• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

মাদক মামলায় রিয়া চক্রবর্তী ৬ অক্টোবর পর্যন্ত ফের জেল হেফাজতে

Rhea Chakraborty
—ফাইল চিত্র।

এখনই ছাড়া পাচ্ছেন না অভিনেত্রী রিয়া চক্রবর্তী। আগামী ৬ অক্টোবর পর্যন্ত জেল হেফাজতেই থাকতে হবে তাঁকে। মাদক মামলা সংক্রান্ত বিশেষ আদালত এনডিপিএস (নার্কোটিক ড্রাগস অ্যান্ড সাইকোট্রপিক সাবস্ট্যান্সেস)মঙ্গলবার তাঁর হেফাজতের মেয়াদ বাড়িয়েছে। তাই আপাতত মুম্বইয়ের বাইকুল্লা জেলেই থাকতে হবে তাঁকে। তবে ইতিমধ্যেই বম্বে হাইকোর্টে জামিনের আবেদন জানিয়েছেন রিয়া ও তাঁর ভাই শৌভিক। আগামী কাল তার শুনানি।

সুশান্ত সিংহ রাজপুতের মৃত্যুতে মাদক যোগ উঠে আসার পর গত ৯ সেপ্টেম্বর রিয়াকে গ্রেফতার করে নার্কোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরো (এনসিবি)। সে বারও ১৪ দিনের জেল হেফাজত হয় রিয়ার। মঙ্গলবার সেই মেয়াদ শেষ হয়ে যাওয়ায়, নতুন করে আদালতে আবেদন জানিয়েছিল এনসিবি। তাতেই আদালত এ দিন আরও ১৪ দিনের হেফাজত মঞ্জুর করে।

সুশান্তের মৃত্যুর আগে কয়েক মাস ধরে তাঁর সঙ্গে সম্পর্কে ছিলেন রিয়া। কিন্তু গত ১৪ জুন বান্দ্রার বাড়ি থেকে সুশান্তের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হওয়ার পর, রিয়াকেই কাঠগড়ায় তোলে প্রয়াত অভিনেতার পরিবার। রিয়ার নামে মামলা দায়ের করেন সুশান্তের বাবা। রিয়া তাঁর ছেলের টাকা নয়ছয় করেছেন এবং তাঁকে মৃত্যুর দিকে ঠেলে দিয়েছেন বলে অভিযোগ করেন তিনি।

আরও পড়ুন: এক দিকে প্রেমিকা তৃণা, অন্য দিকে নায়িকা তিয়াসা, দু’জনকে কী করে সামলাচ্ছেন নীল?​

শুরুতে মহারাষ্ট্র পুলিশের হাতে সুশান্ত মৃত্যুর তদন্তভার থাকলেও, সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশে পের তা সিবিআইয়ের হাতে ওঠে। টাকা নয়ছয়ের অভিযোগ খতিয়ে দেখার ভার পরে এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেটের।

এর পর প্রয়াত অভিনেতার মৃত্য়ুতে মাদক যোগও সামনে আসে। রিয়ার হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাটের সূত্র ধরেই বিষয়টি সামনে আসে বলে জানা যায়। তা নিয়ে তদন্তে নেমে রিয়ার ভাই শৌভিক চক্রবর্তীকে ৪ সেপ্টেম্বর গ্রেফতার করে এনসিবি। গ্রেফতার করা হয় সুশান্তের দুই কর্মচারীকেও। মাদক অভিযোগ নিয়ে সব মিলিয়ে এখনও পর্যন্ত ১৮ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

তবে তদন্তকারীদের দাবি, রিয়া এই মাদক চক্রের সক্রিয় সদস্য ছিলেন। সুশান্তের জন্য কী মাদক আনা হবে, কখন তার ডেলিভারি নেওয়া হবে এবং তার জন্য কত টাকা দিতে হবে, সুশান্তের সঙ্গে মিলে তিনিই সব ঠিক করতেন বলে আদালতে জানায় এনসিবি।  

আরও পড়ুন: ‘সুপার ড্রাগ’, রণবীরকে বলেছিলেন দীপিকা, ভাইরাল ছবি​

জেরায় রিয়া মাদক সেবন এবং তা সংগ্রহে যুক্ থাকার কথা স্বীকার করেছেন বলে এনসিবি সূত্রে জানা গিয়েছে। এমনকি নিজের বয়ানে বলিউডের বেশ কয়েক জন তারকার নামও তিনি ফাঁস করেছেন বলে খবর, যার মধ্যে শামিল রয়েছে অভিনেত্রী সারা আলি খান এবং শ্রদ্ধা কপূরের নামও। চলতি সপ্তাহেই ওই দু’জনকে জেরা করা হতে পারে।

একই সঙ্গে এই ঘটনায় নাম উটে এসেছে দীপিকা পাড়ুকোনেরও। মঙ্গলবার দীপিকার ম্যানেজার করিশ্মা প্রকাশকে জেরা করে এনসিবি। ট্যালেন্ট এজেন্সির একজিকিউটিভ জয়া সাহাকেও এ দিন দ্বিতীয় বার জেরা করা হয়। জেরা করা হয় সুশান্তের ম্যানেজার শ্রুতি মোদীকেও।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন