×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

০৭ মে ২০২১ ই-পেপার

লকডাউনে স্নান বন্ধ করেছেন স্বামী, শারীরিক অত্যাচারের শিকার হয়ে পুলিশের দ্বারস্থ স্ত্রী

সংবাদ সংস্থা
বেঙ্গালুরু ২০ এপ্রিল ২০২০ ১৫:৪৭
প্রতীকী চিত্র।

প্রতীকী চিত্র।

২৪ মার্চ দেশ জুড়ে লকডাউন জারি হওয়ার পর থেকেই স্নান বন্ধ করে দিয়েছেন স্বামী। সেই অবস্থাতেই যৌনতার জন্য চাপ দিচ্ছেন। স্ত্রী তাতে রাজি না হওয়ায় করছেন মারধর। পরিচ্ছন্নতার বিষয়টি বার বার বললেও কানে তুলছেন না স্বামী। স্বামীর এই ‘অসভ্যতা’র হাত থেকে বাঁচতে বাধ্য হয়ে বেঙ্গালুরু পুলিশের হেল্পলাইন নম্বরে সাহায্য চাইলেন ৩১ বছরের এক মহিলা।

লকডাউন চালু হওয়ার পর থেকে ঘরবন্দি বিশ্ববাসী। এই সময়কালে বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্ত থেকেই উঠে আসছে গার্হস্থ্য হিংসার নানা ঘটনা। মানসিক লাঞ্ছনার পাশাপাশি, শারীরিক লাঞ্ছনার ঘটনাও দেখা যাচ্ছে কোথাও কোথাও। জয়নগরের ৩১ বছরের ওই মহিলা দুই সন্তানের মা। তাঁর স্বামী মুদিখানার দোকান আছে বলে পুলিশকে জানিয়েছেন ওই মহিলা। কিন্তু লকডাউনের পর থেকেই তা খুলছেন না স্ত্রীকে লাঞ্ছনায় অভিযুক্ত ওই ব্যক্তি।

সিনিয়র কাউন্সিলর বিএস সরস্বতী এ বিষয়ে বলেছেন, ‘‘মহিলার স্বামীর আচরণ পাল্টাতে কাউন্সেলিং করা হয়েছে। মহামারির সময় পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন থাকার গুরুত্বও বলা হয়েছে। সম্প্রতি বাবার দেখাদেখি তাঁর নয় বছরের মেয়ে স্নান করা বন্ধ করে দিয়েছে।’’ চিকেন বিরিয়ানি করতে অস্বীকার করায় অভিযোগকারিণী মহিলাকে তাঁর স্বামী মারধর করেছিলেন বলেও জানিয়েছেন তিনি।

Advertisement
Advertisement