শ্যুট করলে এ ছবির সঙ্গে অন্যায় করা হত। একই ভাবে গল্পের টানে ভিন্ন ভাষার অভিনেতারাও যেন ‘বাঙালি অভিনেতা’ হয়ে উঠেছিলেন।

ছবিতে সবাইকে সাজানোর দায়িত্বে সাবর্ণী দাস, আনন্দ আঢ্য, জন অ্যান্টনি নেলর। স্যাভির সুরে গান গেয়েছেন সোমলতা আচার্য, দেব-অরিজিৎ। কোয়েল মল্লিক যে পরিচালকের ‘লাকি চার্ম’, তিনি কেন এত বড় ক্যানভাসের ছবি থেকে বাদ? সায়ন্তনের কথায়, ‘‘বাদ নয় তো! কোয়েল ভীষণ ভাল অভিনেত্রী। কিন্তু ক্রিপ্টোগ্রাফি জানা ‘রুদ্রাণী’কে নুসরত ছাড়া কেউ ফুটিয়ে তুলতে পারতেন না।’’



Something isn't right! Please refresh.

আরও পড়ুন

Advertisement