Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৮ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

বিধানসভা ভোটের আগে অসমে পাট্টা বিলি প্রধানমন্ত্রীর, বক্তৃতায় নেতাজির কথা

প্রধানমন্ত্রী জানান, অসমীয়া ভাষা এবং সাংস্কৃতিক ঐতিহ্য রক্ষার বিষয়টি এনডিএ সরকারের অগ্রাধিকারের তালিকায় রয়েছে।

সংবাদ সংস্থা
গুয়াহাটি ২৩ জানুয়ারি ২০২১ ১৩:৪২
অসমের শিববাগরে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।

অসমের শিববাগরে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।
ছবি: পিটিআই।

বিধানসভা ভোটের মুখে অসম সফরে গিয়ে সে রাজ্যের লক্ষাধিক ভূমিহীনকে পাট্টা বিলি করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। শনিবার শিবসাগর জেলায় এক সরকারি অনুষ্ঠানে ১ লক্ষ ৬ হাজার ভূমিহীন ভূমিপুত্রের হাতে জমির পাট্টা বিতরণের সরকারি কর্মসূচির সূচনা করে তিনি বলেন, ‘‘স্বাধীনতার কয়েক দশক পরেও লক্ষ লক্ষ আদিবাসী এবং ভূমিহীন অহমীয়া পরিবার জমির অধিকার থেকে বঞ্চিত ছিল। আমরা তাঁদের ন্যায্য অধিকার দেওয়ার প্রচেষ্টা শুরু করেছি।’’

জেরেঙ্গো পোঠার মাঠের জনসভায় প্রধানমন্ত্রীর দাবি, ২০১৬ সালে বিধানসভা ভোটের পর অসমে প্রথম বার বিজেপি নেতৃত্বাধীন সরকার গঠনের সময় রাজ্যে মোট ভূমিহীনের সংখ্যা ছিল ৬ লক্ষ। তাঁর কথায়, ‘‘এর আগে অসমের মুখ্যমন্ত্রী সর্বানন্দ সোনওয়াল ২ লক্ষ ২৫ হাজার ভূমিহীনকে পাট্টা দিয়েছেন। আজ সেই সংখ্যা আরও ১ লক্ষ বাড়ল।’’ প্রসঙ্গত, ২০১৬ সালে অসমে বিধানসভা ভোটের প্রচারে বিজেপির স্লোগান ছিল, ‘জাতি, মাটি ও ভেটি’ অর্থাৎ ‘জাতি, মাটি ও ভিটে’।

Advertisement

আগামী এপ্রিলে পশ্চিমবঙ্গের সঙ্গে অসমেও বিধানসভা ভোট হওয়ার কথা। শনিবার মোদী তাঁর বক্তৃতাতেও ভোটের প্রসঙ্গ ছুঁয়েছেন। তাঁর কথায়, ‘‘দুই ইঞ্জিনের সরকার (কেন্দ্রে এবং রাজ্যে একই দলের শাসন) থাকলে উন্নয়ন তরান্বিত হয়।’’ রাজ্যবাসীর কাছে ‘আত্মবিশ্বাসের সঙ্গে আত্মনির্ভর অসম গড়া’র আহ্বান জানান তিনি। প্রধানমন্ত্রীর দাবি, ‘দুই ইঞ্জিনের সরকার’ অসমের প্রতিটি বাড়িতে পানীয় জল পৌঁছে দেওয়ার লক্ষ্যে নিরবচ্ছিন্ন ভাবে কাজ করে চলেছে। অসমের ৪০ শতাংশ নাগরিক কেন্দ্রের ‘আয়ুষ্মান ভারত’ প্রকল্পে উপকৃত হয়েছেন।

অসমীয়া ভাষা এবং সাংস্কৃতিক ঐতিহ্য রক্ষার বিষয়টি এনডিএ সরকারের অগ্রাধিকারের তালিকায় রয়েছে বলেও দাবি করেন প্রধানমন্ত্রী। সেই সঙ্গে তিনি জানান, করোনা অতিমারি পরিস্থিতির মোকাবিলায় সর্বানন্দের সরকার দৃষ্টান্তমূলক কৃতিত্বের নজির রেখেছে।

পশ্চিমবঙ্গে পৌঁছনোর আগে শনিবার অসমের জনসভায় সুভাষচন্দ্র বসুর ১২৫তম জন্মদিন এবং ‘পরাক্রম দিবস’-এর প্রসঙ্গ এসেছে মোদীর বক্তৃতায়। উজান অসমের বাঙালি অধ্যুষিত শিবসাগরে তাঁর মন্তব্য, ‘‘নেতাজির জীবন আজও আমাদের অনুপ্রেরণা দেয়। তাই এই দিনটি আমরা ‘পরাক্রম দিবস’ হিসেবে পালনের সিদ্ধান্ত নিয়েছি।’’

আরও পড়ুন

Advertisement