Advertisement
০৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৩
Bihar

কোয়রান্টিন সেন্টারে নর্তকীদের ডেকে আসর বসানোর অভিযোগ!

নাচের আসরের একটি ছবি প্রকাশ পেয়েছে। সেখানে দেখা যাচ্ছে, একটি স্কুল বিল্ডিংয়ের সামনে অন্তত তিন জন মহিলা নাচছেন। তাঁদের সামনে মাইক্রোফোন দাঁড় করানো রয়েছে। বিদ্যুতের আলোর ব্যবস্থা করা হয়েছে নাচ দেখার জন্য।

কোয়রান্টিন সেন্টারে নাচের আসর বসানোর অভিযোগ। ছবি: টুইটার থেকে নেওয়া।

কোয়রান্টিন সেন্টারে নাচের আসর বসানোর অভিযোগ। ছবি: টুইটার থেকে নেওয়া।

সংবাদ সংস্থা
পটনা শেষ আপডেট: ১৯ মে ২০২০ ২০:৫৬
Share: Save:

বিহারের এক কোয়রান্টিন সেন্টারে নাচের আসর বসানোর অভিযোগ উঠল। সেই ঘটনার একটি ছবিও প্রকাশ্যে এসেছে। সোমবার রাতে সমস্তিপুরার এক কোয়রান্টিন সেন্টারের ঘটানা বলে জানা গিয়েছে। বিষয়টি প্রকাশ্যে আসার পরই তদন্তের নির্দেশ দিয়েছে জেলা প্রসাশন।

Advertisement

কোয়রান্টিন সেন্টার থেকে সংশ্লিষ্ট আধিকারিক বা চিকিৎসকদের অনুমতি ছাড়া যেমন বাইরে বেরনো নিষিদ্ধ, তেমনি অনুমতি ছাড়া সেখানে কেউ ঢুকতেও পারেন না। কিন্তু সেই নিয়ম ভাঙার খবরই প্রকাশ্যে চলে এল। বিহারের সমস্তিপুরা জেলার কারাখ গ্রামের কোয়রান্টিন সেন্টারে এই ঘটনা বলে জানা গিয়েছে। সেখানে মনোরঞ্জনের জন্য বাইরে থেকে নর্তকীদের আনা হয় বলে অভিযোগ।

সংবাদ সংস্থা এএনআই-এর ভেরিফায়েড টুইটার হ্যান্ডলে আজ মঙ্গলবার সেই নাচের আসরের একটি ছবি প্রকাশ পেয়েছে। সেখানে দেখা যাচ্ছে, একটি স্কুল বিল্ডিংয়ের সামনে অন্তত তিন জন মহিলা নাচছেন। তাঁদের সামনে মাইক্রোফোন দাঁড় করানো রয়েছে। বিদ্যুতের আলোর ব্যবস্থা করা হয়েছে নাচ দেখার জন্য। আর আর সেই নাচের মঞ্চে কয়েকজন বসেও রয়েছেন। তাঁরা সম্ভবত হারমোনিয়াম বা অন্যান্য বাদ্যযন্ত্রে সঙ্গত দিচ্ছেন। আর আশপাশে ভিড় করে বেশ কয়েকজন সেই নাচ-গান দেখছেন।

আরও পড়ুন: করোনা মোকাবিলায় এক ভিক্ষুকের দান দেখে অকুণ্ঠ প্রশংসা নেটাগরিকদের

Advertisement

আরও পড়ুন: হৃতিক রোশনের নাচের নকল করে ভাইরাল টিকটক ইউজার​

কারা এই নাচের আসরের আয়োজন করেছেন, সে সম্পর্কে কোনও বিস্তারিত তথ্যের উল্লেখ নেই টুইটে। তবে সমস্তিপুরার অ্যাডিশনাল কালেক্টর জানিয়েছেন, তাঁরা বিষয়টি খতিয়ে দেখছেন, অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। ওই কোয়রান্টিন সেন্টারে বিনোদনের জন্য টিভির ব্যবস্থা করা হয়েছে বলেও জানান তিনি। কিন্তু বিনোদনের জন্য বাইরে থেকে এভাবে কাউকে আনার অনুমোদন নেই।

দেখুন সেই টুইট:

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.