Advertisement
০৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৩
National News

নির্জোট সম্মেলনেও কাশ্মীর কাঁদুনি পাকিস্তানের, সন্ত্রাসের ‘ভরকেন্দ্র’, পাল্টা ভারতের

পাকিস্তানের প্রতিনিধি হিসেবে যোগ দিয়েছিলেন রাষ্ট্রপতি আরিফ আলভি। কাশ্মীর ইস্যু তিনিই প্রথম ভারতকে আক্রমণ করেন।

বাকুতে নির্জোট সম্মেলনের ফাঁকে ভেনিজুয়েলার উপ-রাষ্ট্রপতির সঙ্গে বৈঠক বেঙ্কাইয়া নায়ডুর। ছবি: পিটিআই

বাকুতে নির্জোট সম্মেলনের ফাঁকে ভেনিজুয়েলার উপ-রাষ্ট্রপতির সঙ্গে বৈঠক বেঙ্কাইয়া নায়ডুর। ছবি: পিটিআই

স‌ংবাদ সংস্থা
নয়াদিল্লি শেষ আপডেট: ২৭ অক্টোবর ২০১৯ ১৫:২১
Share: Save:

নির্জোট সম্মেলনেও কাশ্মীর উত্তাপ। শুধু উত্তাপই নয়, রীতিমতো তিক্ততার পর্যায়ে নেমে এল ভারত-পাক বাগযুদ্ধ। ইসলামাবাদ যখন ৩৭০ অনুচ্ছেদ বিলোপ নিয়ে সরব, জবাবে কড়া ভাষায় নাম করেই পাকিস্তানকে তোপ দাগল ভারত। আজারবাইজানের বাকুতে দু’দিনের নির্জোট সম্মেলনে ভারতের প্রতিনিধি ছিলেন উপরাষ্ট্রপতি বেঙ্কাইয়া নায়ডু। কোনও রাখঢাক না করেই তিনি বেলেন, ‘‘পাকিস্তান সন্ত্রাসের ভরকেন্দ্র।’’

Advertisement

উন্নত দেশগুলির নানা অত্যাচার, শোষণের প্রতিবাদে এক জোট হতে এবং নিজেদের দেশের স্বাধীনতা, সার্বভৌমত্ব অক্ষুণ্ণ রাখতে গত শতাব্দীর ছয়ের দশকে গঠিত হয় নন অ্যালাইনড মুভমেন্ট বা ন্যাম। এ বছর এই সংগঠনের সম্মেলন বসেছিল আজারবাইজানের বাকুতে। ২৬ ও ২৭ অক্টোবর দু’দিনের সম্মেলনে ভারত, পাকিস্তান, নেপাল, ভুটান—সহ অধিকাংশ দেশের শীর্ষ নেতৃত্ব হাজির ছিলেন।

এই সম্মেলনে পাকিস্তানের প্রতিনিধি হিসেবে যোগ দিয়েছিলেন রাষ্ট্রপতি আরিফ আলভি। কাশ্মীর ইস্যুতে তিনিই প্রথম ভারতকে আক্রমণ করেন। ৩৭০ অনুচ্ছেদ বিলোপ করে জম্মু-কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা তুলে নেওয়ার ঘটনাকে ‘ড্রাকোনিয়ান’ আখ্যা দিয়ে তিনি বলেন, সাম্প্রতিক কালে এর মতো ভয়ঙ্কর আর কোনও আইন পাওয়া যাবে না।

জবাবে পাকিস্তানকে সন্ত্রাসের ভরকেন্দ্র বলে উল্লেখ করে উপরাষ্ট্রপতি বেঙ্কাইয়া নায়ডুর পাল্টা তোপ, ‘‘নির্জোট সম্মেলনে আমরা সবাই উন্নয়ন নিয়ে নির্দিষ্ট লক্ষ্যে পৌঁছনোর কথা বলছি। আন্তর্জাতিক মহলের আস্থা অর্জন করতে পাকিস্তানের আরও অনেক কিছু করতে হবে। শুধু নিজেদের জন্য নয়, প্রতিবেশী এবং গোটা বিশ্বের ভালর জন্যই সন্ত্রাস দূর করতে হবে।’’

Advertisement

আরও পড়ুন: বাগাদাদিকে ধরতে মার্কিন অভিযান, আত্মঘাতী বোমায় নিজেকে ওড়াল আইএস শীর্ষ নেতা!

আরও পড়ুন: গতি ঘণ্টায় ২০০ কিমি, ঘূর্ণিঝড় কিয়ারের দাপটে উত্তাল আরব সাগর, ৪ রাজ্যে সতর্কতা জারি

৩৭০ অনুচ্ছেদ বিলোপের পর থেকেই এ নিয়ে আন্তর্জাতিক মঞ্চে নিজেদের পক্ষে জনমত তৈরির চেষ্টা করছে। এমনকি, রাষ্ট্রপুঞ্জেও এই ইস্যু তোলার চেষ্টা করেন। যদিও চিন ছাড়া আর কাউকেই পাশে পায়নি ইসলামাবাদ। আবার ৫ অগস্ট ভারতের এই সিদ্ধান্তের পর থেকেই আন্তর্জাতিক যে কোনও সম্মেলনেই ভারত-পাক সংঘাত চরমে উঠেছে। সেই প্রবণতায় ছেদ পড়ল না নির্জোট সম্মেলনের মঞ্চেও।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.