Advertisement
০৯ ডিসেম্বর ২০২২
Omicron

Omicron: মহারাষ্ট্রে ওমিক্রন আক্রান্ত ১৭, জমায়েতে দু’দিন নিষেধাজ্ঞা মুম্বইয়ে, জারি ১৪৪ ধারা

শুক্রবার রাজ্যে সাত জনের দেহে ওমিক্রনের হদিশ মিলেছে। আক্রান্তদের মধ্যে সাড়ে তিন বছরের একটি শিশুও রয়েছে বলে জানিয়েছে স্বাস্থ্য দফতর।

মহারাষ্ট্রে ওমিক্রন আক্রান্ত ১৭ জন। ফাইল চিত্র।

মহারাষ্ট্রে ওমিক্রন আক্রান্ত ১৭ জন। ফাইল চিত্র।

সংবাদ সংস্থা
মুম্বই শেষ আপডেট: ১১ ডিসেম্বর ২০২১ ০৮:৫৭
Share: Save:

মহারাষ্ট্রে ওমিক্রন আক্রান্তের সংখ্যা ক্রমশ বাড়ছে। এক দিনেই তিন জন আক্রান্তের হদিশ মেলায় এ বার বড় জমায়েতের উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করল মুম্বই পুলিশ। দেশে ওমিক্রন আক্রান্তের সংখ্যা ৩২। তার মধ্যে মহারাষ্ট্রেই আক্রান্ত হয়েছেন ১৭ জন।

সংবাদ সংস্থা পিটিআই পুলিশের এক আধিকারিকের বক্তব্যকে উদ্ধৃত করে জানিয়েছে, দু’দিনের জন্য কোনও বড় জমায়েত, মিছিল করা যাবে না। শনিবার থেকেই এই নির্দেশ কার্যকর হবে ৪৮ ঘণ্টার জন্য। অর্থাৎ রবিবার পর্যন্ত এই নির্দেশ বহাল থাকবে।

Advertisement

শুক্রবার সাড়ে তিন বছরের একটি শিশু-সহ সাত আক্রান্তকে চিহ্নিত করে রাজ্য স্বাস্থ্য দফতর। তাঁদের মধ্যে তিন জন তানজানিয়া, ব্রিটেন এবং দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে সম্প্রতি মুম্বইয়ে ফিরেছেন। রাজ্যের মোট ওমিক্রন আক্রান্তের মধ্যে মুম্বইয়ে পাঁচ জনের দেহে এই ভাইরাস মিলেছে বলে স্বাস্থ্য দফতর জানিয়েছে।

বৃহন্মুম্বই পুরসভা জানিয়েছে, তানজানিয়া থেকে যে ব্যক্তি মুম্বইয়ে ফিরেছেন, তাঁর শরীরে ওমিক্রনের মৃদু উপসর্গ ধরা পড়েছে। কোভিডের কোনও টিকাই নেওয়া ছিল না তাঁর। ব্রিটেন থেকে যে ব্যক্তি ফিরেছেন, দু’টি টিকাই নেওয়া ছিল তাঁর। ওমিক্রনের কোনও উপসর্গ ধরা পড়েনি ওই ব্যক্তির শরীরে। মুম্বইয়ে যে সাত জনের দেহে ওমিক্রনের হদিশ মিলেছে, তাঁদের মধ্যে চার জনের দু’টি টিকা নেওয়া ছিল। তাঁরা প্রত্যেকেই উপসর্গহীন। অন্য দিকে, বাকি তিন জনের দেহে মৃদু উপসর্গ ধরা পড়েছে।

১ ডিসেম্বর পর্যন্ত মুম্বই, পুণে এবং নাগপুর বিমানবন্দর দিয়ে ৬১ হাজার ৪৩৯ জন বিদেশ থেকে মহারাষ্ট্রে ঢুকেছেন। তাঁদের মধ্যে ৯ হাজার ৬৭৮ জন ‘ঝুঁকিপূর্ণ’ দেশ থেকে এসেছেন বলে জানিয়েছেন বৃহন্মুম্বই পুরসভা।

Advertisement
(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.