×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

১৯ জানুয়ারি ২০২১ ই-পেপার

স্ত্রী অন্তঃসত্ত্বা, লন্ডনে ছুরি হামলায় নিহত ভারতীয়, সুষমার সাহায্য প্রার্থনা পরিবারের

সংবাদ সংস্থা
হায়দরাবাদ১০ মে ২০১৯ ১৫:০৭
নিহত ভারতীয় নাদিমুদ্দিন। ছবি টুইটার থেকে নেওয়া।

নিহত ভারতীয় নাদিমুদ্দিন। ছবি টুইটার থেকে নেওয়া।

অজ্ঞাতপরিচয় আততায়ীর হামলায় লন্ডনে নিহত ভারতীয়। বিদেশমন্ত্রী সুষমা স্বরাজের সাহায্য প্রার্থনা করলেন পরিবারের সদস্যরা।

গত বুধবার হায়দরাবাদের এক যুবকের উপরে ছুরি দিয়ে হামলা চালায় আততায়ী। হাসপাতালে নিয়ে গেলে মৃত্যু হয় যুবকের।

মহম্মদ নাদিমুদ্দিন নামে ওই ব্যক্তি টেসকো সুপারমার্কেটের একটি শপিং মলে কর্মরত ছিলেন। লন্ডনে প্রায় ছয় বছর ছিলেন তিনি। দেশেও আসতেন প্রায়ই। তাঁর স্ত্রী অন্তঃসত্ত্বা। নাদিমুদ্দিন জন্মসূত্রে হায়দরাবাদের মানুষ। তাঁর  পরিবার থাকে হায়দরাবাদের নূর খান বাজার এলাকায়। পারিবারিক বন্ধু ফাহিম কুরেশি অভিযোগে বলেন, একজন এশীয় ব্যক্তিই এই হামলার জন্য দায়ী। 

Advertisement

আরও পড়ুন: অ্যাসিড ঢেলে ঘুমন্ত দম্পতিকে খুন, মৃত্যুদণ্ড দিল মহারাষ্ট্রের আদালত

ফাহিম বলেন, সব রকম কাজ মিটতে প্রায় সপ্তাহ দুয়েক লেগেই যাবে। নাদিমুদ্দিনের দেহ দেশে ফিরতেও ওরকমই সময় লাগবে। তাই  কেন্দ্রের সাহায্য চেয়েছেন তাঁরা।

আরও পড়ুন: আরও দু’দিন কলকাতায় প্যাচপেচে গরম, ৯ জেলায় তাপপ্রবাহের সতর্কতা​

নাদিমুদ্দিন বাড়ি না ফেরায় পরিবারের লোকজন চিন্তিত ছিলেন। পরিবারের তরফে টেসকো কর্তৃপক্ষের সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়। এর পর পুলিশে খবর দেওয়া হলে পার্কিং এলাকায় নাদিমুদ্দিনের মৃতদেহ উদ্ধার হয়। তাঁর গায়ে ছুরির অসংখ্য আঘাত ছিল।

প্রাথমিক তদন্তে পুলিশের অনুমান, ছুরি হামলাতেই মৃত্যু হয়েছে ওই ব্যক্তির। শপিং মলের কাছেই পার্কিং লটে তাঁর দেহ মেলায় আতঙ্ক তৈরি হয় মলে আসা ব্যক্তিদের মধ্যেও। টেমস ভ্যালির পুলিশ সিল করে দেয় ওই এলাকা।

টিভিপি-র তরফে গোয়েন্দা প্রধান ইয়ান হান্টার বলেন, ‘‘কোনওরকম আতঙ্কের কারণ নেই। পূর্ণাঙ্গ তদন্ত জারি থাকবে এই খুনের মামলায়। সিসিটিভি ফুটেজও খতিয়ে দেখা হচ্ছে অজ্ঞাতপরিচয় আততায়ীকে শনাক্ত করার জন্য’’।

Advertisement