Advertisement
২৫ জুলাই ২০২৪
National News

এ বার গোরক্ষকের বাড়ি থেকে উদ্ধার বিপুল পরিমাণ বিস্ফোরক

গোপন সূত্রে খবর পেয়ে বৃহস্পতিবার গভীর রাতে বৈভবের বাড়িতে অভিযানে যায় মহারাষ্ট্র পুলিশের অ্যান্টি টেররিস্ট স্কোয়াড (এটিএস)। বাড়িতে তল্লাশিতে প্রচুর বিস্ফোরক মেলে। অভিযান চালানো হয় তাঁর দোকানেও। সেখানে বেশ কয়েকটি তাজা বোমা মেলে। পাশাপাশি উদ্ধার হয় বেশ কিছু পুস্তিকা ও পত্র-পত্রিকা। 

এই বাড়ি থেকেই উদ্ধার হয় বিস্ফোরক। (ইনসেটে) গ্রেফতার বৈভব রাউত। ছবি: টুইটারের সৌজন্যে

এই বাড়ি থেকেই উদ্ধার হয় বিস্ফোরক। (ইনসেটে) গ্রেফতার বৈভব রাউত। ছবি: টুইটারের সৌজন্যে

সংবাদ সংস্থা
মুম্বই শেষ আপডেট: ১০ অগস্ট ২০১৮ ১৮:২৬
Share: Save:

এ বার মহারাষ্ট্রের এক স্বঘোষিত গোরক্ষকের বাড়ি থেকে বিপুল পরিমাণ বিস্ফোরক উদ্ধার করল পুলিশ। উদ্ধার হওয়া বিস্ফোরকের পরিমাণ এতটাই, এই ঘটনাকে মালেগাঁও পার্ট টু বলে মনে করা হচ্ছে। বৃহস্পতিবার গভীর রাতে পালঘর জেলার নাল্লাসোপাড়া এলাকার বাসিন্দা বৈভব রাউতের বাড়ি ও দোকানে তল্লাশিতে এই বিস্ফোরক মেলে। রাতেই তাঁকে গ্রেফতার করে পুলিশ। বৈভব ‘হিন্দু গোবংশ রক্ষা সমিতি’ নামে একটি কট্টরপন্থী সংগঠনের সক্রিয় সদস্য। স্বঘোষিত গোরক্ষার কর্মকাণ্ডে বিভিন্ন সময়ে তাঁকে দেখা গিয়েছে।

গোপন সূত্রে খবর পেয়ে বৃহস্পতিবার গভীর রাতে অত্যন্ত সন্তর্পণে বৈভবের বাড়িতে অভিযানে যায় মহারাষ্ট্র পুলিশের অ্যান্টি টেররিস্ট স্কোয়াড (এটিএস)। বাড়িতে প্রচুর বিস্ফোরক মেলে। অভিযান চালানো হয় তাঁর দোকানেও। সেখানে বেশ কয়েকটি তাজা বোমা মেলে। পাশাপাশি উদ্ধার হয় বেশ কিছু পুস্তিকা ও পত্র-পত্রিকা। প্রাথমিক ভাবে পুলিশের অনুমান, ওই বোমা ও বিস্ফোরকগুলি খুবই শক্তিশালী। ধৃত বৈভবকে জিজ্ঞাসাবাদ করে এই ধরনের কার্যকলাপে আরও কেউ যুক্ত আছে কি না, তা জানার চেষ্টা করছে পুলিশ।

বৈভব ‘হিন্দু জনজাগৃতি মঞ্চ’-এর শাখা কট্টরপন্থী সংগঠন ‘হিন্দু গোবংশ রক্ষা সমিতি’র সদস্য। মূল সংগঠনের পক্ষ থেকেও সে কথা স্বীকার করে নেওয়া হয়েছে। তবে একই সঙ্গে ওই সমিতির দাবি, আগে নানা কর্মসূচিতে বৈভব অংশগ্রহণ করত। তবে গত কয়েক মাস ধরেই তাঁকে আর কোনও কর্মসূচিতে পাওয়া যায়নি।

আরও পডু়ন: মুম্বইয়ে দাউদের ভগ্নপ্রায় বাড়ির দাম উঠল সাড়ে তিন কোটি!

আরও পড়ুন: দিল্লির স্কুলে দ্বিতীয় শ্রেণির ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ

২০০৮ সালের ২৯ সেপ্টেম্বর মহারাষ্ট্রের মালেগাঁওয়ের ভিখু চকে বিস্ফোরণ ঘটে। ঘটনায় ছ’জনের মৃত্যু হয়। মুসলিম প্রধান এলাকা হওয়ায় অভিযোগ ওঠে হিন্দু কট্টরপন্থীদের দিকে। পুলিশ জানিয়েছে, বড়সড় কোনও নাশকতার ছক ছিল কি না, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

Explosive ATS Police Malegaon Blast
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE